২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

রাহানের পর জাদেজা

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ পিচের ওপর লাগা স্পিন-ভূতের আছড় কি ছুটল? উত্তরটা মিশ্র। দুই দিনেই দিল্লী টেস্টের নিয়ন্ত্রণে ভারত। অজিঙ্কা রাহানের দুর্দান্ত এক সেঞ্চুরির (১২৭) ওপর ভর করে অলআউট হওয়ার আগে প্রথম ইনিংসে স্বাগতিকদের সংগ্রহ ৩৩৪। জবাবে পঞ্চাশ ওভারও টিকতে পারেনি দক্ষিণ আফ্রিকা। ফিরোজ শাহ কোটলার একই পিচে ৪৯.৩ ওভারে অতিথি প্রোটিয়ারা অলআউট ১২১ রানে। ফলোঅনে আগেই সিরিজ খোয়ানো টেস্ট র‌্যাঙ্কিংয়ের এক নম্বরে থাকা হাশিম আমলার দল! ৫ উইকেট নিয়ে সফরকারীদের ওপর দিয়ে ছড়ি ঘুড়িয়েছেন রবিন্দ্র জাদেজা, ২ উইকেট অশ্বিনেরÑ তাহলে ভূতটা ছুটল কোথায়? এর আগে স্পিনাদের সৌজন্যেই আড়াই দিনে প্রথম ও তিন দিনে তৃতীয় টেস্ট জিতে এক ম্যাচ আগে সিরিজ পকেটে পোড়ে বিরাট কোহলির ভারত।

তিন দিনেরও কম সময়ে শেষ হওয়ার পর আলোচনায় উঠে আসে নাগপুর টেস্ট। অভিযোগ জানিয়ে ইন্ডিয়ান বোর্ডকে (বিসিসিআই) চিঠি দেয় খোদ আইসিসি। এখানে মাঠে নামার আগে অমিত মিশ্র বলেছিলেন, স্পিনের বিপক্ষে প্রোটিয়ার অনুশীলনটা ঠিকমতো করেনি বলেই এই ফল। ক্রিকেট বিশ্বে যখন ভারতের উইকেট নিয়ে তুমুল শোরগোল তখন দেশটির সাবেক তারকা সুনিল গাভাস্কার বলেছিলেন, উইকেটে যতটা না, তার চেয়ে বেশি ভূত ব্যাটসম্যানদের মানসিকতায়। শেষ টেস্টে কোটলার পিচ যেন তার কথাগুলোই প্রমাণ করে দিল। কোহলি-রাহানে আর অশ্বিন মিলে ভারতকে তো ভাল স্কোরই এনে দিয়েছেন। কিন্তু স্পিন-জুজুতে ধরাশায়ী সেই দক্ষিণ আফ্রিকা ১২১Ñ এ অলআউট। এবি ডি ভিলিয়ার্সেল ৪২Ñএর পর দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২২ রান ওপেনার টেন্ডাবাভুমার। এছাড়া দুই অঙ্কের রান করতে পেরেছেন কেবল ডিন এলগার (১৭) ও সাত নম্বরে নামা উইকেটরক্ষক-ব্যাটসম্যান ডিন ভিলাসের (১১)। এক নম্বর দলের বাকি সব ব্যাটসম্যানের স্কোরের দিকে তাকালে মোবাইল ডিজিট বলে ভ্রম হবে।

প্রোটিয়াদের সাত ব্যাটসম্যানের মোট রান ২৩Ñ যাদের মধ্যে হাশিম আমলা, জেপি ডুমিনি, ফ্যাফ ডুপ্লেসিসের মতো বিখ্যাতরাও রয়েছেন। ভারতের হয়ে সফল স্পিনার জাদেজা নিয়েছেন ৫ উইকেট। অশ্বিন ও উমেশ যাদবের শিকার ২টি করে। তিন শ’র কোটা পেরোলেও কাল দ্বিতীয় দিনে ভারতীয় ব্যাটসম্যানরও খুব একটা ঝলক দেখিয়েছের, তাও নয়। স্রোতের বিপরীতে এক রকম একাই লড়াই করেছেন অজিঙ্কা রাহানে। জন্মস্থান ভারতের মাটিতে পাওয়া তার প্রথম হাফসেঞ্চুরির ইনিংসটা শেষ পর্যন্ত থামে ১২৭ রানে। তার মানে পুরো দক্ষিণ আফ্রিকা এক রাহানের সমান রান করতে পারেনি! এর আগে দেশের মাটিতে তার সর্বোচ্চ ছিল ১৫। ১৯৮ রানে ৭ উইকেট পড়ার পরও ভারত যে শেষ পর্যন্ত ৩৩৪ তুলতে পারে, তাতে অবদান আছে অশ্বিনের ৫৬ রানের ইনিংসটিরও। অষ্টম উইকেটে সর্বোচ্চ ৯৮ রান যোগ করেন এ জুটি। শেষ তিন উইকেটে আসে ১৩৬!

তবে ২১৩ রানে এগিয়ে থেকেও অধিনায়ক কোহলি প্রোটিয়াদের ফলোঅন করাননি। ২১৩ রানে এগিয়ে থেকে আজ সকালে নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করবে ভারত। টেস্টের এক নম্বর দল দক্ষিণ আফ্রিকার সামনে হয়ত ৩-০তে সিরিজ হারের লজ্জাই অপেক্ষা করছে।

স্কোর ॥ ভারত প্রথম ইনিংস ৩৩৪/১০ (১১৭.৫ ওভার; রাহানে ১২৭, অশ্বিন ৫৬, কোহলি ৪৪, ধাওয়ান ৩৩, জাদেজা ২৪, পুজারা ১৪, বিজয় ১২, যাদব ১০*; এ্যাবট ৫/৪০, পিডট ৪/১১৭, তাহির ১/৬৬)

দক্ষিণ আফ্রিকা প্রথম ইনিংস ১২১/১০ (৪৯.৩ ওভার; ডি ভিলিয়ার্স ৪২, বাভুমা ২২, এলগার ১৭, ভিলাস ১১, মরকেল ৯*, পিডট ৫, এ্যাবট ৪, আমলা ৩; জাদেজা ৫/৩০, অশ্বিন ২/২৬, যাদব ২/৩২, ইশান্ত ১/২৮)

** দ্বিতীয় দিন শেষে