২০ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

সেরাটা দিতেই প্রতিজ্ঞাবদ্ধ ম্যাককুলাম

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ ২২ গজে বোলারদের কাছে মূর্তিমান এক আতঙ্কের নাম ব্রেন্ডন ম্যাকুলাম। ফর্মে থাকলে যে কোন ফরমেটেই রানের ফোয়ারা ছোটে তার ব্যাট থেকে। সম্প্রতি টানা টেস্ট খেলে ভেঙেছেন এবি ডি ভিলিয়ার্সের রেকর্ড। এক শ’ ছক্কা হাঁকিয়ে টেস্ট ক্রিকেটের সবচেয়ে মারকুটে ব্যাটসম্যান হিসেবে বসেছেন এ্যাডাম গিলক্রিস্টের পাশে। নিউজিল্যান্ডের অধিনায়ক হিসেবে পেয়েছেন একাদশ টেস্ট জয়। এতসব অর্জন একপাশে সরিয়ে অনেকটা বিস্ময়ের জন্ম দিয়েই দুই দিন আগে ক্রিকেটকে বিদায় বলে দিয়েছেন ম্যাককুলাম। জানিয়ে দিয়েছেন, আগামী ফেব্রুয়ারি মাসে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে টেস্ট সিরিজের পরপরই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসর নেবেন তিনি।

তবে অবসরের ঘোষণা দিলেও শনিবার থেকে শুরু শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে একদিনের সিরিজে নিজের সেরাটা ঢেলে দিতেই প্রতিজ্ঞাবদ্ধ ম্যাককুলাম। এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘দুর্দান্ত একটা বছর পেয়েছি আমরা। এই মুহূর্তে শ্রীলঙ্কা আমাদের দেশে। পাকিস্তান আসবে এবং শেষ হবে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে সিরিজ দিয়ে। খেলার এবং অধিনায়কের দিক দিয়ে আমার সেরাটা খেলতেই প্রতিজ্ঞাবদ্ধ। আমার পক্ষে যতটাই সম্ভব তার সবটুকুই দলের জন্য অবদান রাখার চেষ্টা করব।’ কোচ মাইক হেসনও জানিয়ে দিয়েছেন তার অবসর ঘোষণার প্রভাব দলে পড়বে না, ‘আমরা আশা করছি সে তার নিজস্ব স্টাইল এবং ধারাবাহিকতা ধরে রেখেই নিজের সেরাটা উপহার দেবেন দলকে। তাছাড়া আমরাও যথেষ্ট আক্রমণাত্মক মনোভাব নিয়ে খেলতে নামব।’

আগামী ফেব্রুয়ারিতে ক্রাইস্টচার্চে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে নিজের ১০১তম টেস্ট ম্যাচ খেলে বিদায় নেবেন ম্যাককুলাম। বিদায়ের জন্য ক্রাইস্টচার্চকে নেয়ার কারণ এই শহরটা যে তার জন্মস্থান। নিজের শহরের মাঠে খেলেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানাতে চান প্রথম কিউই ব্যাটসম্যান হিসেবে ট্রিপল সেঞ্চুরি করা ব্রেন্ডন। নিউজিল্যান্ডের পক্ষে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত সংগ্রহের অধিকারী (৩০২) ম্যাককুলাম ২০০৪ সালে অভিষেকের পর এ পর্যন্ত খেলেছেন ৯৯ টেস্ট। ১১ সেঞ্চুরিসহ তার ব্যক্তিগত রান সংখ্যা ৬ হাজার ২৭৩। ২৫৪ ওয়ানডে খেলেছেন তিনি। ৫ সেঞ্চুরিতে রান ৫ হাজার ৯০৯।

আগামী ৮ মার্চ থেকে শুরু হবে ওয়ার্ল্ড টি২০ বিশ্বকাপ। আর সেই টুর্নামেন্টে কিউইদের নেতৃত্ব দেবেন কেন উইলিয়ামসন। নিউজিল্যান্ডের ক্রিকেট বোর্ড ম্যাককুলামের এ উত্তরসূরির নাম নিশ্চিত করে ফেলেছে ইতোমধ্যেই। তবে ক্রিকেট থেকে বিদায় নেয়ার পর কী করবেন ম্যাককুলাম। ইংল্যান্ড সফরের পরই এক সাক্ষাতকারে ম্যাককুলামের কাছে জানতে চাওয়া হয়। এমন প্রশ্নের জবাবে ডানহাতি এই ব্যাটসম্যান বলেছিলেন ‘রেসিং’ এর কথা। কেননা নিউজিল্যান্ডের সবচেয়ে বড় ঘোড়া প্রজনন ও দৌড় প্রতিযোগিতার প্রতিষ্ঠান ওয়াইকাত স্তুত। কিউইদের অনেক বিখ্যাত ক্রীড়াবিদ এই খেলাকে এড়িয়ে যেতে পারেননি। আর দেশটির বেশ জনপ্রিয় খেলা হিসেবেও এটি বিবেচিত। তাই ব্রেন্ডন ম্যাককুলাম বলেন, ‘আমি চাই ক্রিকেটের পরে ভিন্ন কিছু করতে। আর আমি আমার পরবর্তী ইচ্ছার দিকে ছুটতে চাই। যেটি হচ্ছে রেসিং।’ বর্তমানে ক্রিকেট থেকে বাইরে থাকলেই ম্যাককুলাম সপ্তাহের বড় একটি সময় ঘোড় দৌড়ে কাটান। তবে ঘোড় দৌড়ে তার আসক্তি থাকা সত্ত্বেও তিনি এখনও খেলাটিতে তেমন পারদর্শী হতে পারেননি।

এই মাত্রা পাওয়া