১৩ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

‘ছক্কা হাঁকানো ছাড়া কোন পরিকল্পনা নেই’

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ এর আগে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) টি২০ আসরে দুইবার খেলেছেন। তবে আগের দুই আসর মিলিয়ে মাত্র ৬ ম্যাচ খেলেন। কিন্তু এরপরও চলতি তৃতীয় আসরসহ বিপিএলে ছক্কা হাঁকানোর দিক থেকে সবাইকে ছাড়িয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইল। সর্বাধিক ৩৮ ছক্কা হাঁকিয়েছেন তিনি ৬ ম্যাচ খেলে। এবারও শুধু ছক্কা হাঁকিয়ে বাংলাদেশে তার ক্রিকেট ভক্তদের আনন্দ দিতে চান গেইল। বিপিএলে অংশ নিতে শুক্রবার বিকেলে বাংলাদেশে পা রেখেই বিমানবন্দরে এমন ঘোষণা দিলেন মারকুটে এ ক্যারিবীয় ক্রিকেটার। এছাড়া আগে তিনটি সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে দারুণ ফর্মে ছিলেন। সেই ধারাবাহিকতা রাখার প্রত্যয় জানালেন তিনি। চলতি আসরে গেইল খেলবেন পয়েন্ট তালিকায় দুই নম্বরে থাকা বরিশাল বুলসের হয়ে।

দীর্ঘদিন জাতীয় দলের বাইরে আছেন গেইল। এর কারণ ইনজুরি। তাই বসেই ছিলেন। তবে ইনজুরি কাটিয়ে উঠেছেন তিনি। প্রথম আসরে বরিশাল বার্নার্সের হয়ে খেলেছিলেন, এবারও সেই বরিশালের হয়েই মাঠে নামবেন গেইল। যদিও ২০১৩ সালের দ্বিতীয় বিপিএলে চ্যাম্পিয়ন ঢাকা গ্ল্যাডিয়েটর্সের হয়ে খেলেন। দুই আসরেই রানের ফোয়ারা ছুটেছে তার ব্যাট থেকে। ৬ ম্যাচে করেছেন ১০০.৫০ গড়ে ৪০২ রান। এবার সেই ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখতে চান তিনি। এ বিষয়ে গেইল বলেন, ‘এর আগে যখন খেলেছি তখন বেশ ভাল ফর্মে ছিলাম। সেটা আমার জন্য খুব ভাল এবং বিশেষ একটা স্মৃতি। আশা করছি সেটা ধরে রাখতে পারব। আবার এখানে আসলাম এবং অনেকের সঙ্গে পুনরায় দেখা হবে। অনুশীলনেই সবার সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য উন্মুখ হয়ে আছি। স্টেডিয়ামে নেমে সবাইকে আনন্দ দিতে কিছু ছক্কা হাঁকানোর দিকে আমার দৃষ্টি।’

ছক্কা হাঁকানোর কথাটা অকপটে বলতেই পারেন এ বিধ্বংসী মেজাজের ব্যাটসম্যান। কারণ যে ৬ ম্যাচ খেলেছেন তাতেই তার ব্যাট থেকে এসেছে ৩৮ ছক্কা। বিপিএলের রেকর্ডে ছক্কা হাঁকানোর তালিকায় দুইয়ে আছেন বরিশাল বার্নার্সে তারই সাবেক সতীর্থ অস্ট্রেলিয়ান ব্যাটসম্যান ব্র্যাড হজ। এবার সিলেট সুপারস্টারসে যোগ দিলেও এখন পর্যন্ত খেলেননি তিনি। ২৩ ম্যাচ খেলে তার মোট ছক্কা ৩২। এত ছক্কা হাঁকানোর জন্যই এবার তার পরিকল্পনা নিয়ে গেইল বলেন, ‘হ্যাঁ, অবশ্যই ছক্কা হাঁকানো, আর কিছু নয়।’ বাংলাদেশে তার ভক্তদেরও ছক্কা দিয়ে আনন্দ দেয়ার কথা জানালেন গেইল। আর সেজন্য ভক্ত-সমর্থকদের অপেক্ষা করতে বলেছেন। গেইল বলেন, ‘বাংলাদেশ, আমি এখন এখানে। আমি এই শহরে এসে গেছি। অপেক্ষা করুন শুধু ছক্কা হবে। ছক্কা দিয়েই সবার সঙ্গে দেখা হবে।’

বরিশালের হয়ে দ্বিতীয়বারের মতো নামতে যাচ্ছেন। দারুণ নৈপুণ্যের ধারবাহিকতা রাখা একটা চাপ বলে মনে করেন তিনি। গেইল বলেন, ‘হ্যাঁ, আমার মনে হয় বরিশালের পক্ষে দ্বিতীয়বার খেলব। আগে ভাল খেলেছি সেটা একটা চাপ। আবারও ভাল করার যে ধারাবাহিকতা সেটা রাখার আশা করছি।’ গ্রুপ পর্বে এখনও বরিশাল বুলসের এখনও চারটি ম্যাচ বাকি। সবচেয়ে কম ১ ম্যাচ হারা দলটি ১০ পয়েন্ট নিয়ে রানরেটে পিছিয়ে থেকে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের চেয়ে একধাপ পিছিয়ে। গেইল যোগ দেয়াতে আরও শক্তি বাড়ল দলটির। সেমিফাইনালে উঠলে সেখানেও খেলবেন তিনি। সেক্ষেত্রে এক আসরে এবারই সর্বাধিক ম্যাচ খেলা হতে পারে তার। আগে ৬ ম্যাচে তিন শতক ছিল। চলতি আসরে একটিই শতক হয়েছে। বুলসের হয়ে তারই স্বদেশী তরুণ ওপেনার এভিন লুইস একমাত্র সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছেন। ঢাকায় আসার আগে সেটা দেখে গেইল ঘোষণা দিয়েছিলেন আবারও সেঞ্চুরি হাঁকানোর। এবার শুধু অপেক্ষা। রবিবারই সিলেট সুপারস্টারসের বিপক্ষে ব্যাট হাতে নামবেন গেইল।