১৩ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

চ্যাম্পিয়ন ভারত অনুর্ধ-১৯ দল

  • ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনালে হার বাংলাদেশের যুবাদের

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ভারতে অনুষ্ঠিত ত্রিদেশীয় অনুর্ধ-১৯ ওয়ানডে সিরিজের ফাইনালে হেরে গেছে বাংলাদেশ অনুর্ধ-১৯ ক্রিকেট দল। চ্যাম্পিয়ন হয়েছে স্বাগতিক ভারত। রবিবার কলকাতার যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয় কমপ্লেক্সে অনুষ্ঠিত ফাইনালে ৭ উইকেটে বাংলাদেশ যুব ক্রিকেট দলকে হারিয়েছে স্বাগতিক ভারতের যুবারা। প্রাথমিক পর্বেও ভারতের কাছে দুই ম্যাচেই হেরে গিয়েছিল বাংলাদেশ যুবারা। সেখান থেকে ঘুরে দাঁড়াতে পারেনি সফরকারীরা অব্যাহত ব্যাটিং ব্যর্থতার কারণে। প্রথম ব্যাট করে ৩৬.৫ ওভারে মাত্র ১১৬ রানেই গুটিয়ে যায় বাংলাদেশ অনুর্ধ-১৯ ক্রিকেট দল। জবাবে মাত্র ১৩.৩ ওভারেই ৩ উইকেট হারিয়ে ১১৭ রান তুলে জয় পায় ভারত যুব ক্রিকেট দল।

আফগানিস্তান অনুর্ধ-১৯ দলের বিরুদ্ধে প্রাথমিক পর্বে টানা দুই ম্যাচ জিতলেও চরম ব্যাটিং ব্যর্থতা দেখা গিয়েছিল বাংলাদেশ দলের। আর সে কারণেই স্বাগতিক ভারতের কাছে বাজেভাবে হারতে হয়েছে প্রাথমিক পর্বের দুই ম্যাচে। সেই ব্যাটিং ব্যর্থতা কাটিয়ে উঠতে পারেনি বাংলাদেশ যুবারা ফাইনালেও। টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ে নামে বাংলাদেশ অনুর্ধ-১৯ দল। কিন্তু শুরু থেকেই দারুণ কিছু করার আভাস দিতে পারেনি ব্যাটসম্যানরা। দলীয় ১৩ রানের মধ্যেই দুই ওপেনার সাইফ হাসান (৮) ও পিনাক ঘোষ (২) বিদায় নিয়েছেন। তৃতীয় উইকেটে জয়রাজ শেখ ও নাজমুল হোসেন শান্ত কিছুটা প্রতিরোধ গড়ে বিপর্যয় কাটিয়ে ওঠার পথ তৈরি করেছিলেন। ৫৪ রানের জুটি গড়েন তারা। কিন্তু জয়রাজ ৪০ বলে ৩ চারে ২৮ রান করে সাজঘরে ফেরার পর আবারও আসা-যাওয়ার মিছিল শুরু হয়। মাত্র ৪৯ রানেই শেষ ৮টি উইকেট হারায় বাংলাদেশ। ভারতীয় স্পিন আক্রমণের কাছেই ধসে পড়ে বাংলাদেশের ইনিংস। শান্ত একাই লড়েছেন বেশ কিছুক্ষণ। তিনি ৬৬ বলে ৫ চার ও ১ ছক্কায় ৪৫ রান করেন। কিন্তু আর কোন ব্যাটসম্যানই উইকেটে বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি। উইকেটরক্ষক জাকের আলীর ৩২ বলে ৪টি চারে করা ২৪ রানে শতরান পেরোতে পেরেছে বাংলাদেশ যুবারা। শেষ পর্যন্ত ১৩ ওভার ১ বল বাকি থাকতেই গুটিয়ে যায় ১১৬ রানে। দুই ভারতীয় স্পিনার মায়াঙ্ক ডাগার ৩টি ও মহিপাল লোমর ২টি উইকেট নেন। এছাড়া মিডিয়াম পেসার শুভম মাভিও দু’টি উইকেট শিকার করেন।

বাংলাদেশের ব্যাটিংয়ের সময় রান করাটা খুব কঠিন ঠেকলেও স্বল্প টার্গেটের জয়ের লক্ষ্যে খেলতে নেমে ঝড় তোলে ভারতের যুবারা। যদিও দলীয় ৪২ রানের মধ্যেই ৩ উইকেট হারিয়ে বসে স্বাগতিকরা। কিন্তু এরপর চতুর্থ উইকেটে ৭৫ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটি গড়ে দলকে বিজয়ী করেই মাঠ ছাড়েন রিকি ভূঁই ও সরফরাজ খান। সরফরাজ ব্যাটিং তা-ব চালিয়ে মাত্র ২৭ বলে ৯ চার ও ৩ ছক্কায় ৫৯ রানে অপরাজিত থাকেন। ভারতীয় যুবারা ৩ উইকেট হারিয়ে জয়ের জন্য প্রয়োজনীয় ১১৭ রান তুলে ফেলার পরও বাকি ছিল ৩৬ ওভার ৩ বল! একটি করে উইকেট নেন সাঈদ সরকার, মেহেদী হাসান মিরাজ ও সালেহ আহমেদ শাওন।