২০ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

প্লাতিনির নিষেধাজ্ঞা সমর্থন করল স্পোর্টস ট্রাইব্যুনাল

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ মিশেল প্লাতিনির বিরুদ্ধে ফিফা এথিকস কমিটির আরোপিত ৯০ দিনের নিষেধাজ্ঞাকে সমর্থন করেছে কোর্ট অব আর্বিট্রেশন ফর স্পোর্টস (সিএএস)। বিশ্বের সর্বোচ্চ ক্রীড়া আদালতের এই রায় ফরাসি কিংবদন্তি ফুটবল তারকার ফিফা সভাপতি পদে নির্বাচনে অংশগ্রহণের স্বপ্নকে ধুলোয় মিশিয়ে দিয়েছে।

আদালতের এক বিবৃতিতে বলা হয়,‘ সিএএস প্যানেল প্লাতিনির বিরুদ্ধে আরোপিত ৯০ দিনের এই নিষেধাজ্ঞা যে অযৌক্তিক নয় সে বিষয়ে নিশ্চিত।’ সুইজারল্যান্ডের অপরাধ তদন্ত বিভাগের তদন্তে নাম অন্তর্ভুক্ত হবার আগে পর্যন্ত ইউরোপীয় ফুটবলের (উয়েফা) প্রধান এবং ফিফার সহ-সভাপতি প্লাতিনি ছিলেন বিশ্বফুটবলের নিয়ন্ত্রক সংস্থার সভাপতি প্রার্থীদের মধ্যে সবচেয়ে ফেভারিট। সইুস তদন্তের প্রেক্ষিতে সভাপতি সেপ ব্লাটার ও প্লাতিনিকে ৯০ দিনের জন্য নিষিদ্ধ করে ফিফা।

সিএএস আরো জানিয়েছে, নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের আদেশ দেয়ার পরও ফিফা সভাপতি নির্বাচনের প্রতিদ্বন্দ্বিতায় প্লাতিনিকে অংশ নেয়ার সুযোগ এথিকস কমিটি দেবে, এমন কোন নিশ্চয়তা নেই। তবে ৯০ দিনের নিষোধাজ্ঞার মেয়াদ শেষ হবার পর প্লাতিনির ওপর আর কোন নিষেধাজ্ঞা আরোপ না করার আদেশ দিয়েছে সিএসএ। যদি সেটি করা হয় তবে সেটি প্লাতিনির অধিকারের প্রতি অবিচার করা হবে বলে আদেশে উল্লেখ করা হয়েছে।

পারিশ্রমিক বাবদ ফিফা সভাপতি ব্লাটারের কাছ থেকে ২ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের ও বেশী অর্থ গ্রহনের দায়ে প্লাতিরি বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করে সুইস অপরাধ তদন্ত বিভাগ। ফিফা এথিকস কমিটি জুভেন্টাসের সাবেক এই তারকা ফুটবলারকে আজীবনের জন্য নিষিদ্ধ করার সুপারিশ করেছেন। চলতি বছরের শেষ দিকে এ বিষয়ে ফুটবলের নিজস্ব আদালত থেকে একটি রুলিং আসতে পারে বলে ধারনা করা হচ্ছে। সেটি যদি হয়, তাহলে ফুটবলের নির্বাহী হিসেবে প্লাতিনির ক্যারিয়ার একেবারেই ধ্বংস হয়ে যাবে। আগামী ৫ জানুয়ারি শেষ হবে প্লাতিনির ৯০ দিনের অন্তবর্তীকালীন নিষেধাজ্ঞার মেয়াদ।

নির্বাচিত সংবাদ