২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

আজ ও কাল বাছাই ২৩৫ মেয়র পদে জমা পড়েছে ১২২৩টি মনোনয়নপত্র

স্টাফ রিপোর্টার ॥ দেশে প্রথমবারের মতো দলীয় প্রতীকে অনুষ্ঠেয় পৌরসভা নির্বাচনে ২৩৫টি মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য এক হাজার ২২৩টি মনোনয়নপত্র জমা পড়েছে। আর সাধারণ ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে আরও ১২ হাজার ৪৬৬ জন প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছে। শুক্রবার রাতে নির্বাচন কমিশন থেকে মেয়র এবং কাউন্সিলর পদে জমা পড়া মনোনয়নপত্রের সংখ্যা জানানো হয়। শনি ও রবিবার মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই হবে। মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের জন্য ১৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত সময় পাওয়া যাবে। এরপর লড়াইয়ে থাকা প্রার্থীদের নিয়ে ৩০ ডিসেম্বর ভোট হবে।

২৩৫টি পৌরসভায় এবার প্রায় চার হাজার পদে ভোট হবে। এরমধ্যে মেয়র পদ ২৩৫টি, সাধারণ কাউন্সিলর পদ দুই হাজার ২১১টি ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদ ৭৩৮টি।

পৌরসভা নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ দিন ছিল বৃহস্পতিবার। নিবন্ধনভুক্ত দলগুলোর মধ্যে অন্তত ২২টি দল নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী দিয়েছে।

দলের বাইরে স্বতন্ত্র প্রার্থী হতে একশ’ ভোটারের সমর্থনের তালিকা দিতে হয়েছে মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ইচ্ছুকদের। তবে সাবেক মেয়রদের ক্ষেত্রে এ তালিকার দরকার হয়নি। সাধারণ ও সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে নির্দলীয়ভাবে ভোট হচ্ছে।

মেয়র পদে দলীয় ও স্বতন্ত্র মিলিয়ে মোট এক হাজার ২২৩টি মনোনয়নপত্র জমা পড়েছে।

সাধারণ কাউন্সিলর কাউন্সিলর পদে নয় হাজার ৭৯৮ জন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন; আর সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন দুই হাজার ৬৬৮ জন। এসব পৌরসভায় মোট মনোনয়নপত্র জমা পড়েছে ১৩ হাজার ৬৮৯টি, যা গত পৌরসভা নির্বাচনের তুলনায় কম।

সর্বশেষ ২০১১ সালে অনুষ্ঠিত পৌর নির্বাচনে আড়াইশ পৌরসভায় মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের পর ১৫ হাজারেরও বেশি প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ছিলেন। এরমধ্যে মেয়র পদে এক হাজার ২০০ জন, সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে তিন হাজার ও সাধারণ কাউন্সিলর পদে ১০ হাজার ৩০০ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।

এবার মেয়র পদে দল থেকে প্রার্থী ঠিক করে দেয়ায় মোট প্রার্থীর সংখ্যা আগের তুলনায় কমেছে বলে মনে করছেন ইসি কর্মকর্তারা।

দলের সমর্থনের বাইরে মেয়র পদে স্বতন্ত্রপ্রার্থী হতে একশ ভোটারের সমর্থনের তালিকা দেয়া অনেকের জন্য কঠিন হয়েছে বলে মনে করছেন তারা।