২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মেসিহীন আর্জেন্তিনার দুঃস্বপ্ন হতে পারে নেইমারের ফর্ম

মেসিহীন আর্জেন্তিনার দুঃস্বপ্ন হতে পারে নেইমারের ফর্ম

অনলাইন ডেস্ক ॥ হলুদ দশ নম্বর জার্সিটা যে এ ভাবে চমকে দেবে বুঝতেই পারেননি দাভিদ লুইজ। খুদে খুদে পায়ে দ্রুত ড্রিবলে ৫০ মিলিয়ন পাউন্ডের প্যারিস সাঁ জাঁ ডিফেন্ডারকে পুরো বোকা বানিয়ে ছাড়ল সে। গোলকিপারের মরিয়া ডাইভ সামলে পরে বলটা জালেও জড়াল ছোট্ট চ্যাম্পিয়ন। সাত বছরের খুদে জিনিয়াসের নাম লুকা। এই বয়সেই এ রকম প্রতিভা! হবে নাই বা কেন, লুকার বাবা যে হলুদ জার্সিতে এক সময় ফুটবল বিশ্ব কাঁপিয়েছেন। এখনও জাতীয় দলে আছেন। ভদ্রলোকের নাম, কাকা!

সাও পাওলোয় ব্রাজিলের প্র্যাকটিসে লুকার কাছে এ ভাবে ব্রাজিল ডিফেন্ডারের পরাস্ত হওয়ার দৃশ্যটা প্রতীকী হয়ে দাঁড়াবে না তো? সোশাল মিডিয়া জুড়ে ব্রাজিলিয়ান সমর্থকদের আর্তিটা কিন্তু ছড়িয়ে পড়ছে। শুক্রবার বুয়েনস আইরেসে বিশ্বকাপ কোয়ালিফায়ারের যুদ্ধে আর্জেন্তিনার মুখোমুখি ব্রাজিল। প্রথম দু’ম্যাচের মধ্যে ব্রাজিল আবার একটা ম্যাচে হেরেও বসেছে। চিলির কাছে। তাই লিও মেসির দেশে তিন পয়েন্ট তোলাটা যে কতটা গুরুত্বপূর্ণ, সেটা বুঝতে কারও সমস্যা হওয়ার কথা নয়। তবে ব্রাজিলের সমর্থকদের ভরসা যোগাচ্ছে নেইমারের প্রত্যাবর্তন। চার ম্যাচ নির্বাসনের শাস্তি কাটিয়ে ব্রাজিল ক্যাপ্টেন ফিরছেন দেশের জার্সিতে। দুরন্ত ফর্মেও আছেন বার্সেলোনার স্ট্রাইকার। শেষ সাত ম্যাচে দশ গোল করে ফেলেছেন।

ব্রাজিল সমর্থকদের আশার আলো আরও উজ্জ্বল আর্জেন্তিনার চোট-আঘাতের তালিকা দেখে। নীল-সাদা জার্সির হৃদপিন্ডই তো নেই—লিও মেসি। সঙ্গে ফরোয়ার্ডের দুই ভরসা সের্জিও আগেরো আর কার্লোস তেভেজেরও চোট। তার উপর গ্রুপের দুই ম্যাচে এখনও পর্যন্ত জয় অধরা আর্জেন্তিনার। ইকুয়েডরের কাছে প্রথম ম্যাচে ০-২ হারের পর দ্বিতীয় ম্যাচে প্যারাগুয়ের কাছে ড্র করে জেরার্দো মার্টিনোর টিম প্রবল চাপে। মার্টিনোর কথাতেও সেটা স্পষ্ট, ‘‘চোটের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ প্লেয়ারদের আমরা পাচ্ছি না। তবে মাঠে নামার আগে সে সব ভাবলে চলবে না।’’ অবশ্য আর্জেন্তিনার জন্য স্বস্তিও আছে। সেটা অ্যাঞ্জেল দি’মারিয়া। প্যারিস সাঁ জাঁ-র তারকা ফিট, ফর্মেও আছেন। মেসি আর আগেরো না থাকলেও ব্রাজিল আর পরের ম্যাচে কলম্বিয়ার বিরুদ্ধে ছ’পয়েন্ট তোলার ব্যাপারে প্রবল আত্মবিশ্বাসী কোচ।

আত্মবিশ্বাস ব্রাজিলেরও কম নেই। বিশের করে কাকার। ব্রাজিল কোচ কার্লোস দুঙ্গা রিয়াল মাদ্রিদের প্রাক্তন তারকাকে জাতীয় দলে ডাকলেও এখনও মাঠে নামাননি। তবে মাঠের বাইরে থেকেই দলকে তাতানোর কাজটা দারুণ ভাবে সামলাচ্ছেন কাকা। মনে করাচ্ছেন ছ’বছর আগে দক্ষিণ আফ্রিকা বিশ্বকাপের কোয়ালিফায়ারের কথা। ‘‘জানি ম্যাচটা কঠিন। তবে আমরা কিন্তু জিততে পারি। ২০০৯-এ যেটা করেছিলাম। ম্যাচের পর যা পার্টি হয়েছিল সেটা এখনও মনে আছে,’’ বলছেন ব্রাজিলিয়ান সুপারস্টার।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা