২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কুকের ব্যাটে জবাব ভালই দিচ্ছে ইংল্যান্ড

  • আবুধাবি টেস্ট

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ পাকিস্তানের ৮ উইকেটে ৫২৩ রানে ইনিংস ঘোষণার পর ইংল্যান্ড যেভাবে শুরু করেছিল ইঙ্গিত পাওয়া যাচ্ছিল ভালভাবেই জবাব দেবে তারা। আগের দিনের বিনা উইকেটে ৫৬ রান নিয়ে তৃতীয় দিন বেশ সতর্কভাবেই পাকিস্তানী বোলারদের মোকাবেলা করেছে ইংলিশ ব্যাটসম্যানরা। বিশেষ করে ওপেনার অধিনায়ক এ্যালিস্টার কুক একাই হতাশায় পুড়িয়েছেন পাক বোলারদের। দিনশেষে তিনি ক্যারিয়ারের ২৮তম শতক হাঁকিয়ে অপরাজিত থেকেছেন ১৬৮ রানে। ইংল্যান্ডের পক্ষে টেস্টে সর্বাধিক সেঞ্চুরির মালিক ছাড়িয়ে গেছেন সাবেক অস্ট্রেলিয়ান এ্যালান বোর্ডারকে। আর একধাপ পিছিয়ে আছেন কিংবদন্তি স্যার ডোনাল্ড ব্র্যাডম্যান থেকে। ব্র্যাডম্যানের আছে ২৯ সেঞ্চুরি। কুকের এমন দুর্দান্ত নৈপুণ্যে বেশ ভাল অবস্থান নিয়েই তৃতীয় দিন শেষ করেছে ইংল্যান্ড। ৩ উইকেটে ২৯০ রান এখন পর্যন্ত সংগ্রহ। যদিও পাকিস্তান এখনও এগিয়ে আছে ২৩৩ রানে। আবুধাবিতে চলমান প্রথম টেস্টের তৃতীয় দিনশেষে পরিস্থিতি তাই এখনও পাকদের পক্ষেই আছে।

তৃতীয় দিনে বেশিক্ষণ থাকেনি কুক ও মঈন আলী জুটি। তরুণ পেসার ইমরান খান মঈনকে উইকেটের পেছনে সরফরাজ আহমেদের তালুবন্দী করে প্রথম সাফল্য এনে দেন পাক শিবিরে। ৩৫ রান করেছিলেন মঈন। তবে প্রথম উইকেটে ১১৬ রানের জুটিতে দারুণ একটা ভিত পেয়ে যায় ইংল্যান্ড। কুক শুরু থেকেই স্বাভাবিক ছন্দে পাক বোলারদের সামলেছেন। আরেক অভিজ্ঞ ইয়ান বেল যোগ দিয়ে দারুণভাবে সঙ্গ দিয়েছেন তাকে। বেল ছিলেন একেবারেই নিস্পৃহ। রান করার চাইতে উইকেট ধরে রাখার দিকেই মনোযোগ ছিল বেলের। এর মধ্যেই ক্যারিয়ারের ২৮তম শতক হাঁকান কুক। এর মাধ্যমে সর্বাধিক সেঞ্চুরির তালিকায় তিনি ছাড়িয়ে গেছেন সাবেক অসি ব্যাটসম্যান বোর্ডার ও দক্ষিণ আফ্রিকার গ্রায়েম স্মিথকে। ওই দু’জনের নামের পাশেই আছে ২৭টি করে টেস্ট সেঞ্চুরি। এছাড়া কিংবদন্তি ব্র্যাডম্যানকে ছুঁতে চলেছেন তিনি। ২৯ সেঞ্চুরি আছে স্যার ব্র্যাডম্যানের। তবে সমান ২৮ সেঞ্চুরি করে এখন অস্ট্রেলিয়ার সদ্য সাবেক হওয়া মাইকেল ক্লার্কের সঙ্গে সহাবস্থান এখন কুকের।

সেঞ্চুরির পরও বিন্দুমাত্র মনোসংযোগে চিড় ধরেনি কুকের। কিন্তু শেষ বিকেলে ধৈর্য রাখতে পারেননি বেল। তিনি অর্ধশতক হাঁকানোর পর বিদায় নেন। পাকিস্তানের জন্য দ্বিতীয় সাফল্য এনে দিয়েছেন আরেক পেসার ওয়াহাব রিয়াজ। বেল ১৯৯ বলে ৫ চারে ৬৩ রান করেন। এ জুটিতে উঠেছিল ১৬৫ রান। বেলের পথ অনুসরণ করেছেন নাইটওয়াচম্যান হিসেবে উইকেটে আসা মার্ক উডও। মাত্র ৪ রান করতেই তাকে সরাসরি বোল্ড করেন ওয়াহাব। সারাদিনে সাফল্য না পেলেও শেষদিকের এ সাফল্যে কিছুটা ইংলিশ ব্যাটসম্যানদের সাফল্যকে ম্লান করে দিয়েছেন পাক পেসাররা। দিনের মাত্র ৫ ওভার বাকি থাকতে দুটি উইকেট হারায় ইংল্যান্ড। তবে কুক ৩২৯ বলে ১৫ চারে ১৬৮ রান নিয়ে এখনও ক্রিজে আছেন। তার সঙ্গে যোগ দিয়েছেন দারুণ ফর্মে থাকা তরুণ জো রুট। দিনশেষে ৩ উইকেটে ২৯০ রান করে বেশ স্বস্তিতেই আছে ইংলিশরা। কিন্তু এখনও পাকিস্তান এগিয়ে ২৩৩ রানে।

স্কোর ॥ পাকিস্তান প্রথম ইনিংস- ৫২৩/৮ ডিক্লে.; ১৫১.১ ওভার (মালিক ২৪৫, আসাদ ১০৭, হাফিজ ৯৮; স্টোকস ৪/৫৭)।

ইংল্যান্ড প্রথম ইনিংস- আগের দিন ৫৬/০; ২১ ওভার (কুক ৩৯*, মঈন ১৫*) ও তৃতীয় দিন-২৯০/৩; ১১০ ওভার (কুক ১৬৮*, বেল ৬৩, মঈন ৩৫; ওয়াহাব ২/৭৯, ইমরান ১/৩৯)। * তৃতীয় দিন শেষে