১৪ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পুঠিয়ায় সাংবাদিকসহ তিনজনকে আটকে রাখার অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ রাজশাহীতে কর্মরত সমকাল পত্রিকার ব্যুরো চিফ ও এটিএন নিউজের রাজশাহী প্রতিনিধি সৌরভ হাবিব, তাঁর ক্যামেরাপারসন রবিউল ইসলাম খোকন ও সহযোগী তারিকুজ্জামানকে রাত থেকে দিনভর আটকে রেখেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাত থেকে বুধবার দিনভর তাদের থানায় আটকে রাখা হয়েছে। বিকেলে এ রিপোর্ট লেখার সময়ও তারা আটক ছিলেন।

পুলিশ জানায়, রাতে পুঠিয়ার ভোটকেন্দ্রে স্থাপিত ক্যাম্পে অবৈধ অনুপ্রবেশের অভিযোগে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) তাঁদের ধরে পুলিশে সোপর্দ করেছে। আর বিজিবি বলছে, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ও রিটার্নিং কর্মকর্তা তাঁদের আটক করে বিজিবির ওপর দোষ চাপাচ্ছে। ইউএনও বলছেন, বিজিবি তাঁদের ধরে ইউএনওর ওপর দোষ চাপাচ্ছে।

পুঠিয়া থানায় আটক সৌরভ হাবীব বলেন, সেখানকার নির্বাচনী আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে মঙ্গলবার রাত সাড়ে আটটার দিকে তিনি এটিএননিউজে ইউএনওর সাক্ষাৎকার সরাসরি সম্প্রচার করেন। আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে কথা বলার জন্য তিনি বিজিবির রাজশাহীর অধিনায়ক শাহজাহান সিরাজকে ফোন করেন। তিনি অনুমতি দিয়ে একজন সুবেদারের ফোন নম্বর দেন। ওই সুবেদার তাঁদের পুঠিয়ায় পিএন স্কুলের সামনে যেতে বলেন। সেখানে গেলে তাঁদের ক্যাম্পের ভেতরে ঢোকানো হয়। দীর্ঘক্ষণ অপেক্ষার পর রাত ১২টার দিকে পুঠিয়ার রিটার্নিং কর্মকর্তা ও ইউএনও নুরুজ্জামান, নির্বাচনী কর্মকর্তা মনজুরুল হাসান সেখানে যান। পরে তাঁরা পুলিশকে খবর দেন। পুলিশ এসে তাঁদের থানায় নিয়ে যায়। এরপর থেকে তারা আটক রয়েছেন।

সৌরভ হাবীবের মামা আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী জিএম হীরা বাচ্চু বলেন, পরিকল্পিতভাবে তাঁর মনোবল ভেঙে দিতে ভাগ্নেকে পুলিশে দেয়া হয়েছে। পুঠিয়া থানার সহকারী উপপরিদর্শক আব্দুর রব বলেন, কী অভিযোগে তাঁদের আটক করা হয়েছে, তিনি তা জানেন না। বিজিবি ক্যাম্পে অবৈধভাবে অনুপ্রবেশের অভিযোগে তাঁদের পুলিশে সোপর্দ করেছে।

পুঠিয়ার ইউএনও নুরুজ্জামান বলেন, বিজিবি তাঁদের ক্যাম্পে অবৈধ অনুপ্রবেশের অভিযোগে ধরেছে। এখন সামলাতে না পেরে ইউএনওর ওপর দোষ চাপাচ্ছেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত তাদের পুঠিয়া থানা থেকে উপজেলা পরিষদের সম্মেলন কক্ষে পুলিশী পাহারায় আটকে রাখা হয়েছে।

এদিকে সাংবাদিকদের আটকে রাখার ঘটনায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে অবিলম্বে তাদের ছেড়ে দেয়ার দাবি জানিয়েছে রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়ন। ইউনিয়নের সভাপতি কাজী শাহেদ ও সধারণ সম্পাদক মামুন-অর-রশিদ এক বিবৃতে অবিলম্বে সাংবাদিক সৌরভ হাবীবকে ছেড়ে দেয়ার দাবি জানান।