২২ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

যুক্তরাষ্ট্রে মুসলিমদের প্রবেশ নিষিদ্ধের দাবি ট্রাম্পের

মুসলিম সন্ত্রাসবাদ নির্মূলের লক্ষ্যে যুক্তরাষ্ট্রে মুসলিমদের প্রবেশ সম্পূর্ণ ও পুরোপুরিভাবে বন্ধ করে দেয়ার দাবি তুলেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান দলের শীর্ষস্থানীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী ডোনান্ড ট্রাম্প। নির্বাচনী প্রচারাভিযানে এই বক্তব্যের মাধ্যমে সবচেয়ে বেশি উস্কানিমূলক ও বিবাদ সৃষ্টিকারী বিতর্কিত মন্তব্যটি করলেন তিনি। ক্যালিফোর্নিয়ায় গত সপ্তাহে হামলার ঘটনায় এক মুসলিম দম্পতি জড়িত থাকার প্রেক্ষাপটে তিনি এ দাবি করেন। খবর এএফপি ও গার্ডিয়ানের।

সাউথ ক্যারোলিনায় সোমবার এক নির্বাচনী প্রচারে ট্রাম্প বলেন, আমেরিকার প্রতি মুসলিমদের বিদ্বেষ এত তীব্র যে তা ধারণারও বাইরে। এই ঘৃণার উৎস কী এবং আমেরিকার জন্য তা কী হুমকি সৃষ্টি করেছে, তা পুরোপুরি বুঝে না ওঠা পর্যন্ত মুসলিমদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ নিষিদ্ধ করা উচিত। ট্রাম্প বলেন, যারা জিহাদে বিশ্বাস করে ও মানবজীবনের প্রতি বিন্দুমাত্র শ্রদ্ধা পোষণ করে না, এমন মানুষের কাছ থেকে আমরা অব্যাহত হামলার শিকার হতে পারি না। আমার এই প্রস্তাব হয়ত রাজনৈতিকভাবে সঠিক নয়, তবে আমি এর পরোয়া করি না। প্রেসিডেন্ট বারাক ওবামা মুসলিমদের দূরে ঠেলে না দিয়ে তাদের সঙ্গে নিয়েই সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধে জয়ী হওয়ার প্রত্যয় জানানোর পরদিনই রিপাবলিকান শিবির থেকে এমন দাবি তোলা হলো। হোয়াইট হাউস ট্রাম্পের এই বক্তব্যেকে অ-মার্কিনসুলভ বক্তব্য বলে অভিহিত করে এক বিবৃতিতে বলেছে, তার এ বক্তব্য মার্কিন মূল্যবোধ ও জাতীয় নিরাপত্তার স্বার্থের পরিপন্থী। রিপাবলিকান পার্টির অন্য প্রেসিডেন্ট মনোনয়ন প্রত্যাশীরা এতদিন পর্যন্ত মুসলিমদের বিরুদ্ধে ট্রাম্পের বাগযুদ্ধের প্রতি নমনীয় মনোভাব দেখালেও সোমবার দেয়া বক্তব্য তারা সবাই প্রত্যাখ্যান করেছেন। লিন্ডসে গ্রাহাম মুসলিমদের প্রবেশ বন্ধ করার বিষয়ে ট্রাম্পের বক্তব্যের নিন্দা জানিয়েছেন। ফ্লোরিডার সাবেক গবর্নর জেব বুশ ট্রাম্পকে ‘বিকৃত মস্তিষ্ক’সম্পন্ন ও মানসিক ভারসাম্যহীন বলে পরিহাস করেছেন। নিউজার্সির গবর্নর ক্রিস ক্রিস্টি বলেছেন, শুধু অনভিজ্ঞ ব্যক্তিদের পক্ষেই এমন আজেবাজে কথা বলা সম্ভব। এমনকি টেক্সাসের অতিরক্ষণশীল সিনেটর টেড ক্রুজও ট্রাম্পের মুসলিম-নিষিদ্ধকরণের প্রশ্নে দ্বিমত পোষণ করে বলেন, আমি এমন নীতি সমর্থন করতে পারি না। প্রেসিডেন্ট ওবামাসহ ডেমোক্র্যাটিক পার্টি সব প্রেসিডেন্ট মনোনয়ন প্রত্যাশী ও অধিকাংশ কংগ্রেস সদস্য তীব্র ভাষায় ট্রাম্পের বক্তব্যের নিন্দা করেছেন। ডেমোক্র্যাটিক দলের মনোনয়ন প্রত্যাশী হিলারি ক্লিনটনও ট্রাম্পের বক্তব্যেও সমালোচনা করে টুইট বার্তায় বলেন, এটি নিন্দনীয়, পক্ষপাতদুষ্ট ও বিবাদ সৃষ্টিকারী বক্তব্য। এমন প্রস্তাব গ্রহণ করা যায় না। কেননা এটি আমাদের জীবনহীন করবে। যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল কমিউনিকেশন কাউন্সিলের ডিরেক্টর ইব্রাহিম হুপার বলেছেন, আমার মনে হচ্ছে আমি ১৯৩০-এ ফিরে গিয়েছি।