১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

পায়ুপথের ইয়াবা উদ্ধার করতে হত্যা করা হয় ভুলুকে

স্টাফ রিপোর্টার, কক্সবাজার ॥ উখিয়ায় স্ত্রীর পরকীয়া ও পায়ুপথের ইয়াবা উদ্ধার করতে হতভাগা ভুলুকে হত্যা করা হয়েছে মর্মে নিহতের ছোট ভাই জিয়াবুল হক মামলা দায়ের করেছে। কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালত নিয়মিত মামলা হিসেবে রুজু করার জন্য উখিয়া থানার ওসিকে নির্দেশ প্রদান করেছে। বৃহস্পতিবার দায়েরকৃত ওই মামলায় আসামি করা হয়েছে বক্তার আহমদ প্রকাশ ইয়াবা বক্তার, জাহাঙ্গীর আলম ওরফে ইয়াবা জাহাঙ্গীর, নিহতের স্ত্রী রুজিনা আক্তার ও আবছার ওরফে টেবিল আবছারসহ আট জনকে। শনিবার উখিয়া থানার ওসি জানান, আদালতের নির্দেশমতে মামলা রুজু করে আসামিদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। অভিযোগে জানা যায়, আলমগীর ভুলুর বেকারত্বের সুযোগ নিয়ে একই গ্রামের ইয়াবা বক্তার তার স্ত্রী রুজিনা আক্তারকে বহনকারী হিসেবে ব্যবহার করে দীর্ঘ দিন ইয়াবার চালান পাঠিয়েছে দেশের বিভিন্ন স্থানে। দীর্ঘদিন ইয়াবার চালান বহনের সুযোগে রুজিনা আক্তারের সঙ্গে প্রেমে জড়িয়ে পড়ে বক্তার আহমদ। গত ৩ নবেম্বর সকালে আলমগীর ভুলুর পায়ু পথে কনডমে মোড়ানো বিপুল পরিমাণ ইয়াবা প্রবেশ করিয়ে দিয়ে গন্তব্য স্থানে পাঠায় ইয়াবা বক্তার। পরবর্তীতে কনডম ফেটে গেলে অসুস্থ হয়ে পড়ে ভুলু। গোপনে গ্রাম্য চিকিৎসকদের দিয়ে কোন কিনারা হচ্ছে না দেখে জুমের ছড়া জঙ্গলে নিয়ে তাকে হত্যা করে ইয়াবা বের করে নেয় তারা। ১ জানুয়ারি বালুখালী জুমের ছড়ার জঙ্গল থেকে আলমগীর ভুলুর লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের ব্যবস্থা করে উখিয়া থানা পুলিশ।