২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

শাহরুখ-কাজলের দিলওয়ালে

নব্বই দশকের সাড়া জাগানো ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে জায়েঙ্গে’ ছবিতে শাহরুখ খান ও কাজল জুটির অনবদ্য অভিনয় অগনিত দর্শকের হৃদয় জয় করেছিল। বলিউডের ইতিহাসে অন্যতম সফল এ ছবির কল্যাণে ব্যাপক জনপ্রিয়তা পায় শাহরুখ-কাজল জুটি। ১৯৯৫ সালে মুক্তি পাওয়া ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে যায়েঙ্গে’ ছবিতে জুটি বেঁধেছিলেন শাহরুখ খান ও কাজল। এছাড়া আগামী বছর ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে যায়েঙ্গে’ ছবি মুক্তির ২০ বছর পূর্তি হবে। বলা যায়, মূল ছবিকে উৎসর্গ করেই এবার আসছে শাহরুখ-কাজলের ‘দিলওয়ালে’।

‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে জায়েঙ্গে’ ১৯৯৫ সালের ১৯ অক্টোরব মুক্তির পর থেকে, বিপুল জনপ্রিয়তাকে সম্মান জানিয়ে মুম্বাইয়ের মারাঠা মন্দির প্রেক্ষাগৃহে ছবিটির প্রদর্শনী হয়ে আসছিল। কুড়ি বছরে সব মিলিয়ে ১০০৯ সপ্তাহ বড়পর্দায় প্রদর্শনের রেকর্ড গড়েছে আদিত্য চোপড়া পরিচালিত ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে জায়েঙ্গে’। শাহরুখ খান ও কাজল জুটির ছবি ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে জায়েঙ্গে’ আর প্রেক্ষাগৃহে দেখা যাবে না। গত ১৯ ফেব্রুয়ারি সকাল ৯টা ১৫ মিনিটে শেষবারের মতো দেখানো হয় এটি। মারাঠা মন্দিরের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মনোজ দেশাই জানান, যশরাজ ফিল্মসের পরামর্শে ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে জায়েঙ্গে’ অধ্যায়ের সমাপ্তি হলো। ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে যায়েঙ্গে’ ছবিতে শাহরুখ খান ও কাজল জুটির অনবদ্য অভিনয় অগনিত দর্শকের হৃদয় জয় করেছিল। এই জুটি বড় পর্দায় ফিরছেন দীর্ঘ পাঁচ বছর পর, ‘চেন্নাই এক্সপ্রেস’খ্যাত বলিউডের চলচ্চিত্র পরিচালক রোহিত শেঠি এই জুটিকে নিয়ে নির্মাণ করেছেন ‘দিলওয়ালে’। সস্প্রতি তিনি জানিয়েছেন, বড়দিন’কে সামনে রেখে ‘দিলওয়ালে’ মুক্তি পাবে চলতি বছরের ১৮ ডিসেম্বর।

এ প্রসঙ্গে রোহিত শেঠি বলেন, ‘বর্তমানে ‘দিলওয়ালে’ ছবির কাজ শেষ। ছবিটি সম্পর্কে এখনি বিস্তারিত কিছু জানাতে চাই না আমি। শুধু এটুকু বলব, রোহিত শেঠি যে ধরনের ছবি বানায়, এটিও হবে তেমন একটি ছবি। গত মার্চ মাস থেকে মুম্বাইয়ে ‘দিলওয়ালে’ ছবির শূটিং শুরু হয়েছে। রোমান্টিক, কমেডি-ড্রামা ঘরানার ‘দিলওয়ালে’ ছবিটি রেড চিলিস ইন্টারটেইনমেন্টের ব্যানারে যৌথভাবে প্রযোজনা করেছেন রোহিত শেঠি ও শাহরুখ খানের স্ত্রী গৌরী খান। শাহরুখ-কাজল ছাড়াও ছবিটির প্রধান দুটি চরিত্রে দেখা যাবে বর্তমান প্রজন্মের জনপ্রিয় দুই তারকা বরুণ ধাওয়ান ও কৃতি শ্যাননকে। ছবির অন্য অভিনয় শিল্পীদের মধ্যে রয়েছেন কবির বেদি, বিনোদ খান্না, জনি লিভার, বোমান ইরানি প্রমুখ। ছবিটির সঙ্গীত পরিচালনা করেছে প্রীতম চক্রবর্তী।

শাহরুখ-কাজল দুজনই অনুরোধে দিলওয়ালে ছবিটি করে। শাহরুখকে অনুরোধ করে স্ত্রী গৌরী খান আর কাজলকে ছবিটি করার জন্য অনুরোধ করে কন্যা নাইসা। চলতি বছরের প্রায় পুরোটাজুড়েই একের পর এক রেকর্ড গড়ে গেছেন সালমান খান। এবার পালা শাহরুখ খানের। শোনা যাচ্ছে, মুক্তির আগেই মোটা অঙ্কে বিক্রি হয়েছে শাহরুখ-কাজলের নতুন সিনেমা ‘দিলওয়ালে’র স্যাটেলাইট টিভিস্বত্ব। ভারতীয় দৈনিক মিড-ডে বলছে, ৬০ কোটি রুপির বিনিময়ে ‘দিলওয়ালে’র স্যাটেলাইট স্বত্ব কিনেছে সনি এন্টারটেইনমেন্টে টেলিভিশনের পরিবেশক মাল্টি স্ক্রিন মিডিয়া (এমএসএম)। মুক্তি পাওয়ার আগেই কোন সিনেমার স্বত্ব বিক্রির ঘটনা এটাই প্রথম। এদিকে শাহরুখের নিজস্ব প্রযোজনা সংস্থা রেড চিলিস আরও কয়েকটি উপায়ে ‘দিলওয়ালে’র প্রচার চালানোর পরিকল্পনা করেছে। সব মিলিয়ে এমএসএমের সঙ্গে রেড চিলিসের চুক্তি হয়েছে পুরো ২২০ কোটি রুপির। এর আগে চড়া দামে ‘দিলওয়ালে’র সঙ্গীত স্বত্ব বিক্রি করে শিরোনামে এসেছিলেন নির্মাতা রোহিত শেঠি। সনি মিউজিকের সঙ্গে ১৯ কোটি রুপির চুক্তি করেন তিনি। ব্যয়ের দিক থেকে আরেকটি রেকর্ড নিজের ঝুলিতে ভরেছে ‘দিলওয়ালে’। ১৮ নবেম্বর মুক্তি পাওয়া সিনেমাটির গান ‘গেরুয়া’কে বলা হচ্ছে বলিউডের ইতিহাসে নির্মিত সবচেয়ে ব্যয়বহুল গান। গানের ভিডিও-তে শাহরুখ-কাজলকে আইসল্যান্ডে দেখা গেছে। ‘রং দে তু মোহে গেরুয়া’ রোমান্টিক গানে দুজনকে মানিয়েছে দারুণ। এ গান সম্পর্কে শাহরুখ বলেন, ছবির প্রতিটি গানের সঙ্গে একটি বিশেষ কারণ যুক্ত হয়ে থাকে। এ গানেরও একটা কারণ আছে। পরিচালক রোহিত এ গানের মাধ্যমে সেই পুরনো শাহরুখ-কাজল জুটির স্মৃতি মনে করিয়ে দিতে চেয়েছেন। সেই স্মৃতিকে আবারও রঙিন করতেই এ গানের প্রয়াস। আর এই ভিডিও প্রকাশিত হওয়ার পর পরই দেশ-বিদেশে ছড়িয়ে থাকা অগণিত ভক্তকুলের ধৈর্য আর বাঁধ মানছে না। অনেকেই ছবিটি দেখার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছে।

