১২ ডিসেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

রাঙ্গাবালীতে আহত ৫ বাঁশখালীতে আওয়ামী লীগ-যুবলীগ সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ৪

জনকণ্ঠ ডেস্ক ॥ চট্টগ্রামের বাঁশখালীতে আধিপত্য নিয়ে রবিবার আওয়ামী লীগ-যুবলীগ সংঘর্ষে ৪ জন গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ১২ জন আহত হয়েছেন। একই দিন পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালীতে আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন ৫ জন। উভয় ঘটনায় এলাকায় উত্তেজনা ও আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। খবর স্টাফ রিপোর্টার ও নিজস্ব সংবাদদাতার।

জানা গেছে, বাঁশখালীতে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে আওয়ামীলীগ ও যুবলীগ কর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ সময় উভয় পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া এবং গুলিবর্ষণের ঘটনাও ঘটে। সংঘর্ষে উভয় পক্ষের ৪ গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছে অন্তত ১২ জন। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে উভয় পক্ষের কর্মীদের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়।

শনিবার রাতে উপজেলার বৈলছড়ি ইউনিয়নের চেচুরিয়া এলাকায় আওয়ামী লীগ নেতা কফিল উদ্দিন এবং যুবলীগ নেতা মাকছুদুর রহমানের কর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনার জের ধরে রবিবার উভয় পক্ষের মধ্যে গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে। স্থানীয় ও পুলিশ সূত্র জানায়, সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ টুটুন চক্রবর্তী (৪০), শাহ আলম (৩৬), মফিজুর রহমান (৩২) ও বদি আলমকে (৩৮) আশঙ্কাজনক অবস্থায় চমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

গলাচিপা ॥ ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর মনোনয়নকে কেন্দ্র করে পটুয়াখালীর রাঙ্গাবালী উপজেলায় দুই সম্ভাব্য প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে সংঘর্ষে পাঁচজন আহত হয়েছে। রবিবার দুপুরে উপজেলার চরমোন্তাজ ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, রাঙ্গাবালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এনামুল ইসলামের তত্ত্বাবধানে প্রতিনিধি সভা শেষে দলীয় কার্যালয়ের সামনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন প্রত্যাশী একে সামসুউদ্দিন আবু ও আরেক মনোনয়ন প্রত্যাশী নাজমুল হুদার সমর্থকদের মধ্যে পাল্টাপাল্টি ধাওয়া শুরু হয়। এক পর্যায় দু’পক্ষ সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে পাঁচজন আহত হয়। আহত নজরুল প-িত, মোঃ হাসান, ইদ্রিস পাহলান, মোঃ সোহরাব ও আশরাফ আলীকে চিকিৎসার জন্য গলাচিপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়েছে।