২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নিউইয়র্কে মুসলিম বিদ্বেষের শিকার বাংলাদেশী ব্যবসায়ী

মাহফুজুর রহমান, নিউইয়র্ক থেকে ॥ রিপাবলিকান প্রেসিডেন্ট পদপ্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের মুসলিম বিদ্বেষী বক্তব্যে আমেরিকান মুসলমানদের মধ্যে যে আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে তা থেকে তাদের মুক্ত থাকতে দুদিন আগে নিউইয়র্কের মেয়র বিল ব্লাজিও এবং সিটি কাউন্সিল স্পীকার মেলিসা কার্টজের আশ্বাস ও আহ্বানের মাঝেই গত শনিবার নিউইয়র্কে মুসলিম বিদ্বেষী প্রথম হামলার শিকার হলেন বাংলাদেশী ব্যবসায়ী সরকার হক। বাংলাদেশী অধ্যুষিত কুইন্সের এস্টোরিয়ার টোয়েন্টি ফার্স্ট এ্যাভিনিউর ফাতিমা ফুড মার্টের মালিক ৫৩ বছর বয়সী সরকার হককে দিবালোকে তার দোকানে ঢুকে আক্রমণ করেছে পিরো কোলভানি নামের এক মুসলিম বিদ্বেষী সন্ত্রাসী। অজ্ঞতনামা এক ল্যাটিনোর উপস্থিতির কারণে প্রাণে বেঁচে গেছেন সরকার হক। পুলিশ হামলাকারী কোলভানিকে গ্রেফতার করেছে এবং তার বিরুদ্ধে হেইট ক্রাইম মামরা দায়ের করেছে। সরকার হক সাংবাদিকদের জানান, হামলাকারী তার দোকানে ঢুকে সেদিনের একটি দৈনিক পত্রিকা যাতে ক্যালিফোর্নিয়ার স্যান বার্নাডিনোতে হামলায় ১৪ জন নিহত হওয়ার সংবাদটি তার মুখের ওপর তুলে ধরে জানতে চায় দোকানের সবকিছু কি ফ্রি? আমি জিজ্ঞেস করি কেন? তখন সে পেছনে গিয়ে আবার ফিরে এসে প্রচ- শক্তিতে আমার মুখে আঘাত করে, আমি, ছিটকে পড়ে গিয়ে রেফ্রিজেটারের সঙ্গে বাড়ি খাই। তখন আক্রমণকারী বলতে থাকে ‘আই কীল মুসলিমস।’ তারপর সে ক্রমাগত আঘাত করতে থাকে। এ সময় তার চিৎকারে পরিচিত এক ক্রেতা এসে আক্রমণকারীকে জাপটে ধরেন এবং অন্য এক পথচারী পুলিশ কল করেন। তাকে রক্ষাকারী ক্রেতাটি সরকার হককে তার নাম গোপন রাখতে বলেন। রক্ষাকারী দুজনের কেউ মুসলমান নন বলে জানা গেছে। এদিকে বিভিন্ন টিভি ও সংবাদপত্রকে সরকার হক তার প্রতিক্রিয়া বলেছেন, আমরা সবাই এই আমেরিকায় এসেছি কোথাও না কোথাও থেকে এবং আমরা সবাই আমেরিকান।