২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

হিন্দু দেবীর অসম্মান, ভারতে অস্ট্রেলীয় দম্পতিকে হেনস্থা

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ হিন্দু দেবীকে ‘অসম্মান’ করায় সোমবার এক অস্ট্রেলীয় দম্পতিকে হেনস্থা করা হয়েছে ভারতের বেঙ্গালুরুতে। এ কাজে পুলিশও হেনস্থাকারীদের পক্ষ নিয়েছে। শুধু তাই নয়, ওই দম্পতিকে জোর করে ক্ষমাপত্র লিখিয়েছে পুলিশ। খবর আনন্দবাজার অনলাইনের।

ম্যাট কিথ নামে অস্ট্রেলীয় ওই যুবকের পায়ে আঁকা হিন্দু দেবীর একটি ট্যাটু নিয়েই গণ্ডগোলের সূত্রপাত। এ দিন তার সঙ্গীকে নিয়ে একটি রেস্তেরাঁয় গিয়েছিলেন কিথ। তাদের সঙ্গে স্থানীয় এক বন্ধুও ছিল। তাঁরা যখন রেস্তরাঁর ভিতরে বসে কথা বলছিলেন সেই সময় কয়েক জন এসে কিথ ও তার সঙ্গীদের ঘিরে ধরে। অভিযোগ, তাঁদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে হেনস্থাকারীরা। সে সময় ঘটনাস্থলে একজন পুলিশ এলেও কোন ব্যবস্থাই নেয়নি বলে অভিযোগ জানান কিথ। উল্টো পুলিশও ট্যাটু নিয়ে তাদের হেনস্থা করেন। পরে আরও কয়েকজন পুলিশ এসে কিথ ও তার সঙ্গীকে থানায় আটক করে নিয়ে যায়। এখানেই শেষ নয়। আরও অভিযোগ, থানায় নিয়ে গিয়ে কিথ ও তার সঙ্গীদের দিয়ে এই ঘটনার জন্য ক্ষমা চেয়ে জোর করে চিঠি লেখানো হয়।

এই ঘটনার খবর পুলিশের ওপর মহলে পৌঁছলে তারা বিষয়টি নিয়ে তদন্তের আশ্বাস দেন। পুলিশের এক শীর্ষ কর্মকর্তা সন্দীপ পাতিল বলেন, শুনেছি কয়েকজন স্থানীয় মানুষ অস্ট্রেলীয় দম্পতিকে হেনস্থা করেছে। কিছু পুলিশেরও এই ঘটনায় জরিত থাকার অভিযোগ পেয়েছি। দোষীদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা নেয়া হবে।