২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মানবাধিকার নিয়ে ‘ডবল স্ট্যান্ডার্ড’ চলছে ॥ ফখরুল

স্টাফ রিপোর্টার ॥ দেশে মানবাধিকার নিয়ে ‘ডবল স্ট্যান্ডার্ড’ চলছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেন, সরকার একদিকে মানবাধিকারের কথা বলছে, অন্যদিকে মানবাধিকার লংঘনের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নিচ্ছে না। জাতিসংঘ ঘোষিত মানবাধিকার দিবস উপলক্ষে বৃহস্পতিবার ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনের সেমিনার হলে বিএনপি আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

আলোচনা সভার শুরুতে বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে গুম হওয়া পরিবারের সদস্যদের আর্তনাদ করা বক্তব্যে পরিবেশ ভারি হয়ে ওঠে। তারা কান্নাজড়িত কণ্ঠে প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে তাদের সন্তানদের ফিরিয়ে দেয়ার দাবি জানান।

দেশে শান্তি খুঁজে পাওয়া কঠিন মন্তব্য করে ফখরুল বলেন, সারাদেশে বিএনপির অসংখ্য নেতাকর্মী গুম হয়েছে, আর ক্রসফায়ারে কত মানুষ নিহত হয়েছে তা ইতোমধ্যেই প্রকাশিত হয়েছে। যারা মানবাধিকার লংঘন করছে তাদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে না। তিনি বলেন, শুধু বাংলাদেশ নয়, দুনিয়াজুড়ে আজ মানবাধিকার ভূলুণ্ঠিত করা হচ্ছে।

আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, সরকারের পরিবর্তন হবে। তবে আমরা হারিয়ে যাওয়া গণতন্ত্র ফিরে পেতে চাই। বিচার বিভাগের স্বাধীনতা ফিরে পেতে চাই। মানবাধিকার ফিরে পেতে চাই। এটার জন্যই আমাদের সংগ্রাম। ছোট শিশুরা বড় হওয়ার আগেই গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনতে সংগ্রাম করতে হবে। তিনি বলেন, দেশে সবকিছুই আছে, আবার কোন কিছুই নেই। বিচার বিভাগ আছে। কিন্তু স্বাধীনতা কতটুকু আছে, তা নিয়ে মানুষের মনে প্রশ্ন আছে।

আওয়ামী লীগের উদ্দেশে মওদুদ বলেন, দেশে নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের ব্যবস্থা করুন। তবে এটা আপনারা এককভাবে সমাধান করতে পারবেন না। আমরা এ ধরনের ঘটনা কখনই চাই না। তাই সকল গণতান্ত্রিক শক্তিগুলোকে ঐক্যবদ্ধ করতে হবে। গণতান্ত্রিক অধিকার ফিরিয়ে আনা ছাড়া কোন বিকল্প নেই।

গুম হওয়া বংশাল থানা ছাত্রদলের সদস্য সোহেলের বাবা শামছুর রহমান বলেন, আমার ছেলেকে দিনের বেলায় শাহবাগ থেকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর পরিচয় দিয়ে ধরে নিয়ে যাওয়া হয়। তার ছেলের জন্মদিন উপলক্ষে সে ফুল কিনতে গিয়েছিল, সেখান থেকে আর ফেরেনি। গুম হওয়া আরেক ছাত্রদল সদস্য মোঃ জহিরের মা হোসনে আরা বলেন, আমার সন্তানের খোঁজ এখনও পাইনি। তার বাবা মৃতপ্রায়। আমরা ছেলের সন্ধান চাই। আমরা আর কান্না করতে পারব না। সরকারকে বলব আমার সন্তানকে ফেরত দিন।

সালাহউদ্দিনের স্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাত করলেন রিজভী ॥ ভারতের কারাগারে অবস্থান করা বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব সালাহউদ্দিন আহমেদের গুলশানের বাসায় গিয়ে তার স্ত্রী হাসিনা আহমেদের সঙ্গে সাক্ষাত করেছেন সদ্য কারামুক্ত দলের আরেক যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী। বৃহস্পতিবার দুপুরে তিনি হাসিনা আহমেদের বাসায় গিয়ে পরিবারের সদস্যদের খোঁজখবর নেন।