২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

‘দমননীতি’তে ইসরায়েলের নিরাপত্তা বিষয়ক মন্ত্রিসভার সমর্থন

অনলাইন ডেস্ক ॥ ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে নেতানিয়াহুর প্রণীত দমন নীতিকে অনুমোদন দিয়েছে ইসরায়েলের নিরাপত্তা বিষয়ক মন্ত্রিসভা পরিষদ।

সম্প্রতি জেরুজালেমের আল আকসা মসজিদকে কেন্দ্র করে শুরু হওয়া ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সংঘাতে আরও দমনমূলক নীতি গ্রহণের হুঁশিয়ারি দিয়েছিলেন ইহুদিবাদী দেশটির প্রধানমন্ত্রী বেনজামিন নেতানিয়াহু।

ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে নেতানিয়াহুর এই আক্রমণাত্মক অবস্থানের প্রতিই বুধবার নিজেদের সমর্থন জানালো দেশটির মন্ত্রিসভার নিরাপত্তা পরিষদ।

আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম জানায়, ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ইসরায়েলের নিরাপত্তা বিষয়ক মন্ত্রিসভা পরিষদ। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো-জেরুজালেমের সংঘাতপূর্ণ এলাকাগুলো চিহ্নিত করে কারফিউ জারি করা, গণপরিবহনে পুলিশ মোতায়েন, ‘সন্ত্রাসী’ ফিলিস্তিনিদের ঘরবাড়ি গুঁড়িয়ে দেওয়া প্রভৃতি নিপীড়নমূলক পদক্ষেপ।

এসব কাজে ইসরায়েলি পুলিশ বাহিনীর পাশাপাশি সামরিক বাহিনীও নিয়োজিত থাকবে বলে বিবৃতিতে জানানো হয়।

সম্প্রতি ইসরায়েলি-ফিলিস্তিনি সংঘাত ছড়িয়ে পড়ার প্রেক্ষিতে নেতানিয়াহু বলেছিলেন, ‘আমাদের ক্ষতি করতে কেউ হাত উঠালে তা কঠোরভাবে দমন করা হবে। ইসরায়েলের সব শহরে শান্তি ফেরাতে আমাদের সব উপায় ব্যবহার করতেও আমরা দ্বিধা করবো না।’

এদিকে সর্বশেষ ইসরায়েলি-ফিলিস্তিনি সংঘাতে হতাহতের সংখ্যা বেড়েই চলেছে। মঙ্গলবারও (১৩ অক্টোবর) সংঘর্ষে ৩ ইসরায়েলি ও এক ফিলিস্তিনি নিহত হয়।

এ নিয়ে চলতি মাসের প্রথম থেকে শুরু হওয়া এ সংঘাতে এখন পর্যন্ত ৩০ ফিলিস্তিনি ও ৭ ইসরায়েলির প্রাণহানি ঘটেছে। এছাড়া আহত হয়েছেন আরও দুই সহস্রাধিক মানুষ।

গত মাসে জেরুজালেমের আল-আকসা মসজিদে ফিলিস্তিনিদের বিরুদ্ধে ইসরায়েলি পুলিশের ধরপাকড় ও ৯ অক্টোবর সেখানে ফিলিস্তিনিদের প্রবেশে নতুন করে নিষেধাজ্ঞা আরোপের ঘটনায় সংঘাতের সূত্রপাত হয়।