২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নাদাল হারালেন মারেকে

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ দুর্দান্ত গতিতেই এগিয়ে চলছেন রাফায়েল নাদাল। স্বাগতিক তারকা এ্যান্ডি মারেকে সরাসরি সেটে হারিয়ে ওয়ার্ল্ড ট্যুর ফাইনালসে দারুণ এক জয় তুলে নিয়েছেন তিনি। স্প্যানিশ টেনিস তারকা নাদাল এদিন ৬-৪ এবং ৬-১ গেমে পরাজিত করেন এ্যান্ডি মারেকে।

লন্ডনের ওল্ড এ্যারিনার ১৭,৮০০ ধারণক্ষমতাসম্পন্ন স্টেডিয়ামে ফেবারিট হিসেবে দুজনই সমানে সমান ছিলেন। স্বাগতিক সমর্থকদের অনুপ্রেরণা মারের সঙ্গী হলেও নাদালের সহযোগী ছিল সাম্প্রতিক পারফর্মেন্স। যে কারণেই স্বাগতিক দর্শকরা কোন বাঁধাই হতে পারেননি স্প্যানিশ সেনসেশন নাদালের সামনে। তবে প্রথম সেটে কিছুটা প্রতিরোধ গড়লেও বিশ্বের দুই নাম্বার তারকা মারে দ্বিতীয় সেটে ছিলেন পুরোপুরি ব্যর্থ। বছরের শেষ মর্যাদার এই টুর্নামেন্টে নাদাল কখনই শিরোপা জিততে পারেননি। তবে ২০১০ ও ২০১৩ সালে শিরোপার খুব কাছাকাছি গিয়েও রানার্স-আপ ট্রফি নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছিল বিশ্বের পাঁচ নাম্বার তারকাকে। তাছাড়া ২০০৮, ২০১০ ও ২০১২ টুর্নামেন্টের সেমিফাইনাল থেকেই বিদায় নিয়েছিলেন এ্যান্ডি মারে।

শুক্রবারের চার খেলোয়াড় গ্রুপের শেষ রাউন্ড রবিন ম্যাচে মারে সুইজারল্যান্ডের চার নাম্বার স্টানিসøাস ওয়ারিঙ্কার মুখোমুখি হবেন। এদের মধ্যে বিজয়ী খেলোয়াড় শেষ চারে নাদালের সঙ্গী হবেন। স্প্যানিশ সতীর্থ ডেভিড ফেরার ওয়ারিঙ্কাকে ৭-৫ এবং ৬-২ গেমে সরাসরি সেটে পরাজিত করায় নাদালের সেমিফাইনাল নিশ্চিত হয়েছে। এটিপি ট্যুর ফাইনালসের শেষ চারে জায়গা করে নিতে পেরে দারুণ রোমাঞ্চিত নাদাল। ম্যাচ শেষে ক্লে কোর্টের বিশেষজ্ঞ নাদাল বলেন, ‘এই জয়টা আমার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ ছিল। কঠিন সার্ফেসে কঠিন প্রতিপক্ষের বিপক্ষে খেলে জেতাটা সত্যিই বিশেষ কিছু। ইতিবাচক ফলাফল, ভাল অনুভূতি, উপভোগ্য ম্যাচ এসবই এই ম্যাচের প্রাপ্তি।

কিন্তু এটা সবেমাত্র শুরু, এই ধারাবাহিকতা বজায় রাখাই এখন আমার মূল লক্ষ্য। আমি এখন অনেক স্বস্তি অনুভব করছি।’ সুদীর্ঘ ক্যারিয়ারে ১৪টি গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্ট জিতেছেন রাফায়েল নাদাল। কিন্তু চলতি বছর টেনিস কোর্টে নিজের ছায়া হিসেবে ছিলেন এই স্প্যানিয়ার্ড। চার গ্র্যান্ডসøামের কোনটিতেই নিজেকে মেলে ধরতে পারেননি তিনি। শুধু তাই নয়, পারফর্মেন্সের এই প্রভাব পড়ে টেনিস র‌্যাঙ্কিংয়েও। বিশ্ব র‌্যাঙ্কিংয়ে ১০ নাম্বারে ছিটকে পড়েন তিনি। ২০০৫ সালের পর এটাই তার ক্যারিয়ারের সবচেয়ে বাজে অবস্থান। তবে এই বছরের শুরুটা ভাল না কাটলেও শেষে এসেই যেন জ্বলে উঠলেন নাদাল। আর শেষ মুহূর্তের এই পারফর্মেন্সের ধারাবাহিকতা নতুন মৌসুমে ধরে রাখার প্রত্যয় তার চোখে-মুখে। এদিকে রাফায়েল নাদালের কাছে হারলেও প্রতিপক্ষের প্রশংসায় পঞ্চমুখ মারে। এ বিষয়ে বৃটিশ টেনিস তারকা বলেন, ‘অবশ্যই নাদাল আজ অনেক ভাল খেলেছে। কয়েক মাস আগেও তার ফর্ম ভাল ছিল না। সঠিক সময়ে সে নিজেকে ঠিকই প্রমাণ করেছে। আগামী বছরের শুরুতে সে যে ভাল করবে তার ইঙ্গিত এখন থেকেই পাওয়া যাচ্ছে।’ টুর্নামেন্টের অপর গ্রুপে সুইস তারকা রজার ফেদেরার ইতোমধ্যেই সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেছেন। তাও আবার দুর্দান্ত ফর্মে থাকা নোভাক জোকোভিচকে পরাজয়ের স্বাদ উপহার দিয়ে। চলতি মৌসুমে যিনি রীতিমতো উড়ছেন। চার গ্র্যান্ডসøাম টুর্নামেন্টের সবকটিতেই ফাইনাল খেলেছেন তিনি। ফ্রেঞ্চ ওপেনে স্টানিসøাস ওয়ারিঙ্কার কাছে হারলেও বাকি তিনটিতেই চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জন করেছেন সার্বিয়ান তারকা জোকোভিচ। রাউন্ড রবিন লীগের অপর ম্যাচে টমাস বার্ডিচকে পরাজিত করতে পারলে বিশ্বের এক নম্বর তারকা নোভাক জোকোভিচও ফেদেরারের সঙ্গী হবেন।

নির্বাচিত সংবাদ