১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

জাতীয় মহিলা হ্যান্ডবল

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ হ্যান্ডবল ফেডারেশনের ব্যবস্থাপনায় এবং এক্সিম ব্যাংক লিমিটেডের পৃষ্ঠপোষকতায় এক্সিম ব্যাংক ২৬তম জাতীয় মহিলা হ্যান্ডবল প্রতিযোগিতায় মঙ্গলবারও দুই স্টেডিয়ামে প্রথম রাউন্ডের খেলা অনুষ্ঠিত হয়েছে। শহীদ (ক্যাপ্টেন) এম মনসুর আলী জাতীয় হ্যান্ডবল স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত খেলায় সকালে মাদারীপুর জেলা ৪-০ গোলে জামালপুর জেলাকে, নওগাঁ জেলা ১৬-৭ গোলে পঞ্চগড় জেলাকে, দিনাজপুর জেলা ১৮-০ গোলে ফেনী জেলাকে এবং দুপুরে ঢাকা জেলা ৭-৬ গোলে সাতক্ষীরা জেলাকে পরাজিত করে। আর সুলতানা কামাল মহিলা ক্রীড়া কমপ্লেক্সে অনুষ্ঠিত খেলায় সকালে বাংলাদেশ পুলিশ ১৫-৩ গোলে চূয়াডাঙ্গা জেলাকে, কুষ্টিয়া জেলা ১০-৯ গোলে নড়াইল জেলাকে, কিশোরগঞ্জ জেলা ১২-৭ গোলে ফরিদপুর জেলাকে, যশোর জেলা ২০-১ গোলে গোপালগঞ্জ জেলাকে এবং দুপুরে কিশোরগঞ্জ জেলায় ১০-২ গোলে চূয়াডাঙ্গা জেলাকে, নড়াইল জেলা ৮-৩ গোলে গোপালগঞ্জ জেলাকে, যশোর জেলা ১৪-৪ গোলে কুষ্টিয়া জেলাকে ও বিকেলে বাংলাদেশ পুলিশ ১০-৪ গোলে ফরিদপুর জেলাকে পরাজিত করে।

জাতীয় শরীর গঠন সমাপ্ত

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ বাংলাদেশ শরীর গঠন ফেডারেশনের উদ্যোগ ও ব্যবস্থাপনায় তিন দিনব্যাপী জাতীয় ২৭তম সিনিয়র এবং ১২তম মাস্টার পুরুষ শরীর গঠন প্রতিযোগিতা মঙ্গলবার শেষ হয়েছে। এবার সিনিয়র বিভাগে ৫৫, ৬০, ৬৫, ৭০, ৭৫, ৮০ ও ৮০+ কেজি ওজন শ্রেণীতে মিস্টার বাংলাদেশ হয়েছেন যথাক্রমে বাংলাদেশ আনসারের মোঃ আরিফুর রহমান, চট্টগ্রামের মোঃ সাইফুল ইসলাম তালুকদার; বাংলাদেশ আনসারের আনোয়ার হোসেন, ঢাকার মোঃ জুবায়ের, বাংলাদেশ আনসারের মোহাম্মদ নাজমুস সাকিব ভূঁইয়া, বাংলাদেশ আনসারের সুমন দাস, ঢাকার হাসিব মোহাম্মদ হলি এবং মাস্টার বিভাগে এডোনাইজ ফিটনেস সেন্টার লি. ঢাকার মোঃ মাহছুদুর রহমান। আর দলগত চ্যাম্পিয়ান হয়েছে বাংলাদেশ আনসার দল এবং দলগত রানার্সআপ মানস জিম, চট্টগ্রাম দল। এবারের প্রতিযোগিতায় সারাদেশ থেকে ৮০ ক্লাবের ২৫০ বডিবিল্ডার অংশ নেয়। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের সচিব শ্রী অশোক কুমার বিশ্বাস (যুগ্ম-সচিব)। প্রতিযোগিতার প্রত্যেক ক্যাটাগরির ৭ মিস্টার বাংলাদেশ এবং ওপেন ওয়েট ক্যাটাগরি থেকে ১ মাস্টার বাংলাদেশ খেতাব অর্জনকারী প্রত্যেকে জিএনসি লাইভ ওয়েলের পক্ষ থেকে ১ বছরের জন্য পাবেন মাসিক দু’হাজার টাকার ফুড সাপ্লিমেন্ট।