১৪ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

নতুন বছরেও উচ্চ আদালত থাকবে সরগরম

  • ৬ জানুয়ারি নিজামীর আপীলের রায় ॥ ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়সহ অনেক আলোচিত মামলার নিষ্পত্তি

বিকাশ দত্ত ॥ দেশের সর্বোচ্চ আদালত বাংলাদেশ সুপ্রীমকোর্ট বিদায়ী বছরের মতো নতুন বছরের (২০১৬) শুরুতেই থাকবে বেশ সরগরম। সবার দৃষ্টি থাকবে সুপ্রীমকোর্ট, আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালসহ অন্যান্য আদালতের দিকে। আপীল বিভাগে মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলার নিষ্পত্তি, ট্রাইব্যুনালের ডজনখানেক রায় এবং নিম্ন আদালতগুলোতে মৃত্যুদ-ের বিরুদ্ধে আপীল হবে নতুন বছরে। নতুন বছরেই জামায়াতের আমির মতিউর রহমান নিজামীর আপীলের রায়, ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার রায়সহ মানবতাবিরোধী অপরাধের ১০ জনের আপীল নিষ্পত্তি, পিলখানা হত্যা মামলায় নিম্ন আদালতের রায়ের বিরুদ্ধে আসামিদের আপীল ও ডেথ রেফারেন্সের ওপর শুনানি হবে।

এদিকে জমায়াতের নায়েবে আমির দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর আপীলের ৬১৪ পৃষ্ঠার পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশ হয়েছে। এ বিষয়ে ভারপ্রাপ্ত এ্যাটর্নি জেনারেল মুরাদ রেজা বলেছেন, ‘পূর্ণাঙ্গ রায় বৃহস্পতিবার প্রকাশিত হয়েছে। রায়টি পর্যালোচনা করে সরকারের সঙ্গে আলোচনার প্রেক্ষিতে রিভিউ করা হবে।’ অর্থাৎ নতুন বছরেই রিভিউ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে। একই ভাবে সিলেটের রাজন ও খুলনার রাকিব, ঐশী রহমানকে মৃত্য্যুদ-ের ডেথ রেফারেন্স, ঢাকার ভিকারুননিসা নূন স্কুল ও কলেজের এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে শিক্ষক পরিমল জয়ধরকে যাবজ্জীবন কারাদ-। জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র জুবায়ের আহমেদ হত্যা মামলায় পাঁচ ছাত্রলীগ নেতাকর্মীকে মৃত্যুদণ্ড এবং ছয়জনকে যাবজ্জীবন কারাদ-ের মামলাগুলো এখন নিষ্পত্তি করতে উচ্চ আদালতে আসবে। পাশাপাশি বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মামলা রয়েছে। এগুলোরও শুনানি চলছে। ফলে নতুন বছরেও উচ্চ আদালতসহ অন্যান্য আদালতের প্রতি সবার নজর থাকবে সবচেয়ে বেশি।

নিজামীর রায় ৬ জানুয়ারি ॥ একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে ট্রাইব্যুনালে মৃত্যুদ-প্রাপ্ত জামায়াতে ইসলামীর নেতা আমির আলবদর বাহিনীর প্রধান মতিউর রহমান নিজামীর আপীলের যুক্তিতর্ক শেষ হয়েছে। ৮ ডিসেম্বর শুনানি শেষে রায় ঘোষণার জন্য ৬ জানুয়ারি দিন নির্ধারণ করা হয়েছে।

আপীল নিষ্পত্তির অপেক্ষায় ॥ আন্তর্জাতিক আপরাধ ট্রাইব্যুনালে দ- প্রদান করার পর আপীল বিভাগে ১৭ জন আপীল দায়ের করেন। এরমধ্যে জামায়াতে ইসলামীর সাবেক আমির গোলাম আযম ও বিএনপি নেতা আব্দুল আলীম আপীল নিষ্পত্তি হওয়ার আগে মারা যান। সে কারণে তাদের আপীল অকার্যকর হয়ে যায়। অন্যদিকে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে মৃত্যুদ-প্রাপ্ত দেলাওয়ার হোসাইন সাঈদীর দ- কমিয়ে আপীল বিভাগ আমৃত্যু কারাদ- প্রদান করে। সাঈদীর মামলায় এখন পূর্ণাঙ্গ রায় প্রকাশিত হয়েছে। আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের দেয়া ফাঁসির রায়ের বিরুদ্ধে আপীল বিভাগে এখন জামায়াতে ইসলামীর আমির মতিউর রহমান নিজমীর করা আবেদনের শুনানি শেষ হয়েছে। রায় ঘোষণার জন্য ৬ জানুয়ারি দিন নির্ধারণ করা হয়েছে। আপীল নিষ্পত্তির অপেক্ষায় রয়েছেÑ মীর কাসেম আলী, মোঃ মোবারক হোসেন, সৈয়দ মোঃ কায়সার, এটিএম আজাহারুল ইসলাম, আব্দুল জব্বার, আব্দুস সুবহান, মাহিদুর রহমান, আফসার হোসেন চুটু ও সিরাজের মামলা। এছাড়া একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের সময় মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালে নতুন-পুরাতন মিলিয়ে মোট ১৭টি মামলা রয়েছে। এরমধ্যে নেত্রকোনা জেলার মুসলিম লীগ নেতা আতাউর রহমান ননি ও নেজামে ইসলামের ওবায়দুল হক তাহেরের মামলাটি প্রায় শেষের দিকে।

