২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

জাবিতে শিক্ষক সমিতির চাপের মুখে ছাত্রলীগ নেতার নিয়োগ বাতিল

জাবি সংবাদদাতা ॥ জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির চাপের মুখে শেষ পর্যন্ত শাখা ছাত্রলীগের এক নেতার নিয়োগ বাতিল করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। সোমবার শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. খবির উদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার আবু বকর সিদ্দিকের বরাত দিয়ে নিয়োগ বাতিলের এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। ফলে শিক্ষকেরা তাদের অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির প্রত্যাহারের পাশাপাশি ভর্তি পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

জানা যায়, গত শনিবার শিক্ষক সমিতি উপাচার্য অধ্যাপক ফারজানা ইসলামকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক কর্মকর্তা পদে নিয়োগ দেওয়া ফয়সাল হোসেন দীপুর নিয়োগ বাতিলের জন্য ২৪ ঘন্টার সময় বেধে দেয়। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে দাবি আদায় না হলে ১৯ সেপ্টেম্বর থেকে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির হুমকি দেয় শিক্ষক সমিতি। এদিকে নির্ধারিত সময় শেষ হবার একদিন পর শিক্ষক সমিতির চাপের মুখে পরে দাবি মেনে নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। নিয়োগ বাতিলের বিষয়ে শিক্ষক সমিতির সভাপতি খবির উদ্দিন জানান, রেজিস্ট্রার ফয়সাল হোসেন দীপুর নিয়োগ বাতিল করা হয়েছে বলে মৌখিকভাবে জানিয়েছেন। দুই একদিনের মধ্যে লিখিত আকারে পাওয়া যাবে।

উল্লেখ্য, জাবি উপাচার্য শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ফয়সাল হোসেন দীপুসহ মোট ৬ জনকে অস্থায়ী ভিত্তিতে (এড্হকে) নিয়োগ দেন। অন্যান্যরা বিভিন্ন পদে যোগদান করলেও শিক্ষকদের উপর হামলার অভিযোগ থাকায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষকরা ফয়সাল হোসেন দীপুর নিয়োগের বিরোধিতা করে। ৩ আগস্ট শিক্ষকদের বিরোধিতার কারণে বিশ্ববিদ্যালয়ের গ্রন্থাগারের প্রশাসনে যোগ দিতে না পারায় ২৩ আগস্ট পুনরায় ফয়সাল হোসেন দীপুকে প্রশাসনিক কর্মকর্তা পদে প্রশাসনিক ভবনে নিয়োগ দেন উপাচার্য। শিক্ষক সমিতি এ নিয়োগ বাতিলের জন্য বিভিন্ন সময়ে প্রশাসনকে অবহিত করে আসছিল। কিন্তু প্রশাসন তাতে ভ্রুক্ষেপ না করায় শিক্ষক সমিতি প্রশাসনকে সময় বেধে দেয়াসহ অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতির সিদ্ধান্ত নেয়। পরবর্তীতে শিক্ষক সমিতির চাপের মুখে প্রশাসন দীপুকে চাকরি থেকে অব্যাহতি দিতে বাধ্য হয়।

এদিকে দাবি আদায় হওয়ায় ভর্তি পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি। সোমবার দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের জহির রায়হান মিলণায়তনে শিক্ষক সমিতির জরুরি সাধারণ সভা শেষে সমিতির সভাপতি অধ্যাপক খবির উদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। অধ্যাপক খবির উদ্দিন জানান, ফেডারেশনের সিদ্ধান্ত মোতাবেক ভর্তি পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সমিতি।

নির্বাচিত সংবাদ