১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

রোসির ৫০০-রোমার উৎসব

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ নতুন মাইলফলক স্পর্শ করলেন ড্যানিয়েল ডি রোসি। রোমার জার্সিতে ৫০০ ম্যাচ খেলার অবিস্মরণীয় কীর্তি গড়লেন তিনি। ইতালিয়ান সিরি এ লীগে শনিবার এম্পোলির মুখোমুখি হয় এস রোমা। আর এই ম্যাচে ৩-১ গোলের সহজ জয় তুলে নেয় ডি রোসির ক্লাব। ম্যাচটির ৫৯ মিনিটে দুর্দান্ত এক গোলও করেন তিনি। দলের হয়ে দ্বিতীয় আর নিজের প্রথম গোলটি করে রোমার হয়ে ক্যারিয়ারের ৫০০তম ম্যাচটিকে স্মরণীয় করেই রাখলেন ডি রোসি। এম্পোলির বিপক্ষে গোলশূন্য বিরতির পর দ্বিতীয়ার্ধের ৫৬ মিনিটে মিরালের পানিচের দুর্দান্ত ফ্রি-কিকে এগিয়ে যায় রোমা। বসনিয়ান এই তারকা তিন মিনিট পরে ডি রোসিকে গোল করতে সহায়তা করেন। তার কর্নার থেকেই ৩২ বছর বয়সী অভিজ্ঞ রোসি অসাধারণ দক্ষতায় হেড দিয়ে বল জালে জড়িয়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন। ৬৯ মিনিটে গারভিনহোর সহায়তায় রোমা ৩-০ গোলের সুস্পষ্ট ব্যবধানে এগিয়ে যায়। ইনজুরির কারণে এদিন রোমার হয়ে মাঠে নামতে পারেননি ফ্রান্সেকো টট্টি ও এডিন জিকো। ৭০ মিনিটে অবশ্য এম্পোলি অস্ট্রিয়ান মার্সেল বুচেলের গোলে একটি গোল পরিশোধ করে। কিন্তু রোমার তিন পয়েন্ট অর্জনের পথে বাধা হতে তা কার্যত কোন ভূমিকা রাখতে পারেনি। আগামী মঙ্গলবার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লীগে তাদের প্রতিপক্ষ শক্তিশালী বেয়ার লেভারকুসেন। গুরুত্বপূর্ণ সেই ম্যাচের আগে এই জয় নিঃসন্দেহে আত্মবিশ্বাসী করে তুলবে রোমাকে। এই জয়ে ফিওরেন্টিনার চেয়ে এক পয়েন্ট পিছিয়ে টেবিলে দ্বিতীয় স্থানে অবস্থান করছে রোমা। নিষেধাজ্ঞার কারণে এদিন অলিম্পিকো স্টেডিয়াম পুরোটাই দর্শকশূূন্য ছিল। পুলিশী বাধায় এ সময় প্রচুর রোমা সমর্থক স্টেডিয়ামের বাইরে বিক্ষোভ করে। ম্যাচ শেষে আনন্দে-উদ্বেলিত ডি রোসি। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘ম্যাচে জয় সবসময়ই আনন্দের। আমি বিশেষ করে আনন্দিত এই জন্য যে আজ একটি গোল করতে পেরেছি যা সবসময় হয় না। যদিও অলিম্পিকো স্টেডিয়াম খালি থাকায় এ রাতটা আমাদের জন্য হতাশার ছিল। আশা করছি এই পরিস্থিতির দ্রুতই উন্নতি হবে। ৫০০তম ম্যাচটি তাই কিছুটা হলেও আমার জন্য হতাশার। এম্পোলি যেহেতু কঠিন দল তাই আমাদের জয়টা গুরুত্বপূর্ণ ছিল। তাদের মধ্যমাঠ বেশ শক্তিশালী। তাদের বিপক্ষে আমাদের সকলের বেশ পরিশ্রম করেছে।’ ইতালিয়ান সিরি এ লীগের শনিবার অপর ম্যাচে ফেবারিট এসি মিলান তোরিনোর সঙ্গে ১-১ গোলে ড্র করে পয়েন্ট হারিয়েছে।