রাজন-রাকিবের ডেথ রেফারেন্সের কপি হাইকোর্টে ॥ বহুল আলোচিত সিলেটের শিশু রাজন ও খুলনার রাকিব হত্যা মামলার মৃত্য্যুদ- অনুমোদনের জন্য (ডেথ রেফারেন্স) হাইকোর্টে এসে পৌঁছেছে। গত ৮ নবেম্বর দেশের বহুল আলোচিত সিলেটের শিশু রাজন হত্যা এবং খুলনার রাকিব হত্যা মামলার রায় হয়। দুই মামলার রায়ে আদালত ছয়জনের ফাঁসির দ-াদেশ দেয়। ঘটনার মাত্র চার ও তিন মাসের মাথায় এ ঘটনা দুটির বিচারের রায় হয়, যা বাংলাদেশের ইতিহাসে নিম্ন আদালতে দ্রুততম রায়ের নজির।

ঐশীর ডেথ রেফারেন্স ॥ পুলিশ কর্মকর্তা মাহফুজুর রহমান ও তার স্ত্রী স্বপ্না রহমান হত্যা মামলায় মৃত্যুদ-প্রাপ্ত ঐশীর ডেথ রেফারেন্স হাইকোর্টে। সাধারণত মৃত্যুদ-প্রাপ্ত আসামিদের ফাঁসির রায় কার্যকরের আগে হাইকোর্টের অনুমতির প্রয়োজন হয়। ডেথ রেফারেন্সের পাশাপাশি বিচারিক আদালতে ফাঁসির রায়ের বিরুদ্ধে আসামিরা আপীল করে থাকেন। সরকার যদি অগ্রাধিকার ভিত্তিতে এসব ডেথ রেফারেন্সের শুনানি করতে চায় তাহলে রেজিস্ট্রার কার্যালয় প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিয়ে থাকে। যেমনটি নেয়া হয়েছিল বিডিআর বিদ্রোহের ঘটনায় দায়ের করা হত্যা মামলা ও সৌদি দূতাবাস কর্মকর্তা খালাফ এস আলী হত্যা মামলার ক্ষেত্রে।

খালেদা জিয়াসহ অন্য নেতৃবৃন্দ ॥ বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি দুর্নীতির মামলা, গ্যাটকো দুর্নীতি মামলা এবং নাইকো দুর্নীতি মামলার শুনানি চলছে। এছাড়া তারেক রহমান, বিএনপির ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব) হান্নান শাহ, রফিকুল ইসলাম মিয়া, এমকে আনোয়ার, মির্জা আব্বাস, বিএনপির ছাত্রবিষয়ক সম্পাদক শহীদ উদ্দীন চৌধুরী এ্যানী, যুবদল সভাপতি সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল আলম নীরব ১৭৮, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি হাবিব-উন-নবী খান সোহেল, ঢাকা মহানগর বিএনপির যুগ্ম-আহ্বায়ক এমএ কাইয়ুম, ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি আবদুল কাদের ভূঁইয়া জুয়েল, ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক হাবিবুর রশীদ হাবিবসহ অনেকের বিরুদ্ধেই একাধিক মামলা রয়েছে। এগুলোর জামিনসহ অন্যান্য বিষয়ে উচ্চ আদালত থাকবে সরগরম।

পিলখানা হত্যাকা- ॥ পিলখানায় বাংলাদেশ রাইফেলস (বিডিআর), বর্তমানে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) হত্যা মামলায় হাইকোর্টে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শুরু করেছে রাষ্ট্রপক্ষ। সমস্ত ডেথ রেফারেন্স ও আপীলের ওপর এ যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করা হচ্ছে। ২০০৯ সালের ২৫ ও ২৬ ফেব্রুয়ারি পিলখানার বিডিআর সদর দফতরে ৫৭ জন সেনা সদস্যসহ ৭৪ জনকে হত্যার দায়ে ২০১৩ সালের ৫ নবেম্বর ১৫২ বিডিআর সদস্যকে মৃত্যুদ- দিয়ে রায় দেয় বিচারিক আদালত। ওই রায়ের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে খালাসপ্রাপ্ত ২৭৭ জনের মধ্যে ৬৯ জন আসামির সাজা চেয়ে আপীল করে রাষ্ট্রপক্ষ।

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলা ॥ গ্রেনেড হামালার মামলাও নতুন বছরে শেষ হবে বলে আশা করা যাচ্ছে। ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশে সে সময়কার বিরোধীদলীয় নেত্রী এবং বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভাষণ দানকালে এ গ্রেনেড হামলা চালানো হয়। এ হামলায় আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদক আইভি রহমানসহ ২৪ জন শহীদ হন এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাসহ পাঁচ শতাধিক নেতাকর্মী গুরুতর আহত হন।

তারেকের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবেদন ২৩ ফেব্রুয়ারির মধ্যে ॥ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘পাকবন্ধু’ বলে কটূক্তি করার অভিযোগে বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিরুদ্ধে করা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন আগামী ২৩ ফেব্রুয়ারির মধ্যে দাখিলের নির্দেশ দিয়েছে আদালত। পল্টন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি-তদন্ত) প্রতিবেদন দাখিল না করায় ঢাকা মহানগর হাকিম অমিত কুমার দে নতুন ওই তারিখ ধার্য করেন।