২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পুরুষ দলে খেলে ইতিহাস গড়লেন ক্রিকেটার সারাহ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ক্রিকেটের ইতিহাসে যা কখনও হয়নি সেটাই করলেন সারাহ টেইলর। ইংল্যান্ডের এ মহিলা ক্রিকেটার এবার খেলেছেন পুরুষ দলের হয়ে। মর্যাদাপূর্ণ কোন একটি আসরে এই প্রথম কোন মহিলা ক্রিকেটার পুরুষ দলের হয়ে খেললেন। তিনি শনিবার অস্ট্রেলিয়ার পুরুষদের ঘরোয়া প্রিমিয়ার লীগ আসরে খেলেছেন নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্টের হয়ে পোর্ট এ্যাডেলেইড দলের বিরুদ্ধে। ২৬ বছর বয়সী সারাহ উইকেটরক্ষক হিসেবে খেলেছেন এ ম্যাচে। এমন সুযোগ পেয়ে দারুণ খুশি সারাহ জানান, তিনি নিজেকে কোন মেয়ে ভাবার চেয়ে একজন ক্রিকেটার ভাবতেই পছন্দ করেন। আর সেজন্য যে কোন পর্যায়ের ক্রিকেটে খেলার জন্য প্রস্তুত।

শনিবার ম্যাচে নর্দার্ন ডিস্ট্রিক্ট টস জিতে পোর্ট এ্যাডেলেইডকে ব্যাট করতে পাঠায়। আর তারা ব্যাটিংয়ে নামার পরই ইতিহাসের পাতায় নিজের নাম লিখে ফেলেন সারাহ। ইংল্যান্ড মহিলা দলের হয়ে ৮ টেস্ট, ৯৮ ওয়ানডে ও ৭৩ টি২০ খেলার অভিজ্ঞতা নিয়ে খেলতে নেমেও কিছুটা অস্বস্তি আর সমস্যা বুঝতে পেরেছেন। তিনি জানিয়েছেন, খেলা শুরুর আগে থেকেই স্নায়ুচাপ এবং উত্তেজনায় ভুগেছেন তিনি। এ বিষয়ে সারাহ বলেন, ‘আমি সব সময়ই চেয়েছি নিজেকে আরও উপরের দিকে নিয়ে যেতে এবং দেখতে চেয়েছি ক্রিকেটে আসলে আমি কোন্ পর্যায়ে আছি। এটা থেকে বোঝা যায় কোন একজন ক্রিকেটার ঠিক কোন্ পর্যায়ে আছে। ভাল করতে পারলে সব সময়ই সুযোগেরে দ্বার উন্মুক্ত হয়ে যায়। আমি শুধু সেই সম্মানটাই প্রতিষ্ঠা করতে চেয়েছি যে, আমি শুধুমাত্র একজন মেয়েই নই, আমি শুধুই একজন খেলোয়াড়।’ ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার (সিএ) পারফর্মেন্স ম্যানেজার প্যাট হাওয়ার্ড জানান, সারাহ যে কোন চ্যালেঞ্জ গ্রহণের জন্য প্রস্তুত। তিনি বলেন, ‘যেহেতু মেয়েদের খেলাটা ক্রমেই দারুণ পেশাদারিত্ব পেয়ে যাচ্ছে সেহেতু তাঁদের জন্য আরও সুযোগ বেড়ে যাওয়া উচিত। এলিট মহিলা ক্রিকেটারদের জন্য আগের চেয়ে আরও সুযোগ উন্মুক্ত করে দেয়া উচিত।’

সারাহ শেষ পর্যন্ত পুরুষ দলের হয়ে খেলে নতুন দিগন্ত উন্মোচন করলেন ক্রিকেট ইতিহাসের। এ বিষয়ে হাওয়ার্ড বলেন, ‘আমরা খুব গর্বিত বোধ করছি যে, আমাদের মহিলা ক্রিকেটের ঘরোয়া আসর বিতর্কহীনভাবেই বিশ্বের মধ্যে সবচেয়ে শক্তিশালী। আর সেটা বিশ্বমানের ক্রিকেটারদের আকৃষ্ট করে। সারাহ নিজেই সেটার প্রমাণ হিসেবে উপস্থিত হয়ে একই বার্তা দিয়ে দিলেন।’ সারাহ ইতোমধ্যেই মহিলাদের প্রথম বিগব্যাশ টি২০ লীগে খেলার জন্য এ্যাডেলেইড স্ট্রাইকার্সের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন। আর বর্তমানে তিনি মহিলা ক্রিকেটের রাজ্য প্রতিযোগিতায় ৫০ ওভারের ম্যাচেও খেলা চালিয়ে যাচ্ছেন। এবার নিজেকে আরেক মর্যাদার অবস্থানে নিয়ে গেলেন তিনি।

ভারোত্তোলন দলকে সংবর্ধনা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ কমনওয়েলথ ভারোত্তোলন চ্যাম্পিয়নশিপে সাফল্য নিয়ে শনিবার দুপুরে দেশে ফিরেছে বাংলাদেশ ভারোত্তোলন দল। স্বর্ণ, রৌপ্য ও ব্রোঞ্জজয়ীদের সংবর্ধনা দেয়ার জন্য ফুলের মালা ও ব্যান্ডদল নিয়ে বিমানবন্দরে হাজির হন বাংলাদেশ আনসারের ক্রীড়া কর্মকর্তা খন্দকার মাহফুজ, এসএ গেমসের ট্রেনিং ডিরেক্টর বাংলাদেশ লেঃ কর্নেল (অব) শহিদ, প্রশিক্ষক শাহরিয়ার সুলতানা সূচি, ফারুক আহমেদ সরকার ও মজিবুর রহমান। এবারের চ্যাম্পিয়নশিপে বাংলাদেশের মাবিয়া আক্তার সিমান্ত একটি স্বর্ণ ও দুটি রৌপ্যসহ মোট তিনটি পদক জয় করেন। আর মুস্তাইন বিল্লাল পান একটি রৌপ্যপদক এবং দুটি ব্রোঞ্জপদক জয় করেন জহুরা আক্তার রেশমা।

নির্বাচিত সংবাদ