২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শরীরে আগুন দিয়ে ছাত্রীর আত্মহত্যা

স্টাফ রিপোর্টার, যশোর অফিস ॥ মণিরামপুরের পল্লীতে নিজের শরীরে পেট্রোল ঢেলে আগুন ধরিয়ে চম্পা (১৮) নামে এক কলেজছাত্রী আত্মহত্যা করেছেন। শনিবার গভীররাতে উপজেলার নাদড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। তবে কী কারণে তার এই আত্মহনন তা সঠিকভাবে জানা যায়নি। চম্পা ওই গ্রামের দিনমজুর আবুল কাশেমের মেঝ মেয়ে। লেখাপড়া পাশাপাশি তিনি স্থানীয় একটি সেন্টারে সেলাইয়ের কাজ করতেন।

চম্পার মা ঝর্ণা বেগম জানান, পাঁচ মেয়ে ও ছোট এক ছেলে নিয়ে তাদের অভাবের সংসার। শত কষ্টের মধ্যেও তিন মেয়েকে তারা এইচএসসি পাস করিয়েছেন। এদের মধ্যে বড় ও সেঝমেয়েকে বিয়ে দিয়েছেন। আর মেঝ মেয়ে চম্পা জেলার সদর থানার ভাতুড়িয়া কলেজ থেকে এবছর এইসএসসি পাস করে সরকারী এমএম কলেজে ভর্তির জন্য আবেদন করেন। তিনি জানান, শনিবার তার স্বামী আবুল কাশেম সেঝমেয়ের বাড়িতে বেড়াতে যান। রাত ১০টার দিকে খাবার খেয়ে চম্পা তার ঘরে ঘুমাতে যান। পাশের ঘরে ঘুমান তিনি। রাত একটার দিকে টয়লেটে যাওয়ার জন্যে ওঠেন তিনি। তখন দেখতে পান চম্পার ঘরের দরজা খোলা। এ সময় খোঁজাখুঁজির একপর্যায়ে ঘরের সামনে নারকেলগাছের নিচে চম্পার ঝলসানো লাশ পড়ে থাকতে দেখে চিৎকার দিলে আশপাশের লোকজন ছুটে আসে।