২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শ্রীনির বিদায়ে মহাখুশি মোস্তফা কামাল

শ্রীনির বিদায়ে মহাখুশি মোস্তফা কামাল

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থার (আইসিসি) চেয়ারম্যান পদ থেকে অপসারণ করা হচ্ছে নারায়ণস্বামী শ্রীনিবাসনকে। শ্রীনি এ পদ থেকে আউট হয়ে যাওয়ায় মহাখুশি আইসিসি ও বিসিবির সাবেক সভাপতি আ হ ম মুস্তফা কামাল।

সোমবার ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডে (বিসিসিআই) বার্ষিক সাধারণ সভায় এ বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। দু’বছরের জন্য আইসিসির চেয়ারম্যান পদে শ্রীনিবাসনকে নির্বাচিত করা হয়েছিল। তার পরিবর্তে ?ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের বর্তমান সভাপতি শশাঙ্ক মনোহর ২০১৬ সালের জুন পর্যন্ত আইসিসির চেয়ারম্যান পদে দায়িত্ব পালন করবেন। আইসিসির চেয়ারম্যান পদ হারিয়ে শ্রীনিবাসন এখন ক্রিকেটের মাত্র একটি চেয়ারে আসীন। তিনি এখন শুধুই তামিলনাড়ু ক্রিকেট এ্যাসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট। মুস্তফা কামাল এ নিয়ে বলেন, ‘আমরা চেয়েছিলাম ফিফা যেমন ফুটবলকে বিশ্বে ছড়িয়ে দিয়েছে, ক্রিকেটকেও সেভাবে ছড়িয়ে দিতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সে এসে প্রথমেই এসিসিকে বিলুপ্ত করল। উনি চাচ্ছিলেন সবকিছু নিজের কাছে কুক্ষিগত করে রাখতে। আমি মনে করি ক্রিকেট আবার তার হারানো ঐতিহ্য ফিরে পাবে। ক্রিকেট বিশ্বায়নে আর কোন বাধা থাকবে না।’ বাংলাদেশ সরকারের পরিকল্পনামন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল আরও বলেছেন, ‘এই লোকটি ক্রিকেট উন্নয়নের জন্য বিষফোঁড়ার মতো ছিল। তার চলে যাওয়ায় ক্রিকেট এখন বিষফোঁড়া মুক্ত হলো। বিশ্বের মানুষ ক্রিকেট ভালবাসেন। ক্রিকেট গৌরব ও মর্যাদার খেলা, এই খেলায় বিতর্কিত মানুষ থাকা উচিত নয়। আমি যখন ওই লোকটার বিরুদ্ধে মুখ খুলেছিলাম তখন থেকে পৃথিবীর মানুষ তাকে ঘৃণা করতে শুরু করে।’ মুস্তফা কামাল আরও বলেন, ‘শুধু বিশ্ব ক্রিকেট নয়, আইপিএল কেলেঙ্কারিতেও এ লোকের বিরুদ্ধে অভিযোগ আছে। সেজন্য সেখান থেকেও তাকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে।’ শ্রীনির পদে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রেসিডেন্ট শশাঙ্ক মনোহর স্থলাভিষিক্ত হতে যাচ্ছেন। শশাঙ্ক মনোহরকে অভিনন্দন জানিয়ে সাবেক আইসিসি সভাপতি বলেন, ‘শশাঙ্ক মনোহরের সঙ্গে আমার বহুদিনের সুসম্পর্ক রয়েছে। আমি তাকে (শশাঙ্ক মনোহর) ব্যক্তিগতভাবে চিনি। আমার দৃঢ় বিশ্বাস তার গতিশীল নেতৃত্বে বিশ্বক্রিকেট অনেক দূর এগিয়ে যাবে।’ বিগ থ্রি বিলুপ্ত হবে বলে মন্তব্য করেছেন মুস্তফা কামাল। শ্রীনিবাসন বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) বন্ধ করার জন্য চাপ দিয়েছিলেন বলেও জানান, ‘তিনি বিপিএল বন্ধ করতে বলেছিলেন। কেন বন্ধ করতে বলেছিলেন তা বলতে পারব না। তার কোন ব্যাখ্যাও নেই।’ শ্রীনিবাসন আইসিসি বিশ্বকাপের চ্যাম্পিয়ন অধিনায়কের হাতে শিরোপা তুলে দিতে দেননি মুস্তফা কামালকে।

নির্বাচিত সংবাদ