২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

রাজকোটে এগিয়ে যাওয়ার লড়াই

  • ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা তৃতীয় ওয়ানডে আজ, ম্যাচ প- করে দেয়ার হুমকি প্যাটেল সম্প্রদায়ের!

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ রাজকোটে ভারত ও সফরকারী দক্ষিণ আফ্রিকার মধ্যকার পাঁচ ম্যাচ সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে আজ। কানপুরে বহুল আলোচিত প্রথম ম্যাচে ৫ রানের নাটকীয় জয়ে এগিয়ে যায় প্রোটিয়ারা, ইন্দোরে অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির দুরন্ত অলরাউন্ড নৈপুণ্যে ২২ রানের দারুণ জয়ে সমতা ফেরায় স্বাগতিকরা। আজকের ম্যাচটি তাই দু’দলের জন্য এগিয়ে যাওয়ার লড়াই। উটকো ঝামেলা তৈরি করেছে ভিন্ন একটি ঘটনা। প্রত্যাশিত সংখ্যক টিকেট না পেয়ে খেলা প- করে দেয়ার হুমকি দিয়েছে স্থানীয় প্যাটেল সম্প্রদায়! বর্তমান ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকারের সঙ্গে বরাবরই যাদের সম্পর্ক সাপে-নেউলে। সম্প্রদায়ের প্রধান নেতা হারদিক প্যাটেল লোকবল নিয়ে পুরো এলাকা ঘিরে রাখতে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন। সৌরাষ্ট্র ক্রিকেট স্টেডিয়াম ঘিরে স্থানীয় প্রশাসনের পক্ষ থেকে নেয়া হয়েছে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

ঘরের মাটিতে স্বাভাবিকভাবে ভারতই ফেবারিট। বিশ্লেষকদের ধারণা ভুল প্রমাণ করে অতিথি প্রোটিয়ারা। টানা দুই জয়ে টি২০ সিরিজ পকেটে পোড়ার পর প্রথম ওয়ানডেতেও চিত্তাকর্ষক এক সাফল্য তুলে নেয় এবি ডি ভিলিয়ার্স বাহিনী। টি২০ অধিনায়ক ফ্যাফ ডুপ্লেসিসের ৬২ ও ওয়ানডে সেনাপতি ডি ভিলিয়ার্সে ৭৩ বলে অপরাজিত ১০৪ রানের ম্যারাথন ইনিংসে ভর করে ৫ উইকেটে ৩০৩ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর গড়ে দ. আফ্রিকা। জবাবে শুরুতে শিখর ধাওয়ানকে হারালেও আরেক ওপেনার রোহিত শর্মা ও তিন নম্বরে নামা অজিঙ্কা রাহানে মিলে ১৪৯ রানের জুটি গড়ে স্বাগতিকদের রেসে ফেরান। কিন্তু শেষ দিকে বিরাট কোহলি, সুরেশ রায়না ও অধিনায়ক ধোনির ব্যর্থতায় ৫ রানের জন্য হার মানে ভারত। বিফলে যায় রোহিতের ড্যাশিং ১৫০ রানের ইনিংস।

তবে ইন্দোরের দ্বিতীয় ম্যাচে দারুণভাবে ঘুরে দাঁড়ায় ‘টিম ইন্ডিয়া।’ সমালোচকদের দাঁতভাঙ্গা জবাব দেন ধোনি। ব্যাটিং-কিপিং-নেতৃত্ব, দুর্দান্ত অলরাউন্ড নৈপুণ্যে ‘নায়ক’ বনে যান ‘ক্যাপ্টেন কুল।’ ‘লিডিং ফ্রম দ্য ফ্রন্ট’- ব্যাট হাতে ৮৬ বলে অপরাজিত ৯২ রানের পর উইকেটের পেছনে চার ক্যাচ, ম্যাচসেরা ধোনি। ২৪৮ রানের জয়ের লক্ষ্যে ২২৫ রানে থামা দক্ষিণ আফ্রিকা হার মানে ২২ রানে। ভারতীয়রা আজ তাই বাড়তি আত্মবিশ্বাস নিয়ে নামবে। অধিনায়কের কণ্ঠেও সেই সুর। ধোনি বলেন, ‘দ্বিতীয় ম্যাচে আমাদের বোলাররা আসলে খুবই ভাল বোলিং করেছে। তবে ব্যাটসম্যানদের আরও দায়িত্ব নিতে হবে। মাঝারি মানের স্কোর দিয়ে সবসময় ম্যাচ জেতা যায় না। প্রতিপক্ষের ওপর চাপ সৃষ্টি করা যায় এমন স্কোর গড়তে হবে। ইন্দোরের ম্যাচটি আমাদের আত্মবিশ্বাস বাড়িয়ে দিয়েছে। রাজকোটেও ভাল করতে চাই। সিরিজে এগিয়ে যাওয়ার লক্ষ্য নিয়েই মাঠে নামব।’ একই লক্ষ্য প্রতিপক্ষ অধিনায়কেরও। ডি ভিলিয়ার্স বলেন, ‘দ্বিতীয় ম্যাচে আমাদের ব্যাটিং মোটেও ভাল হয়নি। ডুপ্লেসিস ছাড়া কেউই দলের প্রয়োজন মতো ব্যাটিং করতে পারেনি। অন্তত আরও দুজন ব্যাটসম্যান যদি এটা করতে পারত তাহলে ফল অন্যরকম হতো। তবে সবকিছু এখানেই শেষ হয়ে যায়নি। কারণ এটা পাঁচ ওয়ানডের সিরিজ। তৃতীয় ম্যাচে সুযোগ থাকছে। সিরিজে এগিয়ে যেতে প্রস্তুত আমরা।’ ওদিকে রাজকোটের ম্যাচে অনাকাক্সিক্ষত ঝামেলা তৈরি করেছে প্যাটেল সম্প্রদায়। ভারতের ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করে আসা সম্প্রদায় জানিয়েছে, আজকের ম্যাচে তারা কোন দর্শককেই মাঠে ঢুকতে দেবে না! গুজরাটে প্যাটেল সম্প্রদায় নিজেদের অধিকার সংরক্ষণ নিয়ে অনেক দিন ধরেই আন্দোলন করে আসছে। এবার মূলত চাহিদামতো টিকেট না পাওয়াতেই ক্ষেপেছে তারা। হারদিকদের হুমকির প্রেক্ষিতে ম্যাচ ঘিরে কড়া নিরাপত্তা বলয় তৈরি করেছে গুজরাট পুলিশ। সিসিটিভি ক্যামেরা, শসস্ত্র পুলিশ, বিশেষ গোয়েন্দা বাহিনী, ট্রফিক ও নারি পুলিশদের নিয়ে কার্যত নিরাপত্তা বূহ্য তৈরি করা হয়েছে। প্যাটেল সম্প্রদায়ের হুমকি খেলার জন্য কোন রকম বাধা হবে না বলে স্থানীয় সরকার প্রশাসন থেকে বিশেষ প্রচার চালানো হয়েছে!