শাহরুখ আরও জানান, আমি আর কাজল বহুদিন একসঙ্গে পর্দায় আসি না। অথচ আগে কত ভাল ভাল ছবি আর গানে দুজন একসঙ্গে কাজ করেছি। প্রত্যেকটা বিষয় খুঁটিয়ে দেখেছেন রোহিত। সব মিলিয়ে সেই পুরনো রোমান্স এবার রোহিতের মতো করে দর্শকদের কাছে পরিবেশন করা হবে। এ গানের স্থান নির্বাচন, পোশাক বাছাই ছাড়াও অন্যান্য বিষয় আমাদের সেই আগের স্মৃতি ফিরিয়ে আনা হয়েছে। এই গান সম্পর্কে বলতে গিয়ে ছবির পরিচালক রোহিত শেঠি বলেন, মানুষ এই দুজনের রোমান্সের সঙ্গে যথেষ্ট পরিচিত। তাই একজন পরিচালক হিসেবে সেই রোমান্স সুন্দর করে ফুটিয়ে তোলা আমার কর্তব্য। আইসল্যান্ড এই গানের জন্য একেবারে পারফেক্ট ছিল। কিন্তু গানটির শূটিং করতে গিয়ে বড় ধরনের দুর্ঘটনা থেকেও রক্ষা পেয়েছিলেন শাহরুখ। আর শাহরুখকে এ দুর্ঘটনা থেকে বাঁচিয়েছেন তার বহুদিনের বন্ধু কাজল। ‘গেরুয়া’ গানের একটি দৃশ্যের জন্য উঁচু জলপ্রপাতের ধারে শূটিং করছিলেন শাহরুখ এবং কাজল। এ ছবিতে শাহরুখ-কাজলকে ভিন্নামাত্রায় দেখা যাবে বলে আশা করছেন কিং খান। কারণ পরিচালকই এ কাজটি করতে যথেষ্ট ঘাম ঝরিয়েছেন। এ গানের শূটিংয়ের কাজটি মারাত্মক চ্যালেঞ্জ ছিল। আবার অনেক কঠিন কাজ খুব সহজে করে ফেলেছেন রোহিত। এ ছবি করতে গিয়ে ‘দিলওয়ালে দুলহানিয়ালে যায়েঙ্গে’ জুটি নিজেদের ছাড়িয়ে গেছেন বলে মনে করছেন তারা। ‘গেরুয়া’ গানটিতে প্লেব্যাক করেছেন অরিজিৎ সিং আর অন্তরা মিত্র। আর কোরিওগ্রাফি করেছেন ফারাহ খান। শাহরুখ-কাজলের পাশাপাশি গানটির অন্যতম আকর্ষণ ব্যাকগ্রাউন্ড দৃশ্য। সিনেমাটোগ্রাফি, লোকেশন আর ভিজুয়াল ইফেক্টের মুগ্ধ করার মতো।

কুছ কুছু হোতা হ্যায়-এর সেই দৃশ্যটা মনে আছে? বৃষ্টিভেজা সন্ধ্যেয় কাজল শাহরুখের প্রেমে পাগল কাজল যখন কয়েক মুহূর্তের জন্য ভুলে গিয়েছিলেন যে তিনি বাকদত্তা? বৃষ্টি, আর শাহরুখ-কাজলের রোমান্স। শুধু একটা দুঃখ থেকে গিয়েছিল দর্শকের ছোট ছিল সেই দৃশ্যটা। এতদিন পর সেই দুঃখ ভুলিয়ে দেবে ‘দিলওয়ালে’। এবার শাহরুখ-কাজল’কে রোমান্সে দেখা যাবে দিলওয়ালের ‘জনম জনম’ গানে। ৩ ডিসেম্বর রাতে রেড চিলিজ এন্টারটেইনমেন্ট টুইটারে রিলিজ করেছে ‘দিলওয়ালে’র তৃতীয় গান ‘জনম জনম’। ‘মনমা ইমোশন জাগে’ ও ‘গেরুয়ার’ পর এটা দিলওয়ালের তৃতীয় মুক্তিপ্রাপ্ত গান।

