২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মুন্সীগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধাদের জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসী বিরোধী র‌্যালী ও সমাবেশ

মুন্সীগঞ্জে মুক্তিযোদ্ধাদের জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসী বিরোধী র‌্যালী ও সমাবেশ

স্টাফ রিপোর্টার মুন্সীগঞ্জ॥ মুন্সীগঞ্জে সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, সাম্প্রদায়িকতা মুক্ত সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়ে মুক্তিযোদ্ধা দিবস পালিত হয়েছে। শহরের কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ আয়োজন করে আলোচনা সভার। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মো. সাইফুল হাসান বাদল। জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার আনিস-উজ-জমানের সভাপতিত্বে আলোচনায় অংশ নেন অধ্যাপক সুখেন চন্দ্র ব্যানার্জী, অধ্যক্ষ মেজর রেজাউল করিম, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. জামাল হোসেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার এম এ কাদের মোল্লা, জেলা কৃষকলীগ সভাপতি মহসিন মাখন, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি মতিউল ইসলাম হিরু, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সামসুল কবির মাস্টার প্রমুখ। র‌্যালী শেষে লৌহজং উপজেলায় মুক্তিযোদ্ধা সংসদে মাহবুব আলম বাহারের সভাপতিত্বে আলোচনায় অংশ নেন ঢালী মোয়াজ্জেম হোসেন, নরউদ্দিন আহম্মেদ, সোহরাব হোসেন, শাহজান ঢালী ও আবুল হোসেন বক্তব্য রাখেন। শ্রীনগর উপজেলা সদরে উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ প্রাঙ্গনের পথসভায় কমান্ডার গাজী শামসুদ্দিনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন আব্দুল খালেক, জামাল উদ্দিন ও মো. ইকবাল হোসেন মাস্টার প্রমুখ। পরে মুক্তিযোদ্ধা র‌্যারী বের হয়। র‌্যালী শেষে সিরাজদিখান উপজেলার সাবেক মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার জহিরুল ইসলাম বিমলের সভাপতিত্বে আলোচনা হয়। পরে “ওরে ক্রন্দন নয় বন্ধন এই শিকল-ঝঞ্ঝনা/ এ যে মুক্তি-পথের অগ্রদূতের চরণ-বন্দনা/এই লাঞ্ছিতেরাই অত্যাচারকে হানছে লাঞ্ছনা/ ওদের অস্থি দিয়েই জ্বলবে দেশে আবার বজ্রানল/ এই শিকল পরেই শিকল তোদের করবো রে বিকল।” বিদ্রোহী বাঙালি রণক্লান্ত নয়, বরং মুক্তিযুদ্ধের সুদীর্ঘ চার দশক পরও মহান স্বাধীনতা দিবসে গর্জে ওঠেছে সুন্দরবন থেকে জাফলং- গোটা বাংলা।” এই শ্লোগানে মুখরিত করে গোটা এলাকা।