২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

দুর্ঘটনায় গাড়ির জরিমানা বাড়ানো হবে ॥ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

স্টাফ রিপোর্টার ॥ সড়ক দুর্ঘটনার ক্ষেত্রে গাড়ির মালিক বা চালককে যে জরিমানা করা হয় তা যথেষ্ট নয় বলে মন্তব্য করেছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল। তিনি বলেছেন, সরকার এক্ষেত্রে জরিমানার টাকার অঙ্ক আরও বাড়ানোর চিন্তা ভাবনা করছে। যাতে সবাই ভাবতে বাধ্য হয় অ্যাকসিডেন্ট করলে শাস্তি তাকে পেতেই হবে। এ ব্যাপারে কোন ছাড় দেয়া হবে না। তবে জরিমানার পরিমান কত বাড়ছে বা কবে বাড়ানো হচ্ছে সে সম্পর্কে কোনো মন্তব্য করেননি মন্ত্রী।

বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর সেগুনবাগিচায় শিল্পকলা একাডেমীর সামনে থেকে জাতীয় নিরাপদ সড়ক দিবসের র‌্যালি উদ্বোধনকালে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। স্ত্রীর অকাল মৃত্যুতে সড়ককে নিরাপদ করার দাবিতে চিত্র নায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন সামাজিক আন্দোলন শুরু করেন। তার নেতৃত্বে নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) দীর্ঘ ২২ বছর ধরে সড়ককে নিরাপদ করার লক্ষ্যে আন্দোলন করে আসছে। সেই ধারাবাহিকতায় নিসচার উদ্যোগে প্রতি বছর ২২ অক্টোবর এ দিবসটি বেসরকারীভাবে পালন করা হয়। বক্তৃতায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, অনেক সীমাবদ্ধতার মধ্যেও সড়ক দুর্ঘটনারোধে নিরাপত্তা বাহিনী কাজ করে যাচ্ছে। সড়কের নিরাপত্তার জন্য সরকার হাইওয়ে পুলিশ তৈরি করেছে। রাস্তায় চলাচলে জনগণের নিরাপত্তার জন্য প্রয়োজনে আরো বিশেষায়িত বাহিনী তৈরি করা হবে। এসময় ভুল জায়গায় গাড়ি পার্কিং না করা, যত্রতত্র গাড়ির গতি না বাড়ানো এবং সব সময় ট্রাফিক আইন মেনে চলার জন্য মন্ত্রী সবাইকে আহ্বান জানান।

নিসচা চেয়ারম্যান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, ২২ বছর ধরে নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলন করছি। মহাসড়কে দুর্ঘটনার পরিমাণ কমছে, তবে তা সন্তোষজনক নয়। পৃথিবীর অন্যান্য দেশে যেখানে ৫০০ সড়ক দুর্ঘটনায় ৩০০ জন লোক মারা যায়। সেখানে আমাদের দেশে মারা যায় ৫ হাজার মানুষ। এর কারণ দুর্বল সড়ক ব্যবস্থাপনা। দুর্ঘটনা রোধে তিনি সড়ক ব্যবহার নীতিমালা প্রণয়নের আহ্বান জানান। ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, নিরাপদ সড়ক আন্দোলন করতে গিয়ে একটা সময় হতাশ হয়ে গিয়েছিলাম। এখন আর হতাশ নই। ভাঙাচোরা রাস্তাগুলোতে আগের চেয়ে অনেক বেশি সংস্কার কাজ হচ্ছে। নিরাপদ সড়ক বিষয়ে ই-বুকে লেখা আসছে, পাঠ্যপুস্তকেও এ নিয়ে একটি অধ্যায় অন্তর্ভুক্ত করা হবে বলে সরকারের পক্ষ থেকে আশ্বাস দেয়া হয়েছে। এ সময় র‌্যালিতে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ডিএমপির পুলিশ কমিশনার আছাদুজ্জামান মিয়া, নাট্যব্যক্তিত্ব ম হামিদ, নিসচার ভাইস চেয়ারম্যান চলচ্চিত্র পরিচালক সোহানুর রহমান সোহান, সংগঠনের মহাসচিব সামীম আলম দীপন, নিরাপদ সড়ক দিবস কমিটির আহ্বায়ক সাদেক হোসেন বাবুল প্রমুখ।

নিরাপদ সড়ক দিবসের এ র‌্যালিটি বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমীর সামনে থেকে শুরু হয়ে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে গিয়ে শেষ হয়। এবারের দিবসের সেøাগান ছিল ‘চালক-যাত্রী ভাই ভাই, নিরাপদ সড়ক চাই।’ র‌্যালীতে অংশগ্রহণকারীরা প্ল্যাকার্ডে নিরাপদ সড়কের দাবিতে দুর্ঘটনার শিকার ব্যক্তিদের দ্রুত চিকিৎসা প্রদান, মহাসড়কের পাশে ট্রমা সেন্টার তৈরি, দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্থদের ক্ষতিপূরণ প্রদানসহ বিভিন্ন দাবি ও স্লোগান তুলে ধরেন।