১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ঘুরে দাঁড়াবে উইন্ডিজ?

  • শ্রীলঙ্কা-ওয়েস্ট ইন্ডিজ দ্বিতীয় ওয়ানডে আজ

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ কলম্বোয় শ্রীলঙ্কা-ওয়েস্ট ইন্ডিজ তিন ম্যাচ সিরিজের দ্বিতীয় ওয়ানডে আজ। নাটকীয়তাময় প্রথম ম্যাচ জিতে ১-০তে এগিয় স্বাগতিক লঙ্কানরা। সিরিজ বাঁচিয়ে রাখতে আজ জিততেই হবে অতিথি ক্যারিবীয়দের। ঘুরে দাঁড়াতে পারবে তো উইন্ডিজ? শ্রীলঙ্কার মাটিতে শ্রীলঙ্কাকে হারানোটা যে সহজ নয় এরই মধ্যে সেটি হারে হারে টের পেয়েছে জেসন হোল্ডারের দল। ওয়ানডেতে পিছিয়ে পড়ার আগে দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজে ‘হোয়াইটওয়াশ’ হয় অতিথিরা। সাদা পোশাকে বলতে গেলে পাত্তাই পায়নি তারা। তবে ওয়ানডেতে পৌঁছে গিয়েছিল জয়ের অবস্থানে। রুদ্ধশ্বাস ম্যাচে প্রতিপক্ষ দলের শেষ ব্যাটসম্যান অজন্তা মেন্ডিসের কাছেই কার্যত হেরে যায় তারা। সফরকারীরা ওই ম্যাচ থেকেই প্রেরণা খুঁজছে।

মেরুন ক্যাপস অধিনায়ক হোল্ডার যেমন বলেন, ‘প্রথম ওয়ানডের হারটা মোটেই হতাশাজনক ছিল না! আমি কেবল এটাকে ক্লোজ ম্যাচে কঠিন হার বলে উল্লেখ করতে পারি। খেলায় নাটকীয় রূপ দেয়ার ক্ষেত্রে নারাইন আর সেই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে। আমাদের লক্ষ্য দ্বিতীয় ম্যাচেই ঘুরে দাঁড়ানো। তিন ওয়ানডের সিরিজে ১-০তে পিছিয়ে পড়া মানে সিরজ হার নয়। সামর্থ্য অনুযায়ী খেলতে পারলে এখনও সিরিজ জয়ের সম্ভবনা রয়েছে। আমরা সেরাটা দিতে চাই।’ প্রথম ওয়ানডেটা ছিল আসলেই চিত্তাকর্ষক। শেষ ১২ বলে শ্রীলঙ্কার চাই ১১ রান, ব্যাটিংয়ে শেষ জুটি মেন্ডিস ও লাকমল। ২৫তম ওভারে চার্লস প্রথম চার বলে একটি ওয়াইডসহ দেন ৩ রান। পঞ্চম বলে মারাত্মক ভুল ‘নো’। সুযোগ দুই হাতে কাজে লাগান মেন্ডিস। ‘ফ্রি হিটে’ ছক্কা হাঁকিয়ে দলকে দারুণ এক জয় উপহার দেন মূলত স্পিন বোলিংই যার প্রথম কাজ সেই মেন্ডিস। ২০ বলে ১ চার ও ১ ছক্কায় অপরাজিত ২১! হোল্ডার সেদিকেই ইঙ্গিত করেন। যদিও অধিনায়ক নিজেই আজ মাঠে নামতে পারছেন না! চলতি বছর দ্বিতীয়বারের মতো সেøা-ওভার রেটের অভিযোগে এক ম্যাচের জন্য নিষিদ্ধ হয়েছেন তিনি। তার পরিবর্তে আজ ক্যারিবীয়দের নেতৃত্বে দেখা যেতে পার কার্লোস ব্রেথওয়েটকে।

