২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

‘দর্শকদের আনন্দ দিতে পারলে ভাল লাগে’

‘দর্শকদের আনন্দ দিতে পারলে ভাল লাগে’
  • ক্যারিবীয় ওপেনার গেইল, বিপিএল খেলে নিজেকে ফিরে পেতে চান

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ যতবার তিনি এসেছেন বাড়তি মাত্রা যোগ হয়েছে। বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) টি২০ আসরের আকর্ষণ বেড়ে গেছে বহুগুণে। তবে আগের দুই আসরে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান একেবারে শেষ পর্যায়ে বিপিএল খেলতে এসেছিলেন। এবার একটু আগেভাগেই এসেছেন। টি২০ ক্রিকেট চার-ছক্কায় ভরপুর রানের খেলা। আর ছক্কার ফুলঝুরি ওই স্বল্প সময়েই ছুটিয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেট ভক্ত-সমর্থকদের উপভোগ্য ম্যাচ উপহার দিয়েছেন গেইল। আগের খেলা মাত্র ৬ ম্যাচে ৩৮ ছক্কা হাঁকিয়ে এখন পর্যন্ত বিপিএলের সর্বাধিক ছক্কার মালিক এ ক্যারিবিয়ান ওপেনার। আবারও ছক্কা হাঁকানো এবং গেইল ঝড় দেখানোর প্রত্যয় জানালেন তিনি। সম্প্রতিই ইনজুরি কাটিয়ে ফেলার কারণে বিপিএলে দারুণ নৈপুণ্য দেখিয়ে নিজেকে ফিরে পাওয়ার চেষ্টা থাকবে বলে জানালেন তিনি। যে কোন দলের হয়ে খেলার সময়ই গেইলেল মূল লক্ষ্য থাকে দর্শকদের আনন্দ দেয়া। শনিবার বিকেলে মিরপুরের জাতীয় একাডেমি মাঠে অনুশীলনের ফাঁকে এসব জানান এ ক্যারিবিয়ান ওপেনার।

বিপিএলে ভাগ্যটা বেশ সুপ্রসন্ন গেইলের জন্য। প্রথম আসরে বরিশাল বার্নার্সের হয়ে খেলেছেন এবং দ্বিতীয় আসরে ঢাকা গ্ল্যাডিয়েটর্সের হয়ে। উভয় দলই বেশ ভাল অবস্থানে থাকায় চাপ ছাড়াই খেলতে পেরেছেন। এবারও তার দল বরিশাল বুলস ভাল অবস্থানে। এ বিষয়ে গেইল বলেন, ‘বাংলাদেশে আবার আসতে পেরে ভাল লাগছে। এখানে যখনই খেলেছি, ভাল পারফর্ম করেছি। এবার আমার দলও খুব ভাল খেলছে। এটাই চাপে ফেলে দিয়েছে আমাকে। ইনজুরি থেকে ফেরার পর এখানই প্রথমবার খেলছি। কালকের (আজকের) ম্যাচে ভাল কিছু করার চেষ্টা করব। ব্যক্তিগতভাবে ভাল করার পাশাপাশি পয়েন্ট টেবিলে দলের অবস্থান সুসংহত করার দিকেও চিন্তা থাকবে। ফাইনালে যাওয়ার জন্য সর্বাত্মকভাবে পারফর্ম করব।’ ইনজুরির কারণে দীর্ঘদিন ক্রিকেটের বাইরে ছিলেন গেইল। এ কারণে বিপিএলেও বিলম্বে যোগ দিতে হয়েছে তাকে। সর্বশেষ গত জুলাইয়ে ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লীগ (সিপিএল) টি২০ আসরে খেলেছেন তিনি। এ বিষয়ে গেইল বলেন, ‘সব ঠিকঠাক আছে। ধীরে ধীরে ছন্দে ফিরে আসতে হবে। আমার চেষ্টা থাকবে মাঠে ভাল খেলে দর্শকদের বিনোদন দেয়া। আশা করছি ক্যারিয়ারটা আরও দীর্ঘ হবে এবং যতটা সম্ভব আমি বিশ্বজুড়ে দর্শকদের আনন্দ দিতে পারব।’

এবার দলের অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ দারুণ নেতৃত্ব দেয়ার পাশাপাশি ফর্মেও আছেন। খেলা টিভিতে না দেখলেও স্কোর অনুসরণ করেছেন গেইল। তিনি দল নিয়ে বলেন, ‘সবাই ভাল খেলছে। বিশেষ করে বেশিরভাগ ম্যাচই জিতিয়েছে বোলাররা। আমাদের অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ একজন ম্যাচ উইনার। তার অন্তর্ভুক্তি দলে অভিজ্ঞতা যোগ করেছে। আমাকে দলে নেয়া হয়েছে শক্তি বাড়ানোর জন্য। আশা করছি সেটা পারব।’ বিশ্বজুড়েই বিভিন্ন ফ্র্যাঞ্চাইজি টি২০ লীগে খেলেন গেইল। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমি পৃথিবীর যেখানেই খেলি না কেন চেষ্টা করি মানুষের মধ্যে প্রভাব ফেলতে। যে কোন দলের হয়ে খেলার সময় আমি সবাইকে খুশি রাখার চেষ্টা করি। সবাই টাকা খরচ করে খেলা দেখতে আসে। আমিও খুঁজে বের করি কিসে তারা আনন্দিত হয়। আবার গেইল ঝড় দেখাতে চাই।’

বিপিএলের আয়োজনটা দীর্ঘদিন টিকে থাকবে এবং ভবিষ্যতে আরও আন্তর্জাতিক খেলোয়াড় হিসেবে খেলতে আসবে বলে প্রত্যাশা তার। আগামী বছর টি২০ বিশ্বকাপ। এর আগেই নিজেকে ফিরে পেতে চান গেইল। এবার নতুন ব্যাট দিয়ে খেলবেন। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘টি২০ বিশ্বকাপ এখনও অনেক দূরে। বিপিএলের পর বিগব্যাশ আছে। সব মিলিয়ে আমি আপাতত ক্রিকেটে পরিপূর্ণভাবে ফিরে আসার চিন্তা করছি। আমি নতুন ব্যাট দিয়ে খেলব। এখানে বোলারদের জন্য বিশেষ কোন বার্তা নেই। আমি এর মধ্যেই ধ্বংসাত্মক অনেক কিছু করে ফেলেছি। বুঝতে পারছি না সামনে প্রত্যাশা কি! তবে গেইল ঝড় দেখাতে চাই।’