১০ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সাকা ও মুজাহিদের ফাঁসির দণ্ড বহাল থাকায় চট্টগ্রামে আনন্দ মিছিল

  • ফরিদপুরে মিষ্টি বিতরণ

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধে ফাঁসির দ-প্রাপ্ত জামায়াত নেতা আলী আহসান মুজাহিদ ও বিএনপি নেতা সালাউদ্দিন কাদের চৌধুরীর রিভিউ মামলার রায় কেন্দ্র করে চট্টগ্রামে গ্রহণ করা হয়েছিল বাড়তি নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা। ছিল এক ধরনের উৎকণ্ঠাও। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ফাঁসির রায় বহাল থাকার ঘোষণার পরও বিএনপি-জামায়াতের পক্ষ থেকে কোনই প্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি। তবে রায় ঘোষিত হওয়ার পর চট্টগ্রাম নগরী এবং সাকা চৌধুরীর নির্বাচনী এলাকা রাউজান, রাঙ্গুনীয়া ও ফটিকছড়িতে আনন্দ মিছিল হয়েছে। এদিকে, নাশকতার আশঙ্কায় নগরী ও জেলার বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ এলাকায় নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

রায়ের প্রতিক্রিয়ায় সন্তোষ প্রকাশ করেছেন রাউজানের কু-েশ্বরী ঔষধালয়ের প্রতিষ্ঠাতা বিশিষ্ট দানবীর ও শিক্ষানুরাগী নূতন চন্দ্র সিংহের পুত্র প্রফুল্ল রঞ্জন সিনহা। একাত্তর সালে নূতন চন্দ্র সিংহকে গুলি করে হত্যা করেছিল সাকা চৌধুরীর বাহিনী। শেষ পর্যন্ত ফাঁসির রায় বহাল থাকায় পরিলক্ষিত হয় উচ্ছ্বাস। বিভিন্ন সংগঠনের ব্যানারে বের হয় আনন্দ মিছিল। এছাড়া বিভিন্ন এলাকায় মিষ্টি বিতরণও হয়েছে। গণজাগরণ মঞ্চের সংগঠক ও কর্মীরা তাৎক্ষণিকভাবে আনন্দ মিছিল বের করেন। নগরীর চেরাগী পাহাড় মোড় এলাকায় সকাল থেকেই জড়ো হচ্ছিলেন তারা। রায় শোনার পরই সেখান থেকে একটি মিছিল বেরিয়ে তা জামালখান সড়কের প্রেসক্লাব এবং আন্দরকিল্লা এলাকা প্রদক্ষিণ করে।

ফরিদপুরে মিষ্টি বিতরণ ॥ নিজস্ব সংবাদদাতা, ফরিদপুর থেকে জানান, জামায়াতের সেক্রেটারি জেনারেল আলবদর কমান্ডার আলী আহসান মোহাম্মদ মুজাহিদের মৃত্যুদণ্ড বহালের খবরে ফরিদপুরবাসী খুশি হয়েছে। দণ্ড কার্যকরের অপেক্ষায় তারা। রায় ঘোষণার পর পরই এ রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করে রাজনৈতিক ও সামাজিক বিভিন্ন সংগঠনসহ ফরিদপুরের বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার মানুষ শহরে আনন্দ মিছিল করেন।