১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

দুর্ঘটনায় ছাত্রী নিহত স্পিডব্রেকার দাবিতে বৃহস্পতিবারও মাটিকাটায় বিক্ষোভ, অবরোধ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বুধবার কার্ভাডভ্যানের ধাক্কায় কালশী এলাকায় মেধাবী ছাত্রীর মৃত্যুর ঘটনায় বৃহস্পতিবারও টানা ৩ ঘণ্টা সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে জনতা। দুর্ঘটনাস্থলে গতিরোধক দেয়ার দাবিতে তারা এ বিক্ষোভ করেন। গতিরোধক না দেয়া পর্যন্ত বিক্ষোভ অব্যাহত থাকবে বলেও জানিয়েছেন বিক্ষোভকারীরা। বিক্ষোভকালে মানুষের ভোগান্তি ছিল চরমে। তবে দুর্গোৎসবের কারণে বৃহস্পতিবার সরকারী ছুটির দিন থাকায় যানজট কিছুটা কম ছিল।

বৃহস্পতিবার বেলা এগারোটার থেকে দুপুর দুটো পর্যন্ত মাটিকাটা ইসিবি চত্বরের সামনে এবং ব্লু-মুন রেস্তরাঁসহ আশপাশের এলাকায় আবার বিক্ষোভে নামে স্থানীয় শতাধিক মানুষ। ক্যান্টনমেন্ট থানা পুলিশ জানায়, রাস্তায় গতিরোধ স্থাপনের দাবিতে বুধবার রাতের মতো আবারও স্থানীয় জনতা বিক্ষোভ করেছেন। এতে যানবাহন চলাচল বিঘিœত হয়। রাস্তায় তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। তবে কোন অপ্রীতিকর ঘটনা ঘটেনি। পরে সেনা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে পুলিশের তরফ থেকে কথা বলে গতিরোধক বসানোর আশ্বাস দেয়া হলে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়। বিক্ষোভকারীরা তাদের অবরোধ তুলে নেন। দুুপুর দুটোর পর ওই রাস্তায় যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক হয়। বৃহস্পতিবার সরকারী ছুটির দিন থাকায় সড়কে যানবাহনের চাপ তুলনামূলক কম ছিল।

প্রসঙ্গত, বুধবার দুপুর ১২টার দিকে কালশী মোড়ের ব্লু-মুন চায়নিজ রেস্তরাঁর সামনে রাস্তা পারাপারের সময় মিরপুরের দিক থেকে আসা একটি কাভার্ডভ্যান শারমিন আক্তারকে (১৮) চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে স্থানীয়রা ঘটনার পর থেকেই বিক্ষোভ করছিল।