২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

কাজীপুরে নির্বাচনী মাঠে নাসিমের দুই ভক্ত

বাবু ইসলাম, সিরাজগঞ্জ ॥ কাজীপুর পৌরসভায় কোমর বেঁধে মাঠে নেমেছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের দুই ভক্ত। একজন আওয়ামী লীগ মনোনীত দলীয় প্রার্থী নিজাম উদ্দিন। অপরজন বিএনপি থেকে সদ্য পদত্যাগকারী বর্তমান মেয়র স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুস সালাম। আব্দুস সালাম নিজেকে নাসিম অনুসারী ও ভক্ত পরিচয় দিয়ে ভোটারের কাছে ভোট চাইছেন। দশ হাজার একশ ২৫ ভোটারের এই পৌরসভায় ভোট কেন্দ্র মাত্র দশটি। নৌকার ঘাঁটি হিসেবে পরিচিত আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য, স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিমের নির্বাচনী এলাকায় নৌকার প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে লড়ছেন আলহাজ নিজাম উদ্দিন, বিএনপি মনোনীত ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে লড়ছেন মাসুদুর রায়হান মুকুল এবং বিএনপি থেকে সদ্য পদত্যাগকারী বর্তমান মেয়র স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুস সালাম। শুক্রবার কাজিপুরের নির্বাচনী এলাকা ঘুরে দেখা গেছে নির্বাচনে মূলত প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী দুই জন। আর এরা দু’জনই মোহাম্মদ নাসিমের ভক্ত বলে ভোটারের কাছে নিজেদের উপস্থাপন করছেন।

বর্তমান মেয়র স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুস সালাম গত পৌর নির্বাচনে বিএনপি থেকে নির্বাচিত হলেও পৌরসভার উন্নয়নে মোহাম্মদ নাসিমের মতাদর্শ অনুসরণ ও পরামর্শ নিয়েই উন্নয়ন কাজ করেছেন বলে তিনি জনকণ্ঠকে জানিয়েছেন। আলাপচারিতায় তিনি এও বলেছেন- বিএনপির পৌর সভাপতি থেকে নির্বাচনে অংশ নিয়ে পৌর মেয়র নির্বাচিত হবার পর কাজিপুরে উন্নয়নে মোহাম্মদ নাসিমের কর্মকা-ের প্রতি আস্থাবান হয়ে আমি নিজেই কখন নাসিম লীগ বা নাসিম ভক্ত হয়ে ওঠেছি, তা জানি না। এর পর এবারের নির্বাচনে তিনি তার দল বিএনপি থেকে পদত্যাগ করে নাসিম ভক্ত পরিচয় দিয়ে পৌর নির্বাচনে প্রচার চালাচ্ছেন। কাজিপুর পৌরসভার মূল কেন্দ্র আলমপুর চৌরাস্তায় মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বী স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুস সালাম জনকণ্ঠকে দেয়া এক সাক্ষাতকারে এ সব কথা বলেছেন।

এ দিকে আওয়ামী লীগের ঘাঁটি কাজিপুর পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীর নৌকার প্রচারও জোরেশোরে চলছে। দলীয় কর্মী বাহিনী নিয়ে প্রতিদিন প্রার্থী নিজে এবং তার সমর্থকেরা চষে বেড়াচ্ছেন ভোটারের বাড়ি বাড়ি। বিএনপি থেকে পদত্যাগকারী স্বতন্ত্র প্রার্থী নাসিমের ভক্ত বলে যে পরিচয় দিচ্ছেন তা তিনি শুনেছেন। তিনি স্বতন্ত্র প্রার্থীর বক্তব্য উড়িয়ে দিয়ে বলেছেন- এটি তার ব্যর্থতা ঢাকার অপকৌশল মাত্র। বিএনপি থেকে পদত্যাগ করেই তিনি নাসিমের ভক্ত হতে পারেন না। নাসিম তা মেনেও নেবেন না। অপর দিকে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী মাসুদুর রায়হান মুকুলের কোন কর্মী সমর্থককে মাঠে দেখা যায়নি। কেউ বিএনপি প্রার্থীর পক্ষে ভোট চেয়েছেন তাও আলমপুর চৌরাস্তা বা আশপাশের কোন স্থানে শোনা যায়নি।