২০ অক্টোবর ২০১৮  ঢাকা, বাংলাদেশ  
শেষ আপডেট এই মাত্র    
ADS

মালাবির কয়েদিদের গাওয়া গানের এ্যালবাম গ্র্যামির জন্য মনোনীত

আফ্রিকান দেশ মালাবির পুরনো, জনাকীর্ণ, অস্বাস্থ্যকর ও কড়া পাহারাধীন জোম্বা কারাগারে খুনী, দস্যু ও ধর্ষকদের বাস এবং সেখানে রয়েছেন গ্র্যামি এ্যাওয়ার্ডের জন্য মনোনীত শিল্পীরাও।

কাঠের জিনিসপত্র তৈরির এক কারখানার কাছে স্থাপিত এক অস্থায়ী স্টুডিওতে ১৪ কায়েদি ও দু’রক্ষী জীবনের শিক্ষা, ক্ষতি, পাপ ও ক্ষমার কথা নিয়ে রচিত এক অসাধারণ এ্যালবাম রেকর্ড করেন। এটি বিশ্বের সঙ্গীত জাগতের সুপরিচিত শিল্পীদের সৃষ্টি কর্মের সঙ্গে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে যাচ্ছে। এর মধ্য দিয়ে ক্ষুদ্র, দরিদ্র দেশ মালাবি গ্র্যামি এ্যাওয়ার্ডের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বিতা করার প্রথম সুযোগ পেল। প্রতিযোগিতার ফলাফল সোমবার রাতে ঘোষিত হওয়ার কথা। সাজাপ্রাপ্ত কয়েদি চিকোন্দি সালানজে (৩২) বলেন, মালাবির নামই কখনও শোনেননি বিশ্বের এমন আরেক মানুষই এখন বলছেন, মালাবি নামেও একটি দেশ আছে। সালানজে দস্যুবৃত্তির জন্য পাঁচ বছর জেল কাটার পর আগস্ট মাসে তার মুক্তি পাওয়ার কথা। সে জানায়, তার গান ‘লিসেন টু মি’ তে শিশুদের তাদের মা-বাবার কথা শুনতে বলা হয়, যে কাজটি করতে সে নিজেই ব্যর্থ হয়েছিল।

ইরান ব্রেনানের প্রযোজিত এ্যালবাম ‘আই হেড নো এভরিথিং হিয়ার’ এক উপক্ষিত দেশের জন্য আরও বেশি মাত্রায় এর অপরাধীদের শাস্তি দেয়ার প্রচলিত ব্যবস্থার জন্য অপ্রত্যাশিত আশীর্বাদ হয়ে দেখা দিয়েছে। এ দ-বিধান কখনও কখনও এর নিষ্ঠুরতার জন্য সমালোচিত হয়েছে। আমেরিকার নাগরিক ব্রেনান মৌলিক সঙ্গীতের খোঁজে বিশ্বজুড়ে ঘুরে বেড়ান। সঙ্গীতগুলোতে যন্ত্রণাদায়ক আফ্রিকান সমাজগুলোর সমস্যাদি নিয়ে প্রায়ই মন্তব্য করা হয়। সেগুলোতে খুনের দায় তিন বোনের মতো এর শিল্পীদের জীবন নিয়ে ভাবনাও ফুটে উঠেছে। তাদের সঙ্গীতে হত্যাকা-েরই বর্ণনা দেয়া হয়। যার কারণে তারা জোম্বায় যাবজ্জীবন কারাদ- ভোগ করছেন। -নিউইয়র্ক টাইমস

এই মাত্রা পাওয়া