২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

প্রতিবন্ধী আরিফা পা দিয়ে লিখে দিচ্ছে এসএসসি পরীক্ষা

নিজস্ব সংবাদদাতা, লালমনিরহাট, ১৫ ফেব্রুয়ারি ॥ দুই হাত অচল এই শারীরিক প্রতিবন্ধকতা বাধা হয়ে দাঁড়াতে পারেনি আরিফার জীবনে। সে এবারে এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছে পা দিয়ে লিখে। লেখাও খুবই সুন্দর ও ঝকঝকে। অন্য পরীক্ষার্থীদের মত দ্রুত ও স্বাভাবিকভাবেই লিখতে পারে। অদম্য মেধাবী আরিফা পঞ্চম ও অষ্টম শ্রেণীর পরীক্ষায় পা দিয়ে লিখে খুব ভাল ফলাফল করে সকলকে তাক লাগিয়ে দিয়েছিল। আরিফা সমাজের ও পরিবারের বোঝা হতে চায়নি। তাই লেখাপড়া শিখে নিজের পায়ে দাঁড়াতে চায়।

পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, মোছাঃ আরিফা আক্তার (১৫) দু’টি হাত জন্মগত ত্রুটি নিয়ে জন্মায়। একটু বেড়ে ওঠার পর অন্য শিশুদের চেয়ে একটু বেশী মেধাবী। পড়াশোনায় খুবই আগ্রহী। সমাপনী পরীক্ষায় পা দিয়ে লিখে এ গ্রেড পায়। একই ফল সে করে অষ্টম শ্রেণীতেও।

নাটোরে শিশু নির্যাতনের ঘটনাস্থলে প্রশাসন

নিজস্ব সংবাদদাতা, নাটোর, ১৫ ফেব্রুয়ারি ॥ বাগাতিপাড়ার মাকুপাড়া বাজারে চুরির অপবাদে শিশু নির্যাতনের সেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারসহ বিশেষ দল। এ সময় তাদের সামনে চুরির সঙ্গে জড়িত থাকার কথা এক শিশু স্বীকার করে। এদিকে যে কোন অপরাধের ঘটনায় অপরাধীদের আইনের হাতে তুলে দেয়ার পরামর্শ দেন তারা। তারা বলেন, আইন হাতে তুলে নেবেন না, আইনশৃঙ্খলা বজায় রাখতে প্রশাসনকে সহায়তা করবেন। এছাড়া বাজার কমিটির সভাপতিসহ চার সালিশ প্রধানকে কারাগারে পাঠানোর প্রতিবাদে বন্ধ দোকানপাট খুলে দেয়ার আহ্বান জানান তারা। এ সময় পুলিশ সুপার বলেন, সবাই দোকান খুলে ব্যবসা করেন কোন নিরপরাধ কাউকে হয়রানি করা হবে না। আর এজন্য নতুন কোন তদন্ত কমিটিও হবে না। মামলা হয়েছে তদন্ত করে সে অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সোমবার সকালে বাগাতিপাড়ার শিশু নির্যাতনের ওই ঘটনাস্থল পরিদর্শন ও স্থানীয়দের সঙ্গে মতবিনিময় করেন জেলা প্রশাসক খলিলুর রহমান, পুলিশ সুপার শ্যামল মুখার্জী, এএসপি সার্কেল (সদর) রফিকুল ইসলাম, বাগাতিপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা খন্দকার ফরহাদ আহমদ ও ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আমিনুর রহমানসহ অন্যরা।

রাজশাহীতে হোটেল দখল ও মালামাল লুটের অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার, রাজশাহী ॥ রাজশাহী নগরীতে প্রকাশ্যে দলবল নিয়ে হোটেল দখলের অভিযোগ পাওয়া গেছে। নিজস্ব সম্পত্তিতে নির্মাণাধীন হোটেল উদ্বোধনের আগেই দখল ও মালামাল লুটপাট করা হয়েছে। আসবাবপত্র ভাংচুরের পর হোটেলের সাইনবোর্ড খুলে নিজেদের সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে তালা মেরে দেয়া হয়েছে। সোমবার রাজশাহী সাংবাদিক ইউনিয়নের (আরইউজে) কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে এসব অভিযোগ করেন ভুক্তভোগী বোয়ালিয়াপাড়া এলাকার গৌসুল আজম সেখ নুরুল গনি নামের এক ব্যক্তি।