২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

তানোরে পোল্ট্রি ফার্মের বর্জ্যে খালের মাছে মড়ক

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ জেলায় তানোর পৌর এলাকার প্রকাশনগর গ্রামের একটি পোল্ট্রি ফার্মের দূষিত বর্জ্যে খালের মাছে মড়ক দেখা দিয়েছে। হঠাৎ করেই খালের মাছ মরে ভেসে উঠছে। স্থানীয়রা জানান, এ পর্যন্ত অন্তত ১০ লাখ টাকার মাছ মরে গেছে। তাই বাধ্য হয়ে স্থানীয় সমিতির মাধ্যমে এলাকাবাসী পোল্ট্রি ফার্ম কর্তৃপক্ষের কাছে ক্ষতিপূরণ দাবি করেছেন।

জানা গেছে, আমান পোল্ট্রি ফার্ম প্রাইভেট লিমিটেড নামের একটি প্রতিষ্ঠানের দূষিত বর্জ্য গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া খালে মিশছে। ফলে মাছে মড়ক দেখা দিয়েছে। সর্বশেষ গত বুধবার সকাল থেকে বিপুল পরিমাণ মাছ মরে ভেসে উঠে খালে।

স্থানীয়রা জানান, ৫ বছর আগে আমান ব্রিডার্স লিমিটেড নামের এ প্রতিষ্ঠান উপজেলার প্রকাশনগর গ্রামের প্রায় ১০ একর জমির ওপর বিশাল পোল্ট্রি ফার্মটি স্থাপন করেন। সেটি স্থাপনের পর থেকে পরিবেশ অধিদফতরের নিয়ম ভেঙ্গে দূষণ ছড়িয়ে ব্যবসা করে আসছে।

এদিকে ফার্মের দূষিত মল ও বর্জ্য নির্দিষ্ট স্থানে ফেলার নিয়ম থাকলেও তারা পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া খালের সঙ্গে পাইপলাইন করে দিয়েছে। ফলে সব বর্জ্য সরাসরি পাইপলাইনে গিয়ে খালে মিশছে। এতে খালের পানি দূষিত হয়ে দেশীয় প্রজাতির মাগুর, শিং, গড়ই, পুঁটি, তেলাপিয়া, বোয়ালসহ দেশীয় প্রজাতির মাছ মরে ভেসে উঠেছে। স্থানীয় পানি উন্নয়ন সমবায় সমিতির সভাপতি শরিফুল ইসলাম দাবী করেন, গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া সরকারী খাল সমিতি দেখাশোনা করেন। তারা দেশীয় প্রজাতির মাছ সমিতি থেকে ছেড়ে চাষাবাদ করছেন। তবে দূষিত বর্জ্যে প্রতিনিয়ত মাছ মরে যাচ্ছে। এতে তারা আর্থিক ক্ষতির মুখে পড়ছেন। তিনি আরও জানান, আমান ব্রিডার্স লিমিটেড কর্তৃপক্ষের সঙ্গে মাছগুলো মরার বিষয়ে প্রায় ৭ লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দাবি করা হয়েছে।

যোগাযোগ করা হলে আমান ব্রিডার্স লিমিটেডের ম্যানেজার অনিল কুমার সরকার জানান, পানি উন্নয়ন সমবায় সমিতির সভাপতির সঙ্গে ক্ষতিপূরণের বিষয়ে তাদের কথা হয়েছে। বর্জ্য নিয়ন্ত্রণের বিষয়েও তারা ভাবছেন। তবে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মনিরুজ্জামান ভূঞা জানান, এ ধরনের কোন লিখিত অভিযোগ প্রশাসন পায়নি। অভিযোগ পেলে বিষয়টি তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।