১৯ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

১আজ জিতলেই শেষ চারে কুমিল্লা

  • বেলা ২টায় কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স-বরিশাল বুলস ও সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় সিলেট সুপার স্টারস-রংপুর রাইডার্স মুখোমুখি

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ শেষ চারে ওঠা আর টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নেয়ার পালা চলছে। সেই পালায় আজ হাওয়া লাগতে পারে। বরিশাল বুলসের বিপক্ষে বেলা ২টায় কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের ম্যাচ আছে। ম্যাচটিতে জিতলেই মাশরাফি বিন মর্তুজার দল কুমিল্লা শেষ চারে চলে যাবে। আর হারলে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের বরিশাল লীগ পর্বের গ-ি অতিক্রম করবে। অর্থাৎ শেষ চারে আজ নিশ্চিত একটি দল উঠছে। দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় সিলেট সুপার স্টারস ও রংপুর রাইডার্স মুখোমুখি হবে।

কুমিল্লার শেষ চারে খেলা অনেকটাই নিশ্চিত। এখন আরেকটি ম্যাচ জিতলে শতভাগ নিশ্চিত হয়ে যাবে। সেই জয়টিই এখন চাচ্ছে কুমিল্লা। প্রতিপক্ষ দলের ক্রিস গেইল যত বড় তারকাই হন না কেন, নিজেদের খেলাই খেলতে চায় কুমিল্লা। ম্যাচও জিততে চায়। কুমিল্লার অধিনায়ক মাশরাফি চট্টগ্রামে নিজেদের শেষ ম্যাচে বোলিং করতে পারেননি। তবে নেতৃত্ব ঠিকই দিয়েছেন। আজও মাশরাফিকেই অধিনায়কত্ব করতে দেখা যাবে। বল হাতেও দেখা যেতে পারে মাশরাফিকে। বলেছেনও, ‘টিম ম্যানেজমেন্ট চাইছিল, অন্তত আমি যেন মাঠে থাকি। একটা বড় বিষয় হলো, আমি ছাড়া আমাদের দলে অধিনায়কত্ব করার মতো তেমন কেউ নেই। টিম ম্যানেজমেন্ট তাই চেয়েছে আমি ঝুঁকি না নিয়ে স্রেফ মাঠে থাকি। আমার নিজেরও ভাল লেগেছে যে মাঠে থেকেছি। বোলিংয়ে ফলো থ্রোতেই আসল ব্যথাটা অনুভব করছিলাম। বোলিং যেহেতু করছি না, তাই সমস্যা ছিল না। তবে বোলিং যেহেতু আমার মূল কাজ, না করতে পারলে তো খারাপ লাগেই।’

সঙ্গে যোগ করেন, ‘এইসব টুর্নামেন্টে তো স্পিন করার সুযোগ থাকে না। থাকলে করতাম। প্রথমে কোচকে বলেছিলামও যে স্পিন করি। কিন্তু আসলে করা উচিত না। আমি টিম ম্যানেজমেন্টকে ধন্যবাদ জানাই যে এই অবস্থাতেও আমাকে দলে চায়। আমার জন্য এটা বড় পাওয়া, যেভাবে দেখেন না কেন। শুধু মাথায় ছিল নেতৃত্ব। নিজের বোলিং নিয়ে ভাবতে হয়নি, কাজটা সহজ হয়েছে এখানে। ঠা-া মাথায় ভালভাবে চিন্তা করতে পেরেছি।’

মাশরাফি শুধু শেষ চারে নয়, পয়েন্ট তালিকার সেরা দুইয়ে থাকতে চান। তাহলে যে প্রথম কোয়ালিফায়ার ম্যাচে হারলেও ফাইনালে ওঠার জন্য ম্যাচ খেলার সুযোগ থাকবে। মাশরাফি তাই বলেছেন, ‘বিশ্রামের সুযোগ আছে কি না জানি না। আমার ধারণা ইনজুরিটা এতটা সিরিয়াস না। দলের দৃষ্টিকোণ থেকে বললে, আমরা হয়ত শেষ চারের কাছাকাছি। কিন্তু এই টুর্নামেন্টের সিস্টেম এমন যে সেরা দুইয়ে থাকতে পারলে ফাইনালে ওঠার জন্য অন্তত দুটি সুযোগ মিলবে। সেদিকে তাকিয়ে আছি আমরা।’ সেরা দুইয়ে থাকার আগে তো শেষ চারে ওঠাটা নিশ্চিত করতে হবে। সেই শেষ চার নিশ্চিত করার ম্যাচ আজ কুমিল্লার। জিতলেই সেই অর্জন মিলবে।

জবাব চায় পিসিবি

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ঝুলে থাকা পাকিস্তান-ভারত দ্বিপক্ষীয় সিরিজের বিষয়ে আজ সোমবারের মধ্যেই ইন্ডিয়ান বোর্ডের (বিসিসিআই) কাছ থেকে পরিষ্কার জবাব চায় পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। পিসিবির সূত্র মতে, এ সিরিজের বিষয়ে আজ ৭ ডিসেম্বরে মধ্যে সুস্পষ্ট জবাব চেয়ে শনিবার বিসিসিআইয়ের কাছে একটি চিঠি লিখেছে পিসিবি। এ সময় জবাব না পেলে আপনাআপনিই এ সিরিজ বাতিল হয়ে যাবে বলে মনে করছে তারা। সংযুক্ত আরব আমিরাতে নিজেদের এ হোম সিরিজ আয়োজনের প্রস্তাব দিয়েছিল পাকিস্তান। কিন্তু ভারত তা প্রত্যাখ্যান করে। এরপর নিজ মাঠে সিরিজ খেলতে ভারতের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করে পিসিবি। যেহেতু খুব বেশি সময় বাকি নেই, তাই বৃহস্পতিবার সকালে এ বিষয়ে যে কোন সিদ্ধান্ত নিতে ভারতীয় ক্রিকেট কর্তৃপক্ষের প্রতি আহ্বান জানান পিসিবি চেয়ারম্যান শাহরিয়ার খান। সিরিজের ভেন্যু নিয়ে এক মাসের বেশি সময় ধরে আলোচনা চলছে। তবে শেষ পর্যন্ত এ মাসের মাঝামাঝি সময় শ্রীলঙ্কার মাটিতে সংক্ষিপ্ত ভার্সনের একটি সিরিজ খেলতে প্রাথমিকভাবে সম্মত হয় উভয় দেশের বোর্ড। কিন্তু পিসিবি পাকিস্তান সরকারের কাছ থেকে সবুজ সঙ্কেত পেলেও প্রতিপক্ষ বিসিসিআইর কাছ থেকে চূড়ান্ত কোন জবাব পায়নি। তাই প্রস্তাবিত এ সিরিজের বিষয়ে আজকের মধ্যেই ভারতের কাছ থেকে জবাব চায় পিসিবি। ‘সিরিজ মাঠে গড়ালে তার প্রস্তুতির জন্য খুব বেশি সময় নেই। ভারত যে সিদ্ধান্তই নিক তা আমাদের শীঘ্রই জানানো উচিত।’ বলেন শাহরিয়ার।