১৫ নভেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

রুবেল আউট, রনি ইন

  • বাংলাদেশের প্রাথমিক দল ঘোষণা করেছে বিসিবি ॥ নেই জুবায়েরও

স্পোর্টস রিপোর্টার ॥ আগেই জানা ছিল, খুব শীঘ্রই বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের প্রাথমিক স্কোয়াড ঘোষণা করা হবে। ৩ জানুয়ারি থেকে যে অনুশীলন ক্যাম্প শুরু হয়ে যাবে। সেই দল ঘোষণাও হয়ে গেছে বুধবার। বিপিএলের তৃতীয় আসরে চমক জাগানো পেসার ২১ উইকেট নেয়া আবু হায়দার রনি যে প্রাথমিক দলটিতে থাকবেন, তাও বোঝা গেছে। ব্যাটসম্যান নুরুল হাসান সোহানেরও সুযোগ পাওয়া যেন সময়ের বিষয় ছিল। এ দুইজনের সঙ্গে মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতও প্রাথমিক দলে সুযোগ পেয়েছেন। কিন্তু আশ্চর্য করা বিষয় হলো, প্রাথমিক দলেই সুযোগ হয়নি পেসার রুবেল হোসেনের। ওয়ানডে বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে পরপর দুই উইকেট নিয়ে বাংলাদেশকে কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠানো এ পেসার তাই জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে টি২০ সিরিজে, এশিয়া কাপ টি২০ কিংবা টি২০ বিশ্বকাপ, কোনটিতেই খেলতে পারবেন না। প্রাথমিক দলে নেয়া হয়নি জুবায়ের হোসেন লিখনকেও। তার যে আহামরি কোন নৈপুণ্যই দেখার মিলেনি। সবার একটি প্রশ্ন। কেন রুবেলের বেলায় এমনটি হলো? জানা গেল, ইনজুরির জন্যই প্রাথমিক দলেও রুবেলকে রাখা হয়নি। গত সেপ্টেম্বর থেকে ভারতে ‘এ’ দলের হয়ে খেলতে গিয়ে যে বাম পায়ের পেশিতে টান লাগে, এ ইনজুরিই রুবেলকে ভোগায়। বিপিএলে যদিও ইনজুরি মুক্ত হয়ে খেলেন রুবেল, কিন্তু এরপর ইনজুরি তাকে আবারও পিছু নিয়েছে। আগামী চার থেকে ছয় সপ্তাহ নাকি পায়ের ওপর জোড় দিয়ে হাঁটতেই পারবেন না রুবেল। তার মানে জানুয়ারিতে যে জিম্বাবুইয়ের বিপক্ষে সিরিজ হবে, সেটি খেলতে পারবেন না নিশ্চিত। এ সময়ের পর পুনর্বাসন প্রক্রিয়া শুরু হবে রুবেলের। পুনর্বাসন শেষে ফিটনেস ধরে রাখা এবং অনুশীলন নিয়মিত ভালভাবে করার বিষয়ও আছে। সবকিছু মিলিয়ে দুই থেকে আড়াই মাসের আগে জোড়ে বলই করতে পারবেন না রুবেল। তাই যদি হয়, তাহলে ফেব্রুয়ারি মাসটিও যাবে। এশিয়া কাপ খেলা হবে না। এরপর থাকে টি২০ বিশ্বকাপ। আড়াই মাস সময় লাগা মানে হচ্ছে, টি২০ বিশ্বকাপ শুরু হয়ে যাওয়া। যেহেতু ফেব্রুয়ারির ৮ তারিখের মধ্যে বিশ্বকাপের চূড়ান্ত দল ঘোষণা করতে হবে, তা করতে গেলে রুবেলকে পাওয়া যাবে না। আর তাই রুবেলকে প্রাথমিক দলেও রাখা হয়নি।

আজ শেষ হচ্ছে ২০১৫ সাল। শুক্রবার শুরু হয়ে যাবে নতুন আরেকটি বছর, ২০১৬ সাল। নতুন বছরের শুরুতেই যেন ধাক্কা খেলেন রুবেল। আর এ বছরটি রনির জন্য যেন শুভ হয়ে আসল। ২৭ সদস্যের দলটি ৩ জানুয়ারি থেকে অনুশীলন ক্যাম্প শুরু করবে। স্ট্রেন্থ এন্ড কন্ডিশনিং কোচ মারিও ভিলাভারায়েনের কাছে সকাল সাড়ে ৯টায় প্রাথমিক দলে থাকা ক্রিকেটারদের রিপোর্ট করতে বলা হয়েছে। ২৭ সদস্যের দলটি সেদিন থেকেই আসন্ন টি২০ খেলাগুলোর জন্য প্রস্তুত হতে শুরু করবেন। যেখানে মাশরাফি, সাকিব, মুশফিক, তামিম, সৌম্য, সাব্বির, মাহমুদুল্লাহ, নাসির, মুস্তাফিজের মতো টি২০’র নিয়মিত ক্রিকেটাররাও থাকছেন।

প্রাথমিক দল ॥ তামিম ইকবাল, সাব্বির রহমান রুম্মন, সৌম্য সরকার, মাশরাফি বিন মর্তুজা, ইমরুল কায়েস, মুস্তাফিজুর রহমান, জহরুল ইসলাম অমি, আবু হায়দার রনি, লিটন কুমার দাস, আল আমিন হোসেন, এনামুল হক বিজয়, শফিউল ইসলাম, মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত, মোঃ শহীদ, মোঃ মিঠুন, আবুল হাসান রাজু, মুশফিকুর রহীম, তাসকিন আহমেদ, সাকিব আল হাসান, কামরুল ইসলাম রাব্বি, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, আরাফাত সানি, নাসির হোসেন, সাকলায়েন সজিব, কাজী নুরুল হাসান, সোহাগ গাজী ও শুভগত হোম চৌধুরী।