১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

চট্টগ্রামে চলছে মাসব্যাপী উইমেন এক্সপো ॥ ক্রেতা দর্শনার্থী বাড়ছে

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ নগরীর পলোগ্রাউন্ড মাঠে চলছে মাসব্যাপী নবম উইমেন এসএমই এক্সপো ২০১৫ মেলা। শুক্রবার ছুটি দিনে প্রচুর দর্শনার্থীর সমাগম হলেও সাধারণ দিবসগুলোতে এখনও দর্শনার্থীর উপস্থিতি কম। চলমান জেএসসি ও আসন্ন পিএসসি পরীক্ষার কারণে নারীরা এখনও মেলামুখী হচ্ছেন না বলে মনে করছেন আয়োজকরা। তবে দিন যতই গড়াবে মেলা ততই জমে উঠবে বলে আশাবাদী চিটাগাং উইমেন চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি।

শুক্রবার মেলায় দর্শনার্থীদের ভিড় ছিল লক্ষণীয়। তবে বিক্রেতাদের মুখে ছিল অসন্তুষ্টির ছাপ। দর্শনার্থীর সংখ্যার তুলনায় বেচা-কেনা না হওয়ায় বিক্রেতারা কিছুটা হতাশ। তবে পুরোদমে জমে উঠলে বিক্রেতাদের এ হতাশা থাকবে না বলে জানিয়েছেন আয়োজকরা।

আন্তর্জাতিক ইউমেন্স এসএমই এক্সপো বাংলাদেশ-২০১৫ এর চেয়ারপার্সন রেখা আলম চৌধুরী জানান, ‘সাধারণত মাসের শুরুতে মেলা জমে না। কারণ তখন মানুষের হাতে টাকা-পয়সা থাকে না।

এছাড়া চলতি মাসের শুরু থেকে জেএসসি পরীক্ষা শুরু হওয়ায় মেলায় দর্শনার্থীদের ভিড় কম। আশা করছি ১০ সেপ্টেম্বরের পর মেলা পুরোদমে জমে উঠবে। তখন বিক্রেতাদের হতাশা কেটে যাবে।’ তিনি আরও জানান, মেলায় দর্শনার্থীদের জন্য পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা রাখা হয়েছে । পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর পর্যাপ্ত লোকজন মোতায়েন রয়েছে।

বৃহস্পতিবার বিকেলে মেলা প্রাঙ্গণ ঘুরে দেখা গেছে, গত কয়েক দিনের তুলনায় দর্শনার্থীদের ভিড় বেড়েছে। মধ্যবয়সী মহিলার মেলা ঘুরে দেখছেন। তবে মেলার এক-তৃতীয়াংশ স্টল এখনও পুরোপুরি প্রস্তুত হয়নি। যেগুলো প্রস্তুত হয়েছে সেগুলোতে তেমন বেচা-কেনা নেই। তবে জুয়েলারি আর কাপড়ের স্টলে কিছুটা ভিড় রয়েছে ।

একাধিক স্টলের বিক্রয় প্রতিনিধির সঙ্গে কথা বললে তারা জানান, ২৫ অক্টোবর উদ্বোধন করার পর প্রথম কয়েকদিন মোটেও বেচা-কেনা হয়নি। গত দুয়েকদিন কিছুটা বেচা-কেনা হচ্ছে তাও অনেক কম। তবে ছুটির দিনে বেচা-কেনা কিছুটা বাড়ে।

এদিকে বেচা-কেনা কম থাকলেও দিন দিন দর্শনার্থীদের ভিড় বাড়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছে বিভিন্ন স্টল ও প্যাভিলিয়নে দায়িত্বরত কর্মকর্তারা। তারা বলেন, উইমেন চেম্বারের উদ্যোগে এবার বড় পরিসরে মেলার আয়োজন করা হয়েছে। আশা করেছিলাম প্রথম থেকে খুব জমে উঠবে। কিন্তু সেটি হয়নি, তবে দিন দিন মেলায় দর্শনার্থী বাড়ছে। আশা করছি দর্শনার্থী বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বেচা-কেনাও বাড়বে।