২৩ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

চিকিৎসক যখন বক্সার!

চিকিৎসক যখন বক্সার!

অনলাইন ডেস্ক ॥ রাশিয়ায় চিকিৎসকের এক ঘুষিতে মৃত্যু হয়েছে এক রোগীর। স্থানীয় সময় শনিবার এ বিষয়ে তদন্ত শুরু করেছে দেশটি। ৫৬ বছর বয়সী ওই রোগীর নাম ইয়েভগেনি বাখতিন। আর চিকিৎসকের নাম ইলা জেলেনদিনভ। দেখে মনে হবে তিনি চিকিৎসক নন একজন বক্সার!

সিসিটিভিতে ধারণ করা ফুটেজে দেখা যায়, মধ্য বয়সী এক রোগীকে একটি টেবিলের ওপর পর্যবেক্ষণ করছিলেন সেবিকারা। এ সময় চিকিৎসক বাইরে থেকে এসে সেবিকাদের কাছ থেকে রোগীকে টেনে নিয়ে ধাক্কা দিয়ে সরিয়ে দেয়। ‘সেবিকাকে ছুঁয়েছ কেন’ বলেই রোগীকে মারতে উদ্যত হন চিকিৎসক। এ সময় রোগীর বৃদ্ধ সঙ্গী ঠেকাতে গেলে তাকেও ধাক্কা দেয় চিকিৎসক। এরপর চিকিৎসক রোগীর মাথা বরাবর একটি ঘুষি মারে। এতে রোগী মেঝেতে লুটিয়ে পড়েন। কিন্তু চিকিৎসক তাকে টেনে তোলার কোনো চেষ্টা করেনি; বরং রোগীর সঙ্গীকে তিনি মেঝেতে ফেলে মারতে থাকেন।

জানা যায়, রাশিয়ার রাজধানী মস্কো থেকে ৬৭০ কিলোমিটার দূরে বেলগরদ শহরের একটি হাসপাতালে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনাটি হাসপাতালের ক্লোজ সার্কিট টেলিভিশনে (সিসিটিভি) ধরা পড়ে। এই ভিডিও ইউটিউব ও সামাজিক যোগাযোগের বিভিন্ন মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। পরে দেশটির কিছু টেলিভিশনেও এ ঘটনার ভিডিও প্রচার করা হয়।

ইউটিউবে ভিডিও প্রচারের পর বেলগরদ প্রশাসন একটি তদন্ত কমিটি গঠন করে। তদন্তকারী কর্মকর্তা ইয়েলেনা কোজিরেভা বলেন, চিকিৎসক ঘুষি মারার পরপরই ওই রোগীর মৃত্যু হয়।

তবে এ ঘটনাকে ‘অনৈচ্ছিক নরহত্যা’ বলে মনে করছে তদন্ত কমিটি। নিচের লিংক-এ দেখুন ভিডিওটি-

https://www.youtube.com/watch?v=7V0zo4_EOL8

নির্বাচিত সংবাদ