২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

হাল ছাড়ছেন না ট্রাম্প

  • সমালোচনার মুখেও অনড় রিপাবলিকান মনোনয়ন প্রত্যাশী

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে রিপাবলিকান পার্টির মনোনয়ন প্রত্যাশী ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন যে, মুসলিমদের সম্পর্কে তার মন্তব্যের ব্যাপক সমালোচনা সত্ত্বেও তিনি ২০১৬ সালের ওই নির্বাচনী প্রতিদ্বন্দ্বিতা থেকে কখনও সরে দাঁড়াবেন না। তিনি ওয়াশিংটন পোস্ট পত্রিকার সঙ্গে এক সাক্ষাতকারে বলেন, যা কিছুই ঘটুক না কেন, তিনি এ প্রতিদ্বন্দ্বিতা থেকে বিদায় নেবেন না। খবর বিবিসির।

হোয়াইট হাউস এর আগে বলেছে, যুক্তরাষ্ট্রের উচিত মুসলিমদের দেশটিতে আসা নিষিদ্ধ করা এমন মন্তব্য করার পর ট্রাম্প প্রেসিডেন্ট পদে নির্বাচিত হওয়ার অযোগ্য হয়ে পড়েছেন।

তার মন্তব্য বিশ্বজুড়ে নিন্দিত হয়। ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যে এক ভয়াবহ হামলার পর তিনি ওই মন্তব্য করেন।

বিশ্বনেতাদের মধ্যে সর্বশেষ ইসরাইলী প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু ট্রাম্পের উক্তি প্রত্যাখ্যান করেন। ট্রাম্প চলতি মাসে ইসরাইল সফর করবেন বলে ঘোষণা করার কয়েক ঘণ্টা পর নেতানিয়াহু বলেন, তার দেশ সব ধর্মের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। প্রেসিডেন্ট পদে রিপাবলিকানদের মধ্যে ট্রাম্পই বর্তমানে অগ্রগামী প্রার্থী। তিনি ইউএসএ টুডের জরিপের সঙ্গে সংযুক্ত এক টুইটে স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে দাঁড়ানোর সম্ভাবনার কথাও উল্লেখ করেন। এ জরিপে দেখা যায় যে, যদি তিনি রিপাবলিকান পার্টি ছেড়ে যান, তাহলে তার সমর্থকদের শতকরা ৬৮ ভাগ তার পক্ষে ভোট দেবেন।

ট্রাম্প স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারেন এ সম্ভাবনায় উদ্বিগ্ন রিপাবলিকান নেতারা শেষ পর্যন্ত যাকে মনোনয়ন দেয়া হবে তাকে সমর্থন করার প্রতিশ্রুতি দিতে নিউইয়র্কের ব্যবসায়ী ট্রাম্পকে রাজি করানোর চেষ্টা করেন।

তবে ইতোপূর্বে ট্রাম্প তার প্রতি ‘ন্যায়সঙ্গত আচরণ’ না করা হলে তিনি রিপাবলিকান পার্টি ত্যাগ করার হুমকি দেন।

তিনি ওয়াশিংটন পোস্টকে বলেন, আমি সারাজীবনই জয়ী হয়েছি। আমি প্রায়ই হারিনি। আমি বলতে গেলে কখনও হারিনি।

দলীয় কর্মকর্তাদের আশঙ্কা, তৃতীয় প্রার্থী হয়ে ট্রাম্প প্রচার তৎপরতা চালালে রিপাবলিকানদের ভোট ভাগ হয়ে যাবে, এবং ডেমোক্র্যাটরা জয়ী হওয়ার মতো সুবিধা পাবেন।

যদিও ট্রাম্প কয়েক মাস ধরে জাতীয় জনমত জরিপে অনবরত এগিয়েছিলেন, কিন্তু সংখ্যাগরিষ্ঠ ভোটার তাকে বিরূপ দৃষ্টিতেই দেখে থাকেন।

রিপাবলিকান কংগ্রেস সদস্য ডেভিড জলি ট্রাম্পকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা থেকে সরে যেতে বলেছেন, এমন কয়েক ভাষ্যকারের সঙ্গে যোগ দিয়েছেন।

ক্যালিফোর্নিয়ার সান বারনা রডিনো শহরে ভয়াবহ গুলিবর্ষণের ঘটনার পর ট্রাম্প ওই মন্তব্য করেন।

তিনি দেশে কি ঘটছে এ নিয়ে আমাদের দেশের প্রতিনিধিরা চিন্তা-ভাবনা না করা পর্যন্ত মুসলিমদের যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ করার আহ্বান জানান।

এক মুসলিম দম্পতির গুলিতে এক স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ১৪ ব্যক্তি নিহত ও আরও অনেকে আহত হয়। এ দম্পতি চরমপন্থী হয়ে উঠেছিল বলে মনে করা হয়। অনেক রিপাবলিকান নেতা ওই মন্তব্যের নিন্দা করেছেন। ফ্লোরিডার সাবেক গবর্নর জেব বুশ ট্রাম্পকে ‘মানসিক রোগী’ বলে অভিহিত করেন। প্রতিনিধি পরিষদের স্পীকার পল রায়ান বলেন, ট্রাম্পের মন্তব্য আমেরিকার মূল্যবোধের পরিপন্থী।

নির্বাচিত সংবাদ