১৭ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বিচারকের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার ॥ ঢাকার তৃতীয় বিশেষ জজ আদালতের বিচারক আবু আহমেদ জমাদারের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার অভিযোগ দায়ের করেছেন সাবেক সংসদ সদস্য হাফিজ ইব্রাহিমের স্ত্রী মাফরুজা সুলতানা। সোমবার আপীল বিভাগের চেম্বার আদালতে আবেদনটি উপস্থাপন করা হলে তা শুনানির জন্য পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চে পাঠিয়ে দেন বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। আগামী ১১ ফেব্রুয়ারি এই আবেদনের ওপর শুনানি অনুষ্ঠিত হতে পারে। আবু আহমেদ জমাদারের আদালতেই বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা দুই দুর্নীতি মামলার (জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট ও জিয়া চ্যারিটেবল ট্রাস্ট) শুনানি চলছে।

প্রসঙ্গত, হাফিজ ইব্রাহিম ও তার স্ত্রী দুদকের দায়ের করা অর্থ পাচার মামলার আসামি। এই মামলায় সিমেন্সের বাংলাদেশের এজেন্ট জুলফিকার আলী ও তার স্ত্রী রহিমা আলীকে সাক্ষী করেছিল দুদক। কিন্তু তাদের সাক্ষী করার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করলে আপীল বিভাগ জুলফিকার আলী দম্পতিকে আসামি গণ্য করে বিচার কাজ পরিচালনার জন্য বিশেষ জজ আদালতকে নির্দেশ দেয়। গত ৩ নবেম্বর ঢাকার বিশেষ জজ আদালত-৩ হাফিজ ইব্রাহিম ও জুলফিকার আলী দম্পতির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর নির্দেশ দেন। কিন্তু জুলফিকার আলী দম্পতির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন দুদক আইনানুযায়ী হয়নি দাবি করে আদালত অবমাননার অভিযোগ দায়ের করেন মাফরুজা সুলতানা।

অভিযোগে বলা হয়, দুর্নীতি দমন কমিশন আইনের ৩২ ধারা অনুযায়ী কোন আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করতে হলে মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে দুদকের অনুমোদন প্রয়োজন। কিন্তু এক্ষেত্রে জুলফিকার দম্পতির বিরুদ্ধে দুদকের কোন অনুমোদন নেই। তাই আইনানুযায়ী অভিযোগ গঠন করা হয়নি। যা আপীল বিভাগের আদেশের লঙ্ঘন বলে জানান আবেদনকারীর আইনজীবী ব্যারিস্টার এম মাহবুবউদ্দিন খোকন।

তবে দুদক কৌঁসুলি খুরশীদ আলম খান সাংবাদিকদের বলেন, যেক্ষেত্রে আপীল বিভাগ জুলফিকার দম্পতির বিরুদ্ধে অভিযোগ আমলে নেয়ার নির্দেশ দিয়েছে সেক্ষেত্রে আর দুদকের অনুমোদন নেয়ার প্রয়োজন নেই।