ভক্তরাও অপেক্ষার প্রহর গুনছেন। পর্দায় শাহরুখ-কাজল মানেই জাদু। পুরো ছবিতে এ দুজন লক্ষ-কোটি দর্শককে ইন্দ্রজালে আটকে রেখেছেন বহুবার। এবার নিশ্চয় তার ব্যতিক্রম হবে না। আলোচিত জুটি শাহরুখ ও কাজল, এই জুটির ‘দিলওয়ালে’ নিয়ে বেশ আগ্রহ সিনেপ্রেমীদের মাঝে। এই ছবি নিয়ে বলিউড বক্স অফিসের প্রত্যাশাও কিছু কম নয়। দীর্ঘদিন পর শাহরুখ-কাজলের অনবদ্য কেমেস্ট্রি রোহিত শেঠির পরিচালনায় দেখা। আর এ ছবির গল্পটা হয়ত অনেকটাই চেনা। অন্তত ছবির ট্রেইলর দেখে অনেকেই তাই মনে করছেন। ২০১৪-এর অক্টোবরে মুক্তি পাওয়া মাইকেল হফম্যান পরিচালিত হলিউড ছবি ‘দ্য বেস্ট অফ মি’-র গল্পের সঙ্গে দিলওয়ালে গল্পের অদ্ভুত মিল। ‘দ্য বেস্ট অফ মি’ অবলম্বনে এই ছবিটির চিত্রনাট্য লেখা। রোহিত শেঠির দিলওয়ালে-এর ট্রেইলর দেখে ধারণা, এ গল্পও সে পথেই হেঁটেছে। আরও অবাক বিষয় হলো, যখন ‘দিলওয়ালে’ ছবির পোস্টার প্রকাশ হলো। দুটি ছবির পোস্টারেও যেন সেই ‘অদ্ভুত মিল’। দুটি ছবির পোস্টার যেন একই ধাঁচে গড়া। শুধু ছবির নাম আর নায়ক-নায়িকা আলাদা। তবে এখনও চূড়ান্ত কিছু বলার সময় আসেনি। কারণ, ছবির গল্প, পোস্টার যতই এক হোক না কেন বলিউডের মসলা, শাহরুখ-কাজলের অসাধারণ রোমান্সে উত্তাপ ওই হলিউড ছবিতে কী পাওয়া যায়! এদিকে অসহিষ্ণুতা নিয়ে মুখ খোলার পর ফের বিতর্কিত মন্তব্য করলেন শাহরুখ খান। ফিল্ম ফেয়ার গ্ল্যামার এ্যান্ড স্টাইল এ্যাওয়ার্ড ২০১৫-এর মঞ্চে শাহরুখ সম্প্রতি বলেছেন, ‘রেখার থেকে এ্যাওয়ার্ড পাওয়া আমার কাছে ‘ফোর-প্লে’র মতো’। আর এর পরই ফের বিতর্কিত মন্তব্যের জন্য শিরোনামে তিনি। সম্প্রতি ফিল্ম ফেয়ারের মঞ্চে শাহরুখের হাতে পুরস্কার তুলে দেন রেখা। তিনি বলেন, ‘আসলে আমি খারাপ কিছু মিন করতে চাইনি।’ কিন্তু এ নিয়ে যা জল ঘোলা হওয়ার তা ততক্ষণ শুরু হয়ে গিয়েছে। শাহরুখের কথার উত্তরে হালকা হেসে মাথা ঝুকিয়ে রেখা জানান, ‘৬১ বছরে কোন কিছুরই কোন মানে হয় না। তুমি এগিয়ে যাও।’ উপস্থিত দর্শকরা রেখার পরিস্থিতি সামাল দেয়ার ক্ষমতা দেখে মুগ্ধ হয়ে যান। তবে এই ঘটনার পর শাহরুখের দিকে বেশ বাঁকা নজরেই দেখছেন বলিউডের একাংশ।

আসমা সুমি