ম্যাচে অসাধারণ বোলিং করেন দীর্ঘ ১৪ মাস পর দলে ফেরা সুনিল নারাইন। ৬ ওভারে ২১ রান দিয়ে তুলে নেন ৩ উইকেট, তিন শিকারই নিজের পঞ্চম ওভারে। ফলে জমে ওঠে ম্যাচ। তবে অতিথিদের ব্যাটিং নিয়ে দুশ্চিন্তা থাকছেই। বৃষ্টিতে কার্টেল ওভারে (২৬ ওভার) ৮ উইকেটে ১৫৯ রান করে উইন্ডিজ। সর্বোচ্চ ৪১ ছয় নম্বরে নামা আন্দ্রে রাসেলের। এছড়া ড্যারেন ব্রাভো ৩৮ এবং হোল্ডার করেন ৩৬ রান। শ্রীলঙ্কার হয়ে পেসার সুরাঙ্গা লাকমল ৩ ও স্পিনার মেন্ডিস নেন ২ উইকেট। যদিও হাফসেঞ্চুরি হাঁকিয়ে ‘নায়ক’ ড্যাশিং ওপেনার তিলকারতেœ দিলশান (৩২ বলে ৫৯)। শ্রীলঙ্কাও টপঅর্ডারে রান পায়নি। সেদিকে ইঙ্গিত করে অধিনায়ক এ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস বলেন, ‘প্রথম ওয়ানডেতে আমাদের জয়টা ছিল ভাগ্যগুণে পাওয়া! ব্যাট হাতে অজন্তা মেন্ডিস কি দিয়ে যে কী করে ফেলল! প্রতিদিন এমন হবে না। বোলাররা মন্দ করেনি। কিন্তু টপঅর্ডার ব্যাটসম্যানদের আরও দায়িত্ব নিতে হবে। ম্যাচ জিতে সিরিজ নিশ্চিত করাই একমাত্র লক্ষ্য।’ লক্ষ্যটা বাস্তবায়ন করতে স্বাগতিক ব্যাটসম্যানদের আরও ভাল করতে হবে। কারণ প্রথম ম্যাচে রান পাননি টপঅর্ডারের বড় তিন তারকা লাহিরু থিরিমান্নে (১৭), এ্যাঞ্জেলো ম্যাথুস (১৩) ও কৌশল পেরেরা (১৪)।

আরও দুই সিরিজে মিসবাহ!

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ দুবাই টেস্ট শুরুর আগে মিসবাহ-উল হক নিজে বলেছিলেন, এটিই তার ক্যারিয়ারের শেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ। কিন্তু পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের (পিসিবি) পক্ষ থেকে খবরের সত্যতা নিশ্চিত করা হয়নি। এবার দলটির প্রধান নির্বাচক মহসিন খান জানালেন, এখনই সরে যাচ্ছেন না মিসবাহ। পাক অধিনায়ক অন্তত আরও দুটি সিরিজ খেলবেন বলে উল্লেখ করেন তিনি।

মহসিন বলেন, ‘মিসবাহ পুরোপুরি ফিট। দারুণ ফর্মে আছে। অবশ্যই সে ইংল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়া সিরিজে খেলবে। টেস্টে ব্যাট হাতে ইউনুস খান আর অধিনায়কই আমাদের বড় ভরসা। গুরুত্বপূর্ণ দুটি সিরিজের আগে সে অবসর নিচ্ছে না।’ আগামী বছর ইংল্যান্ড সফরে এবং ২০১৬-২০১৭ মৌসুমে অস্ট্রেলিয়ায় পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলবে পাকিস্তান। যেখানে মিসবাহর মতো অভিজ্ঞ ক্রিকেটারের প্রয়োজনীয়তার কথা জোর দিয়ে বলেন প্রধান নির্বাচক। পাকিস্তানীদের শেষ বলে কিছু নেই। এর আগে শহীদ আফ্রিদির বেলায় দেখা গেছে, কয়েকবারই অবসরের ঘোষণা দিয়ে আবার ঠিকই ফিরে এসেছেন। তবে মিসবাহই বা ব্যতিক্রম হবেন কেন? যদিও করাচী ভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম ‘দ্য নিউজ’ নির্বাচকের বক্তব্যের বিপরীতে পিসিবি বা মিসবাহর প্রতিক্রিয়া জানাতে পারেনি। অথচ দুবাই টেস্ট শুরুর ঠিক আগের দিন মিসবাহ নিজে বলেন, ‘অনেক ভেবেছি, শারজার টেস্টটিই হবে আমার শেষ আন্তর্জাতিক ম্যাচ!’

তারও আগে খোদ পিসিবি প্রধান শাহরিয়ার খান তাকে আরও দুটি সিরিজ খেলে যাওয়ার অনুরোধ জানান।

নির্বাচিত সংবাদ