২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

জেএমবি নেতা রাকিবের স্বীকারোক্তি

  • যাজক হত্যাচেষ্টা

বিডিনিউজ ॥ পাবনার ঈশ্বরদীতে খ্রীস্টান ধর্মযাজক লুক সরকারকে হত্যাচেষ্টা মামলায় কথিত জেএমবি নেতা রাকিবুল ইসলাম রাকিব রিমান্ড শেষে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দিয়েছেন। মঙ্গলবার বিকেলে পাবনা আমলী আদালত-২-এর বিচারক রেজাউল করিম ১৬৪ ধারায় এই জবানবন্দী গ্রহণ করেন বলে জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সিদ্দিকুর রহমান।

ঈশ্বরদীর ‘ফেইথ বাইবেল চার্চ’-এর যাজক লুক সরকারকে গলাকেটে হত্যাচেষ্টার মামলায় গত ২৮ অক্টোবর পাবনার টেবুনিয়া থেকে মামলার প্রধান আসামি জেএমবির আঞ্চলিক কমান্ডার রাকিবুল হাসান ওরফে রাকিবকে (২৪) গ্রেফতার করা হয়। এর আগে কথিত জেএমবি নেতা রাকিব হোসেন রাব্বি (২৮) আদালতে স্বীকারোক্তি দেন। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বলেন, এরপর ২৯ অক্টোবর পাবনা আমলী আদালত-২-এ তাকে হাজির করে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও ঈশ্বরদী থানার ওসি বিমান কুমার দাস। শুনানি শেষে পাঁচদিন রিমান্ড মঞ্জুর করেন বিচারক রেজাউল করিম। ‘রিমান্ড শেষে দুপুরে ওই একই আদালতে হাজির করে ফৌজদারি কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় জবানবন্দী শেষে তাকে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।’

এ মামলায় জেএমবির কথিত আরও পাঁচ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এরা হলেন জিয়াউর রহমান ওরফে জিয়া (৩৫), আব্দুল আলিম (৩৬), শরিফুল ইসলাম ওরফে তুলিব (২২), রাকিব হোসেন রাব্বি (২৮) ও আমজাদ হোসেন (৩০)। গত ৫ অক্টোবর লুক সরকারের ভাড়া বাসায় গিয়ে তাকে গলাকেটে হত্যার চেষ্টা চালায় দুর্বৃত্তরা। ওই রাতেই ঈশ্বরদী থানায় একটি মামলা করা হয়।