২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

হোশি কুনিও ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছিলেন কিনা তদন্ত চলছে

  • নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত নয় মালয়েশিয়া

কূটনৈতিক রিপোর্টার ॥ জাপানী নাগরিক হোশি কুনিও ইসলাম ধর্মগ্রহণ করেছিলেন কি-না সেটা তদন্ত করছে বাংলাদেশ। তদন্ত শেষ হলে এ বিষয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে জাপানকে জানাবে সরকার। ঢাকার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। এদিকে বাংলাদেশে নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে চিন্তিত নয় বলে জানিয়েছে মালয়েশিয়া।

রংপুরে নিহত জাপানী নাগরিক হোশি কুনিও ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছিলেন কি-না সেটা নিয়ে বিভ্রান্তি রয়েছে। সেখানে স্থানীয় জনগণ যারা হোশি কুনিওকে ব্যক্তিগতভাবে চেনেন, তাদের দাবি হোশি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছেন। তবে তিনি সত্যিই ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছিলেন কি-না সে বিষয়ে বাংলাদেশ সরকারের বক্তব্য চায় জাপান। ইসলাম ধর্ম গ্রহণের বিষয়টি নিয়ে তাদের মধ্যে সন্দেহ রয়েছে। সে কারণে জাপান দূতাবাসের পক্ষ থেকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে এ বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহ করে দেয়ার জন্য অনুরোধ করা হয়।

জাপানী নাগরিক হোশি কুনিওর ইসলাম ধর্মগ্রহণের বিষয়ে বিস্তারিত জানতে চেয়ে ইতোমধ্যেই পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একটি চিঠি পাঠানো হয়েছে। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওই চিঠিতে উল্লেখ করা হয়, রংপুরে জাপানী নাগরিক হোশি কুনিও হত্যাকা-ের শিকার হয়েছেন। তবে তিনি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছিলেন কি-না সে বিষয়ে বিতর্ক রয়েছে। ঢাকার জাপান দূতাবাস থেকে এ বিষয়ে জানতে চাওয়া হয়েছে। সে কারণে প্রকৃতপক্ষে তিনি ইসলাম ধর্ম গ্রহণ করেছিলেন কি-না সে বিষয়ে জানাতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে অনুরোধ করা হয়। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ইতোমধ্যেই এ বিষয়ে তদন্ত করছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তদন্ত প্রতিবেদন পাওয়ার পরে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে এ বিষয়ে ঢাকার জাপানী দূতাবাসে আনুষ্ঠানিকভাবে চিঠি দিয়ে জানানো হবে।

এদিকে জানা গেছে, মঙ্গলবার ভোরে রংপুর শহরের মুন্সীপাড়া কবরস্থানে হোশি কুনিওর লাশ দাফন করা হয়েছে। নিহত হওয়ার প্রায় ১০ দিন পর তার লাশ দাফন করা হয়। হোশি কুনিও নিহতের পর তার লাশ বাংলাদেশে না জাপানে দাফন করা হবে এ নিয়ে দুই দেশের মধ্যে আলোচনা চলছিল। তবে জাপান সরকার বাংলাদেশে দাফনের জন্য সম্মতি দেয়ার পরে হোশি কুনিও’র লাশ এখানে দাফন করা হয়।

জাপানী নাগরিক কুনিও হত্যার বিষয়ে তদন্ত করছে বাংলাদেশ। তার খুনীদের দ্রুত খুঁজে বের করতে চায় সরকার। সে কারণে তদন্ত জোরদার করা হয়েছে বলে জানা গেছে। এদিকে হোশি কুনিওর হত্যার তদন্ত করছে জাপান সরকারও। বাংলাদেশ সরকারের পাশাপাশি জাপান সরকারের পক্ষ থেকেও তদন্ত করা হচ্ছে। এই লক্ষ্যে তিন সদস্যের একটি প্রতিনিধি দলও ঢাকা সফরে রয়েছেন। তাদের তদন্ত শেষ হলে সেটাও বাংলাদেশ সরকারকে জানাবে জাপান।

উল্লেখ্য, জাপানী নাগরিক হোশি কুনিওকে গত ৩ অক্টোবর রংপুরে দুর্বৃত্তরা হত্যা করে।

নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত নয় মালয়েশিয়া ॥ বাংলাদেশে নিরাপত্তা নিয়ে মালয়েশিয়া চিন্তিত নয় বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত মালয়েশিয়ান হাইকমিশনার নরলিন ওথমেন। মঙ্গলবার রাজধানীর হোটেল সোনারগাঁওয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি এ কথা বলেন।