২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

বরিশালে মনোনয়ন নিয়ে আ’লীগের দুই গ্রুপে হাতাহাতি

স্টাফ রিপোর্টার, বরিশাল ॥ গৌরনদীর পৌরসভা নির্বাচনে আ’লীগের মেয়র প্রার্থী মনোনয়নকে কেন্দ্র করে আগৈলঝাড়া ডাকবাংলার সামনে রবিবার রাতে দু’পক্ষের হাতাহাতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশের লাঠিচার্জে কমপক্ষে ১৫ জন নেতাকর্মী আহত হয়েছেন। এ ঘটনার পর মনোনয়ন বোর্ডের সভা স্থান্তরিত করা হয়।

জানা গেছে, গৌরনদী পৌরসভার নির্বাচনে মনোনয়ন চূড়ান্ত করার জন্য রবিবার রাত আটটার দিকে আগৈলঝাড়া উপজেলা সদরে স্থানীয় জেলা পরিষদ ডাকবাংলায় ৭ সদস্যবিশিষ্ট মনোনয়ন বোর্ডের বৈঠক করার সিদ্বান্ত হয়। রাত ৮টার দিকে পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থী পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মনির হোসেন মিয়া সহস্রাধিক নেতাকর্মী ও সমর্থক নিয়ে ডাকবাংলার সামনে উপস্থিত হন। রাত ৯টার দিকে আরেক সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থী ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হারিছুর রহমান তার সমর্থকদের নিয়ে একই স্থানে উপস্থিত হলে উভয় দলের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের মধ্যে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় থানা পুলিশ উভয় গ্রুপের সমর্থকদের এলাকা ত্যাগ করার নির্দেশ দিলে দু’গ্রুপের সমর্থকদের মধ্যে হাতাহাতি শুরু হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে আগৈলঝাড়া, গৌরনদী ও উজিরপুর থানা পুলিশ যৌথভাবে লাঠিচার্জ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

জামালপুরে লড়াই হবে জমজমাট

আজিজুর রহমান ডল, জামালপুর ॥ পৌর নির্বাচনের প্রচারণায় মুখর এখন জামালপুর শহর। মূল দুটি রাজনৈতিক দলের মেয়র প্রার্থীরা যেমন সভা-সমাবেশ করে নিজেদের প্রচার চালাচ্ছে তেমনী শহরের প্রতিটি ওয়ার্ডের কাউন্সিল প্রার্থী গা ঝাড়া দিয়ে নেমে পড়েছে নিজেদের প্রার্থিতা ঘোষণার প্রতিযোগিতায়। এবারও মেয়র পদে বিএনপির একক প্রার্থী জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট ওয়ারেছ আলী মামুন। অন্যদিকে জেলা আওয়ামী লীগ নেতা সাবেক পৌরসভার সফল দুই বারের চেয়ারম্যান মির্জা সাখাওয়াতুল আলম মনিকে আওয়ামী লীগ একক প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা করেছে অনেক আগেই। দলের একক প্রার্থী হিসেবে তিনি প্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন ।

নির্বাচিত সংবাদ