২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

চট্টগ্রামে আবাসিক হোটেলের নামে রমরমা ব্যবসা

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ চট্টগ্রামে বোর্ডারদের সুবিধাবঞ্চিত করেই চলছে আবাসিক হোটেলের নামে রমরমা ব্যবসা। আবার বাহারী নামের আড়ালে চলছে হোটেল মোটেল ও রেস্তরাঁয় ভেজাল ও বাসি খাবারের ব্যবসা। প্রশাসনের নজরদারী না থাকায় হোটেল মোটেল রেস্তরাঁ সব জায়গাতেই ভেজালের ছড়াছড়ি। মানসম্মত হোটেলের নামে সাইনবোর্ড। ভেতরে নোংরা পরিবেশে খাবার তৈরির বেসামাল অবস্থা। দেখার কেউ নেই। বলার আছে শুধু ভুক্তভোগী ভোজন রসিকরা। আর প্রশাসন যেন নির্বিকার, লোকবলের অজুহাতে পার পাওয়ার চেষ্টা। সেই সঙ্গে দায়িত্বহীনতার অপপ্রয়াস চালায় বিভিন্ন দফতর। তবে জেলা প্রশাসনের ম্যাজিস্ট্রেট ও র‌্যাব সেভেনের অভিযানে চটকদার সাইবোর্ডের আড়ালে থাকাদের ধরতে থেমে থেমে হলেও অভিযান চলে। র‌্যাব সেভেনের কাছে অভিযোগ রয়েছে, নগরীর জনবহুল ও ব্যস্ততম এলাকাগুলোকে কেন্দ্র করেই হোটেল, মোটেল ও রেস্টুরেন্ট ব্যবসার চাবিকাটি। পচা ও বাসি খাবারকে মসলা পুরে দিয়েই চলছে ভোজনরসিকদের মনকাড়ার অপচেষ্টা।

কিন্তু ভুক্তভোগী এসব ভোজনরসিকই খাবারে ত্রুটি পেলে অভিযোগ ঠুকে বসে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দফতরে। আইনের তোয়াক্কা করে না বা খাবারে ভেজাল দিয়েই কোটিপতি বনে যাচ্ছে অসাধু হোটেল মালিকরা। তবে এসব অসাধু ব্যবসায়ীর তালিকা নিয়েই অভিযানে নেমেছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।