২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

প্রত্যক্ষদর্শীসহ ৬ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ

  • শিশু রাকিব হত্যা মামলা

স্টাফ রিপোর্টার, খুলনা অফিস ॥ খুলনায় আলোচিত শিশু রাকিব হত্যা মামলায় মঙ্গলবার প্রত্যক্ষদর্শীসহ ৬ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়েছে। খুলনা মহানগর দায়রা জজ আদালতে ভারপ্রাপ্ত বিচারক দিলরুবা সুলতানা তাদের সাক্ষ্যগ্রহণ করেন। রাকিব হত্যা মামলায় মোট ৪০ জন সাক্ষীর মধ্যে গত তিন দিনে ২১ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করা হলো। আজ বুধবার পুলিশ, ডাক্তারসহ ১২ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করা হবে।

বাদীপক্ষের আইনজীবী ও বাংলাদেশ মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থা, খুলনার সমন্বয়কারী এ্যাডভোকেট মোমিনুল ইসলাম জানান, সোমবার খুলনা মহানগর দায়রা জজ আদালতে রাকিব হত্যা মামলায় ৬ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ করা হয়েছে। সাক্ষ্য প্রদানকারীরা হলেন- সরোয়ার হোসেন, কামরুল মোল্লা, সুমন হাওলাদার, শিশু নাবিল হাসান ফাহিম, নূর আলম শেখ ও সেলিম শেখ। উল্লেখ্য, এক কর্মস্থল ছেড়ে অন্যস্থানে যোগ দেয়ায় শিশু রাকিবকে গত ৩ আগস্ট বিকেলে মোটরসাইকেলে হাওয়া দেয়া কম্প্রেসার মেশিনের পাইপের মুখ মলদ্বারে ঢুকিয়ে পেটে হাওযা দেয়ায় তার মৃত্যু হয়।

গাইবান্ধায় আগুনে পুড়ে মা ও শিশুর মৃত্যু

নিজস্ব সংবাদদাতা, গাইবান্ধা, ১৩ অক্টোবর ॥ সদর উপজেলার বল্লমঝাড় ইউনিয়নের সোনাইডাঙ্গা গ্রামে মঙ্গলবার দুপুরে অগ্নিকা-ের ঘটনায় মা ও শিশুর মৃত্যু হয়েছে। আগুনে পুড়ে যাওয়া মর্জিনা বেগম (৩৩) ও তার ১৮ মাস বয়সী মেয়ে আসমা-উল হুসনা ওই গ্রামের আশরাফুল ইসলাম কবিরাজের স্ত্রী ও সন্তান। জানা গেছে, দুপুর দেড়টার দিকে মর্জিনা তার সন্তান আসমা-উল হুসনাকে নিয়ে ঘরে ঘুমিয়ে ছিলেন। এ সময় হঠাৎ আগুনের সূত্রপাত হলে আশরাফুল কবিরাজের বাড়ির দুটি ঘর ও আসবাবপত্র নগদ টাকাসহ বিভিন্ন মালামাল পুড়ে যায়। এতে ঘরে শুয়ে থাকা মা ও মেয়ে দু’জনই মারা যায়।

বোয়ালমারীতে বৃদ্ধা

সংবাদদাতা বোয়ালমারী, ফরিদপুর থেকে জানান, বোয়ালমারী উপজেলার গুনবহা ইউনিয়নের কামারগ্রামে সোমবার সন্ধ্যায় আতিয়ার মোল্যা ও তার ভাই আবুশাম মোল্যার দুটি চারচালা টিনের ঘর আসবাবপত্রসহ ৫০ হাজার টাকা আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। এ সময় আতিয়ার মোল্যার অসুস্থ শাশুড়ি সাজু বেগম (১০০) ঘরের ভেতরে আগুনে পুড়ে কয়লা হয়ে যায়। উপজেলার ফায়ারব্রিগেড আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ফায়ারব্রিগেডের লিডার মোঃ হাফিজুর রহমান জানান, বৈদ্যতিক শর্টসার্কিট থেকে এ আগুনের সূত্রপাত।

বেওয়ারিশ কুকুর নিধন

নিজস্ব সংবাদদাতা, মংলা, ১৩ অক্টোবর ॥ মংলা পোর্ট পৌরসভা কর্তৃপক্ষ বেওয়ারিশ কুকুর নিধন অভিযান শুরু করেছে। মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত ৫০টিরও বেশি কুকুর হত্যা করে পৌরসভা কর্তৃপক্ষ। খাবারের লোভ দেখিয়ে বিষাক্ত ইনজেকশনের মাধ্যমে কুকুরগুলো হত্যা করে মাটি চাপা দেয়া হচ্ছে বলে পৌর কর্তৃপক্ষ জানিয়েছেন। মংলা পৌরসভার স্বাস্থ্য কর্মকর্তা জানান আশ্বিন-কার্তিক মাসে কুকুর কামড়ালে জলাতঙ্ক রোগ হয়।

ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ

সংবাদদাতা, রায়পুর, লক্ষ্মীপুর, ১৩ অক্টোবর ॥ রায়পুরে জেলেদের জালে ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ মাছ ধরা পড়ছে। তাই জেলেদের মুখে হাসি ফুটেছে। রায়পুরের মেঘনায় গত তিন দিনে ১৫টি ঘাটে বেচাকেনা হয়েছে অন্তত তিন হাজার মণ ইলিশ। ফলে উপজেলার বিভিন্ন হাট-বাজারে এখন শুধু ইলিশ আর ইলিশ। দামও কমেছে অনেক। ক্রেতা-বিক্রেতারাও সবাই খুশি। বিশেষজ্ঞদের দাবি, প্রজনন মৌসুমে নিষেধাজ্ঞা কার্যকর ও প্রশাসনের নিবিড় অভিযানের কারণে এবার ইলিশের উৎপাদন বাড়বে।