২৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নতুন বছরে স্কুলে যাওয়া হলো না সৌরভের

  • গলা কেটে শিশু হত্যা

এম.রায়হান, ঝিনাইদহ ॥ পাঁচ বছরের শিশু সৌরভ। নতুন বছরে স্কুলে ভর্তি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সে আশা পূরণ হতে দিল না দুর্বৃত্তরা। গলা কেটে নৃশংসভাবে হত্যা করা হয়েছে তাকে। সোমবার দুপুর ৩টার দিকে পুলিশ নিহতের বাড়ির পাশে নির্মানাধীন বিল্ডিংয়ের ছাদ থেকে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে। সৌরভ ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার ছোট রায়গ্রামের বলয় দাস ওরফে বাবু দাসের ছেলে। মঙ্গলবার শিশুটির শেষকৃত্বানুষ্ঠান সম্পন্ন হয়েছে। নৃশংস এ হত্যাকান্ডের মোটিভ এখনও উদ্ধার করতে পারেনি পুলিশ। এ ঘটনায় শিশু সৌরভের বাবা বাবু দাস কালীগঞ্জ থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেন। এদিকে ছেলের নৃশংস হত্যাকান্ডের পর থেকে বাবা বাবু দাস ও মা উমা দাস বাকরুদ্ধ হয়ে পড়েছেন। পরিবারের সদস্যের আহাজারিতে এলাকার বাতাস ভারী হয়ে রয়েছে। উমা দাস জানান, আমাদের কোন শত্রু নেই। সৌরভকে আসছে ইংরেজী নতুন বছরে স্কুলে ভর্তি করার আশা ছিল। স্কুলে যাওয়া হলো না আমার সৌরভের।

চট্টগ্রামে ১৩৩ কেন্দ্রের ১১৪ ঝুঁকিপূর্ণ

স্টাফ রিপোর্টার, চট্টগ্রাম অফিস ॥ উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে আজ অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে পৌরসভা নির্বাচন। সারাদেশের মতো চট্টগ্রামের ১০ পৌরসভায় একযোগে অনুষ্ঠিত হবে নির্বাচন। এখানে প্রচারণায় উৎসবের আমেজ থাকলেও শেষ মুহূর্তে এসে ভোটারদের মাঝে বিরাজ করছে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠা। নির্বাচন সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হবে তো? ভোটাররা ভোটকেন্দ্রে যেতে পারবে তো? এমন নানা প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে তাদের মনে।

তবে সকল উদ্বেগ-উৎকণ্ঠার অবসান ঘটিয়ে আনন্দঘন পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠানে বদ্ধপরিকর নির্বাচন কমিশন। সুষ্ঠু পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠানে ইতোমধ্যে নির্বাচনী এলাকায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মোতায়েন করা হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্র নির্ধারণ করে ইতোমধ্যে সেগুলোতে অতিরিক্ত বিজিবি, র‌্যাব, পুলিশ মোতায়েন করা হচ্ছে। এবার চট্টগ্রামের বারৈয়ারহাট, মীরসরাই, সীতাকু-, রাউজান, রাঙ্গুনিয়া, সন্দ্বীপ, পটিয়া, চন্দনাইশ, সাতকানিয়া ও বাঁশখালী পৌরসভায় নির্বাচন হচ্ছে। এই দশ পৌরসভায় এবার মেয়রপদে ৩৪, সংরক্ষিত কাউন্সিলর পদে ৭৭ এবং সাধারণ কাউন্সিলর পদে ৩৩৭ প্রতিদ্বন্দ্বিতায় রয়েছেন। জেলা পুলিশ সূত্র জানায়, এবার চট্টগ্রামের ১০ পৌরসভার ১৩৩ ভোটকেন্দ্রের মধ্যে ১১৪টি কেন্দ্র ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে নির্ধারণ করা হয়েছে। প্রার্থী ও দলীয় অবস্থান এবং ভৌগোলিক অবস্থান বিবেচনায় এসব কেন্দ্রকে ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়। এর মধ্যে রাউজান, বারৈয়ারহাট, মীরসরাই ও চন্দনাইশ পৌরসভার মোট ৫৩টি কেন্দ্রের সব কেন্দ্র ঝুঁকিপূর্ণ ঘোষণা করা হয়েছে। অপর ছয়টি পৌরসভার ৮০টি ভোটকেন্দ্রের মধ্যে ৬১টি কেন্দ্র ঝুঁকিপূর্ণ ঘোষণা করা হয়েছে। অবশিষ্ট ১৯টি কেন্দ্র সাধারণ ঘোষণা করা হয়েছে। ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রগুলোর মধ্যে সন্দ্বীপ পৌরসভায় ১৫টি ভোটকেন্দ্রের মধ্যে ১৪টিই ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে।