২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মন্টেনেগ্রোকে ন্যাটোর সদস্য করার পরিকল্পনায় ক্ষুব্ধ রাশিয়া

ছয় বছরের মধ্যে এ প্রথমবার ন্যাটো এক নতুন দেশকে এ সামরিক জোটে যোগ দিতে বুধবার আমন্ত্রণ জানায়। এতে রাশিয়া ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে এবং ঠা-া লড়াইকালীন বৈরীদের মধ্যে উত্তেজনা আরও বৃদ্ধি পায়। খবর নিউইয়র্ক টাইমস ও ওয়েবসাইটের।

ক্ষুদ্র বলকান রাষ্ট্র মন্টেনেগ্রো ন্যাটোতে যোগ দেয়ার প্রক্রিয়া শুরু করার নয় বছর পর তাকে ওই আমন্ত্রণ জানানো হলো।

কিন্তু এ প্রস্তাবটি খুবই জটিল এক সময়ে দেয়া হলো, যখন ইসলামিক স্টেটকে পরাজিত করতে এবং সিরীয় গৃহযুদ্ধের অবসান ঘটাতে সহায়তার জন্য রাশিয়াকে রাজি করাতে পাশ্চাত্য দেশগুলো চেষ্টা চালাচ্ছে।

মন্টেনেগ্রোর প্রতি ওই প্রস্তাবে মস্কো ক্ষুব্ধ হয় এবং হুমকি প্রদান করে। ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি এস পেসকভ বলেন, ন্যাটোর কোনরূপ সম্প্রসারণের বিরুদ্ধে রাশিয়া পাল্টা ব্যবস্থা নেবে, তবে তিনি সে সব ব্যবস্থার কথা সুনির্দিষ্টভাবে উল্লেখ করেননি।

পেসকভ বলেন, ইউরোপের পূর্বদিকে ন্যাটো ও এর সামরিক অবকাঠামোর সম্প্রসারণের বিরুদ্ধে অবশ্যই পূর্বদিক অর্থাৎ রাশিয়া পাল্টা ব্যবস্থা না নিয়ে পারে না।

২০০৯ সালের পর এই প্রথম ন্যাটো সদস্য সংখ্যা বাড়াচ্ছে। বুধবার ন্যাটো মহাসচিব জেন্স স্টলটেনবার্গ মন্টেনেগ্রোকে জোটে যোগ দেয়ার আমন্ত্রণ জানান।

টুইটে মন্টেনেগ্রোর প্রেসিডেন্ট মিল জুকানভিচ লেখেন, আজ আমরা গর্বের সঙ্গে ন্যাটোর সদস্য হওয়ার আমন্ত্রণপত্র গ্রহণ করেছি। মন্টেনেগ্রোর জন্য এ এক ঐতিহাসিক দিন। ২০০৬ সালে স্বাধীনতা লাভ করার পর আজ আমাদের জন্য সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ দিন।

বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলসে মন্টেনেগ্রোর পররাষ্ট্রমন্ত্রী আইগর লুকসিক বলেন, এটি চমৎকার মিত্রতার সূচনা।