২২ নভেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

ইবনে সিনাসহ দুই প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা

  • পুড়েছে শতাধিক বস্তিঘর

স্টাফ রিপোর্টার ॥ রাজধানীতে র‌্যাবের অভিযানে ইবনে সিনাসহ দুই প্রতিষ্ঠানকে চার লাখ টাকা জরিমানা, পুলিশের অভিযানে ২০ ভিক্ষুক ও ভবঘুরে আটক এবং তেজগাঁও ও মোহাম্মদপুরে পৃথক অগ্নিকা-ে শতাধিক বস্তিঘর পুড়ে যাওয়ার ঘটনা ঘটেছে।

বুধবার দুপুর আড়াইটা থেকে সন্ধ্যা সোয়া ছয়টা পর্যন্ত র‌্যাব-১ এর ভ্রাম্যমাণ আদালত রাজধানীর উত্তরায় অভিযান চালায়। অভিযানে অনুমোদনহীন এক্সরে ইউনিট স্থাপন ও বিভিন্ন পরীক্ষায় মেয়াদোত্তীর্ণ রাসায়নিক উপাদান ব্যবহারের দায়ে উত্তরা ১৩ নম্বর সেক্টরে গরীব-ই নেওয়াজ এ্যাভিনিউয়ে ইবনে সিনা ডায়াগনস্টিক সেন্টার এ্যান্ড কনসালটেশন সেন্টারকে ২ লাখ টাকা জরিমানা করে।

একই এলাকায় লুবানা জেনারেল হাসপাতালকেও মেয়াদোত্তীর্ণ রাসায়নিক পদার্থ ব্যবহারের দায়ে ২ লাখ টাকা জরিমানা করেন র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ফিরোজ আহমেদ।

বুধবার ঢাকা মহানগর পুলিশের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মশিউর রহমান রাজধানীর গুলশান ১ ও ২ নম্বর এলাকা থেকে ২০ ভবঘুরে ও ভিক্ষুককে আটক করে। অভিজাত এলাকায় ভবঘুরে ও ভিক্ষুকদের যাতায়াত নিষিদ্ধ হওয়ায় অভিযানটি চালানো হয়। আটককৃতদের সমাজসেবা অধিদফতরের হেফাজতে পাঠানো হয়েছে। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে গুলশান থানার ওসি বিষয়টি তদন্ত করে প্রতিবেদন তৈরি করবেন। এরপর প্রকৃত নিরাশ্রয় ব্যক্তিদের পুনবার্সন ও বাকি প্রতারকদের বিরুদ্ধে যথাযথ ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জানিয়েছেন।

এদিকে মঙ্গলবার রাত দেড়টার দিকে মোহাম্মদপুর বেড়িবাঁধ সংলগ্ন বস্তিতে আগুনে অন্তত ৩০টি বস্তিঘর পুড়ে গেছে। আর বুধবার বিকেল চারটার দিকে তেজগাঁও বিজি (বাংলাদেশ গবর্নমেন্ট) প্রেসের পেছনে রেললাইন সংলগ্ন বস্তিতে অন্তত ৭০টি বস্তিঘর আগুনে পুড়ে গেছে। পৃথক দুইটি অগ্নিকা-ে কোন হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। ফায়ার সার্ভিস আগুন নিভিয়ে ফেলে। বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট বা লাকড়ির চুলার আগুন থেকে অগ্নিকা-ের ঘটনা ঘটতে পারে বলে ফায়ার সার্ভিসের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের প্রাথমিক ধারণা।